1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

মালয়েশিয়া কি রক্ষণশীল দেশ হয়ে যাচ্ছে

মালয়েশিয়াতে সাম্প্রতিক সময়ে ঘটে যাওয়া কয়েকটি রক্ষণশীল ঘটনা দেশটির বহুজাতিক বৈশিষ্ট্যের ভবিষ্যৎকেই হুমকির মুখে ঠেলে দিয়েছে বলে বিশেষজ্ঞরা বলছেন৷

default

কুয়ালালামপুরের এই বিলবোর্ডে দেখানো মালয়েশিয়ার বহুজাতিয় বৈশিষ্ট্য কি মুছে যাবে?

উল্লেখ্য, এ মাসের শুরুতে বিবাহ বহির্ভূত যৌন সম্পর্ক রাখার দায়ে তিনজন মহিলাকে শাস্তি হিসেবে পেটানো হয়েছে৷ এছাড়া একজন অমুসলিম কর্তৃক আল্লাহ শব্দটি উচ্চারণ করা নিয়ে দেশটিতে বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছে৷

সিস্টার্স ইন ইসলাম নামের একটি সংগঠনের কর্মকর্তা সমাজবিজ্ঞানী নোরাইনি ওথম্যান বলেছেন, বেশ কয়েকবছর ধরে একটি বহুধর্মীয় বৈশিষ্ট্য নিয়ে যে মালয়েশিয়া গড়ে উঠছিল, সাম্প্রতিক কয়েকটি ঘটনায় তার ভবিষ্যৎ অনেকটা অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে৷ কারণ সরকার রক্ষণশীল ইসলামি গোষ্ঠীগুলোর দাবির কাছে দিন দিন নতি স্বীকার করছে৷

উল্লেখ্য, দেশটিতে সাধারণ বিচার ব্যবস্থার পাশাপাশি ধর্মীয় শরিয়া আদালতের কার্যক্রমও চালু আছে৷ তবে গত কয়েক বছর ধরে এই শরিয়া আদালত আগের যে কোনো সময়ের তুলনায় বেশ সচল দেখা যাচ্ছে৷ মদ্যপান ও বিবাহ বহির্ভুত যৌনতার ক্ষেত্রে ঐ আদালতকে বেশ কঠোরভাবে আইন প্রয়োগ করতে দেখা গেছে৷

নোরাইনি বলছেন, তিনজন নারীকে যে পেটানো হলো তা দেশটির সাধারণ বিচার ব্যবস্থার সম্পূর্ণ পরিপন্থী৷ সুতরাং বোঝাই যাচ্ছে যে, ঘটনাটি সাধারণ ও শরিয়া বিচারব্যবস্থার মধ্যে সংঘাতের সৃষ্টি করেছে এবং সরকার শরিয়া ব্যবস্থার পক্ষ নিচ্ছে৷

এদিকে দেশটির উপ প্রধানমন্ত্রী মুহিদ্দীন ইয়াসিন বলেছেন, ঐ তিন নারীর বিরুদ্ধে যে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে তা ছিল অনেক কম শাস্তি৷ কারণ সাধারণ বিচারব্যবস্থায় এর চেয়েও বড় শাস্তির বিধান রয়েছে৷

এছাড়া গত ডিসেম্বরে আদালতের একটি রায়ে বলা হয়েছে যে অমুসলিমরা ´গড` শব্দটির অনুবাদ করে ´আল্লাহ` শব্দ ব্যবহার করতে পারবেননা৷

প্রতিবেদনঃ জাহিদুল হক

সম্পাদনাঃ সুপ্রিয় বন্দ্যোপাধ্যায়

সংশ্লিষ্ট বিষয়