1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

যুক্তরাষ্ট্রের কাছে কিছুই তাহলে গোপন থাকবে না

ইন্টারনেটে গোপনীয় তথ্য গোপন রাখার যে ব্যবস্থা, তা-ও আর নিরাপদ নেই৷ গোপনীয়তার বেড়া ভেঙে সেখানেও ঢুকে পড়ছে এনএসএ৷ টেলিফোন এবং ইন্টারনেটে যুক্তরাষ্ট্রের আড়ি পাতার তথ্য ফাঁস করে সাড়া জাগিয়েছেন স্নোডেন৷

এ সংক্রান্ত নতুন খবরটিও সাড়া জাগিয়েছে৷ ব্রিটেন আর যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদ মাধ্যমে এসেছে এ খবর৷ ব্রিটেনের ‘দ্য গার্ডিয়ান' আর যুক্তরাষ্ট্রের ‘নিউইয়র্ক টাইমস' জানায়, সুপার কম্পিউটার ব্যবহার করে, বিভিন্ন আইটি কোম্পানির সহায়তা নিয়ে ইন্টারনেটে যেসব তথ্য এনক্রিপশন সফটওয়্যার গোপন রাখছে, সেগুলোরও ভেতরে ঢুকে পড়ছে যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তা সংস্থা (এনএসএ)৷ এ কাজটি তারা করছে এক বিলিয়ন ডলার খরচ করে তৈরি, ‘বুলরান' নামের একটি প্রকল্পের আওতায়৷ মনে রাখা দরকার, এনক্রিপশন সফটওয়্যার ব্যক্তিগত তথ্য, অনলাইন কেনা-বেচা এবং ই-মেলকেও গোপনীয়তার বেড়াজালে আবদ্ধ রাখে৷ ইন্টারনেট সেবাদানকারী সংস্থাগুলো দাবি করে, এর মাধ্যমে সত্যিই গোপন তথ্য গোপন রাখা যায়৷ এনএসএ সেই আশ্বাসে ভরসা রাখার আর উপায় রাখল না!

এনএসএ যুক্তরাষ্ট্রের বাইরেও ছড়িয়ে দিয়েছে কর্মপরিধি৷ নিউইয়র্ক টাইমসের খবর অনুযায়ী ব্রিটেন, ক্যানাডা, অস্ট্রেলিয়া এবং নিউজিল্যান্ডেও রয়েছে তাদের সহায়ক সংস্থা৷ এনক্রিপশন সফটওয়্যারের বেষ্টনী ভেঙে সবার গোপনীয়তার দফারফা করার কাজটি নাকি নব্বইয়ের দশক থেকে করে আসছে যুক্তরাষ্ট্র৷ দ্য গার্ডিয়ান জানিয়েছে আরেকটি আঁতকে ওঠার মতো তথ্য৷ শুধু যুক্তরাষ্ট্রের এনএসএ নয়, ব্রিটেনের গোয়েন্দা সংস্থাগুলোও নাকি এনক্রিপশনের জারিজুরি শেষ করে ইন্টারনেটে সবার গোপন জগতে ঢুকে বসে আছে!

এসিবি/এসবি (ডিপিএ)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়