1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

মৃত্যুদণ্ড বেড়েছে, তবে কার্যকর হয়েছে কম: অ্যামনেস্টি

মৃত্যুদণ্ড নিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল৷ প্রতিবেদন অনুযায়ী, ২০১৬ সালে সারা বিশ্বে মৃত্যুদণ্ডের সংখ্যা বেড়েছে, তবে আগের বছরের তুলনায় মৃত্যুদণ্ড কম কার্যকর হয়েছে৷ মৃত্যুদণ্ডে সবার চেয়ে এগিয়ে চীন৷

অ্যামনেস্টির প্রতিবেদনে চীন বরাবরের মতোই বিশেষ গুরুত্ব পেয়েছে৷ আর সেখানে আবার বলা হয়েছে, যেহেতু চীন সরকারিভাবে মৃত্যুদণ্ড সংক্রান্ত কোনো তথ্য প্রকাশ করে না, তাই ২০১৬ সালে সে দেশে কতজনকে এই দণ্ড দেওয়া হয়েছে, তা বলা যাচ্ছে না৷ তবে অ্যামনেস্টি মনে করে, আগের মতো এবারও যে চীনে মৃত্যুদণ্ডের সংখ্যা বিশ্বের বাকি সব দেশের চেয়ে অনেক বেশি ছিল সে বিষয়ে সন্দেহের কোনো অবকাশ নেই৷

মঙ্গলবার প্রকাশ করা অ্যামনেস্টির প্রতিবেদন অনুযায়ী, ২০১৬ সালে সারা বিশ্বে সরকারঅনুমোদিত মৃত্যুদণ্ডের সংখ্যা ১ হাজার ৩২৷ এর মধ্যে চীনের হিসেবটা নেই৷ মানবাধিকার সংস্থা ‘দুই হুয়া'-র নির্বাহী পরিচালক জন ক্যাম মনে করেন, গত বছর চীনে অন্তত দু'হাজার জনকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়েছে৷

তবে অ্যামনেস্টি মনে করে, সব কিছুর পরও স্বীকার করতেই হবে যে, চীনেও মৃত্যুদণ্ড কিছুটা কমেছে৷

যুক্তরাষ্ট্রেও কমেছে৷ ২০১৬ সালে সে দেশে সরকারিভাবে মোট ২০ জনকে মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়েছে৷ গত ২৫ বছরের মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রে কোনো বছরই এত কম মৃত্যুদণ্ড দেয়া হয়নি৷

প্রতি বছরই নতুন কয়েকটি দেশ থেকে আসছে সর্বোচ্চ শাস্তি হিসেবে মৃত্যুদণ্ড আর না রাখার ঘোষণা৷ ২০১৬ সালে এভাবে মৃত্যুদণ্ডবিরোধী অবস্থান নিয়েছে বেনিন এবং নাউরু৷

তবে উল্টো চিত্রও আছে৷ আগে কখনো মৃত্যুদণ্ড না দিলেও ২০১৬ সালে দিয়েছে এমন দেশের কথাও প্রতিবেদনে উল্লেখ করেছে অ্যামনেস্টি৷ প্রতিবেদন অনুযায়ী, গত বছর প্রথমবারের মতো মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে বেলারুশ, বতসোয়ানা এবং ফিলিস্তিন৷

এসিবি/ডিজি (ম্যাক্সমিলিয়ানে কশিক, এপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়