1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

ভাইরাল ভিডিও

যে ভিডিও দেখে আপনিও হয়ত ওবামাকে ভালোবাসবেন

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার মেয়াদ শেষ হয়ে আসছে৷ আগামী জানুয়ারিতে তিনি ক্ষমতা ছাড়বেন৷ দুই দফায় দায়িত্বে থাকা মার্কিন এই প্রেসিডেন্টের জনপ্রিয়তা প্রকাশ পায় এই মিউজিক ভিডিওটিতে৷ না দেখলে মিস করবেন!

তিনি এমন একজন প্রেসিডেন্ট, যাকে কেবল যুক্তরাষ্ট্র নয়, বিশ্বের অনেক দেশের মানুষই ‘আপনজন' মনে করে৷ তাদের কাছে প্রেসিডেন্ট ওবামা যেন পাশের বাড়ির মানুষ৷ এতটাই স্বচ্ছ্বন্দ্য তাঁর আচরণ৷ এমন রসবোধ খুব কম প্রেসিডেন্টেরই দেখা গেছে৷ শিশুদের সঙ্গে আচরণ শিশুসুলভ, আবার বৃদ্ধদের সঙ্গেও সাবলীল৷ নারীর প্রতি তাঁর শ্রদ্ধাবোধ ফুটে ওঠে স্ত্রী মিশেল ওমার সঙ্গে কাটানো মুহূর্তগুলোতে৷ তিনি একজন দায়িত্ববান বাবা এবং মেয়েদের কাছে ‘প্রিয় বন্ধু'৷ কখনো শরণার্থীদের জন্য তাঁর চোখে জল৷ তার আবেগ, উচ্ছ্বাস, আনন্দ যে কোনো মানুষকে ছুঁয়ে যায়৷

সকালে উঠে জর্জ ওয়াশিংটন বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে মার্কিন প্রেসিডেন্টের কফি খেতে যাওয়া এবং শিক্ষার্থীদের সঙ্গে সেলফি তোলা- আমাদের দেশে তো কল্পনারও অতীত৷ এত নিরাপত্তা প্রোটোকলের বেড়াজালে আমাদের দেশে প্রধানমন্ত্রী বা প্রেসিডেন্টের কাছে যাওয়ার সৌভাগ্য ক'জনেরই বা হয়৷

দুনিয়ার সবচেয়ে ক্ষমতাধর মানুষ হওয়া সত্ত্বেও ওবামা ধরাছোঁয়ার বাইরে থাকতে চান না – অন্তত অ্যামেরিকার সেই সব শিশুদের জন্য, যারা ওভাল অফিসে তাঁর সঙ্গে দেখা করার সুযোগ পায়৷ ওবামা মানুষের সঙ্গে কত সহজে মিশতে পারেন৷

এজন্যই মার্কিনীদের কাছে তিনি ‘কুল' প্রেসিডেন্ট৷ শিল্পী জন ট্যারিফা তাই প্রেসিডেন্ট ওবামার প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে গানটি গেয়েছেন আর ভিডিও করেছে স্পিরোস লেনা৷

নেক্সট স্টুডিও তাদের ফেসবুক পাতায় ভিডিওটি শেয়ার করেছে অক্টোবরের ৪ তারিখে৷ সেখানে এখন পর্যন্ত ভিডিওটি দেখা হয়েছে ২ কোটি ৪০ লাখ বার, শেয়ার হয়েছে ৬ লাখেরও বেশি বার৷ ৭ অক্টোবর ইউটিউবে ভিডিওটি আপলোডের পর দেখা হয়েছে ৫ লাখ ২০ হাজার বার৷

মিউজিক ভিডিওটির শিরোনাম, ‘আই ডোন্ট ওয়ানা লেট ইউ গো, আই অ্যাম গোয়িং টু মিস ইউ'৷ ওবামার প্রেসিডেন্ট ও সাধারণ জীবনের কিছু মুহূর্ত তুলে ধরা হয়েছে ভিডিওতে৷ সেইসঙ্গে শিল্পীর আকুতি ঝরে পড়ছে, ‘যেও না'৷ ভিডিওর বর্ণনায় লেখা হয়েছে, ‘‘বিশ্বের কুল প্রেসিডেন্টের সম্মানে এই ভিডিও, যা বিশ্ববাসী কখনো দেখেনি৷'

এপিবি/এসিবি

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়