1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

খেলাধুলা

মোয়েনশেনগ্লাডবাখের কাছে ছয় গোল খেল লেভারকুজেন

সময়টা ভালো যাচ্ছে না জার্মানির সাবেক অধিনায়ক মিশায়েল বালাকের৷ একে তো জাতীয় দল থেকে বাদ পড়ার পর রোববার তাঁর দল বেয়ার লেভারকুজেন হাফ ডজন গোল হজম করল৷ অন্য ম্যাচে স্টুটগার্টকে ৩-১ গোলে হারাল ডর্টমুন্ড৷

Leverkusen Mönchengladbach

গোল করছেন মোয়েনশেনগ্লাডবাখের রোয়েল ব্রুয়ের্স

মাত্র বুন্ডেসলিগার মৌসুমের শুরু, তাই তারকা খেলোয়াড়দের গা গরম করা এখনও শেষ হয়নি৷ এই সুযোগে মধ্যমসারির বেশ কিছু দল শুরুতেই চমক দেখিয়েছে৷ কিন্তু তাই বলে রোববার মিশায়েল বালাকের বায়ার লেভারকুজেন প্রতিপক্ষ বোরুসিয়া মোয়েনশেনগ্লাডবাখের কাছে ছয় গোল খাবে সেটি কোন সমর্থক মেনে নিতে পারছেন না৷ ম্যাচটি তারা হেরেছে ৬-৩ গোলে৷ তার ওপর ৬৩ মিনিটের মাথায় বালাককে মাঠ থেকে উঠিয়ে নেওয়া হয়, তখন স্কোর ৫-২৷ ম্যাচ শুরুর পর মোয়েনশেনগ্লাডবাখের ১৯ বছর বয়সী প্যাট্রিক হেরমান ২০ মিনিটের মাথায় গোল করে বসেন৷ তবে চার মিনিট পরেই তা ফিরিয়ে দেন এরেন ডেরডিয়ুক৷ এর পরপরই এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ পেয়েছিল লেভারকুজেন৷ তবে স্টেফান কিসলিং এর হেড বারে লেগে ফেরত আসে৷ ৪০ মিনিটের মাথায় মোয়েনশেনগ্লাডবাখের রোয়েল ব্রুয়ের্স গোল করে দলকে এগিয়ে নেন৷ এর পাঁচ মিনিট পর নিজের দ্বিতীয় ও দলের তৃতীয় গোলটি করেন প্যাট্রিক হেরমান৷

Moenchengladbach's Juan Arango

হুয়ান আরাংগোর ৩০ মিটার দূর থেকে নেওয়া এই কিক লেভারকুজেনের জালে জড়ায়

বিরতির পরও বালাকের দলকে খেলায় ফেরার মত মনে হয়নি৷ বরং ৫৬ মিনিটের সময় হুয়ান আরাংগোর ৩০ মিটার দূর থেকে নেওয়া কিক লেভারকুজেনের গোলরক্ষক রেনে আডলারকে বোকা বানায়৷ মিনিট দুই পর অবশ্য লেভারকুজেন পেনাল্টি পায়, তাতে গোল করেন ভিডাল৷ কিন্তু তার দুই মিনিট পর আবারও মোয়েনেশেনগ্লাডবাখ এগিয়ে যায় ইদ্রিসু'র গোলে৷ ৬৯ মিনিটের সময় মার্কো রয়েস দলের পক্ষে ষষ্ঠ গোলটি করেন৷ এক মিনিট পরেই আরেকটি গোল শোধ করেন লেভারকুজেনের কিসলিং৷ খেলা শেষে লেভারকুজেনের গোলরক্ষক আডলার বলেন, আমাদের রক্ষণভাগের অবস্থা ছিল ভয়াবহ৷ নিজ মাঠে ছয় গোল খাওয়া কেউই মেনে নেবে না৷

অন্যদিকে স্টুটগার্টের বিপক্ষে ম্যাচে ডর্টমুন্ড প্রথমার্ধেই এগিয়ে যায় ৩-০ গোলে৷ প্রথম গোলটি আসে স্টুটগার্টের খালিদ বুলারুজের আত্মঘাতী গোল থেকে৷ এরপর লুকাস বারিওস ও মারিও গোয়েটজে গোল করে সেটিকে অনেক এগিয়ে নেন৷ বিরতির পর স্টুটগার্টের স্ট্রাইকার কাকাউ একটি গোল শোধ করেন৷

প্রতিবেদন: রিয়াজুল ইসলাম

সম্পাদনা: অরুণ শঙ্কর চৌধুরী