1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

মার্কিন সাংবাদিকের শিরশ্ছেদ করলো আইএস

জঙ্গি গোষ্ঠী ‘ইসলামিক স্টেট'-এর এক ভিডিওতে যুক্তরাষ্ট্রের এক সাংবাদিকের শিরশ্ছেদ করতে দেখা গেছে৷ এছাড়া আরও এক মার্কিন সাংবাদিকেরও এমন পরিণতির হুমকি দেয়া হয়েছে৷

James Foley Journalist Reporter Libyen

সাংবাদিক জেমস ফলি

ইসলামিক স্টেট-এর সঙ্গে জড়িত এমন অনলাইন সূত্র থেকে প্রায় পাঁচ মিনিটের এই ভিডিওটি প্রকাশ করা হয়৷ এতে দেখা যাচ্ছে, মুখোশ পরা এক জঙ্গি কমলা রংয়ের পোশাক পরা মার্কিন সাংবাদিকের শিরশ্ছেদ করছেন৷ ব্রিটিশ উচ্চারণে ইংরেজি বলা ঐ জঙ্গি বলেন, ‘‘মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা যদি ইরাকে ইসলামিক স্টেটের উপর হামলা বন্ধের নির্দেশ না দেন তাহলে দ্বিতীয় সাংবাদিকের শিরশ্ছেদ করা হবে৷''

শিরশ্ছেদ করা ঐ সাংবাদিকের নাম জেমস ফলি বলে জানা গেছে৷ তাঁকে ২০১২ সালের ২২ নভেম্বর সিরিয়ার ইডলিব এলাকা থেকে অপহরণ করা হয়েছিল৷ লিবিয়া যুদ্ধের খবর প্রচার শেষে তিনি সিরিয়া গিয়েছিলেন৷ এএফপি, গ্লোবালপোস্ট সহ কয়েকটি গণমাধ্যমে তিনি খবর প্রেরণ করতেন৷

Screenshot eines auf Facebook veröffentlichten Offenen Briefs von James Foleys Mutter

ফেসবুকে জেমস ফলির মায়ের চিঠি...

যে সাংবাদিককে হত্যার হুমকি দেয়া হয়েছে তাঁর নাম স্টিভেন সটলফ৷ গত বছরের আগস্টে তাঁকে অপহরণ করা হয়৷ কয়েকটি মার্কিন সংবাদপত্র ও ম্যাগাজিনে তিনি লেখালেখি করতেন৷ এর মধ্যে টাইম, ফরেন পলিসি, দ্য ক্রিস্টিয়ান সায়েন্স মনিটর নামের প্রখ্যাত প্রকাশনাও রয়েছে৷

মা-বাবা যা বললেন

জেমস ফলির মা ডিয়ানে ফেসবুকে লিখেছেন, ‘‘আমরা জিমকে নিয়ে এর আগে কখনো এতটা গর্ব অনুভব করিনি৷ সে সিরিয়ার মানুষের দুর্ভোগের কথা সারা পৃথিবীকে জানাতে গিয়ে নিজের প্রাণ দিয়েছে৷'' এরপর তিনি আটক অন্যদের ছেড়ে দেয়ার জন্য অপহরণকারীদের প্রতি আহ্বান জানান৷ কারণ, ‘‘ইরাক, সিরিয়া সহ বিশ্বের যে-কোনো অঞ্চলের প্রতি মার্কিন নীতির উপর তাদের (আটককৃতদের) কোনো নিয়ন্ত্রণ নেই,'' বলেন ডিয়ানে৷

এদিকে, ফলির মা-বাবা এক টুইটার বার্তায় তাঁর শুভাকাঙ্ক্ষীদের ধৈর্য ধরার আহ্বান জানিয়েছেন৷

হোয়াইট হাউসের প্রতিক্রিয়া

হোয়াইট হাউস জানিয়েছে তারা ভিডিওটি পরীক্ষা করে দেখছেন৷ প্রেসিডেন্ট ওবামাকেও বিষয়টি জানানো হয়েছে৷ তিনি তখন বাকি ছুটি কাটাতে ওয়াশিংটন থেকে মার্থা'স ভাইনইয়ার্ডে যাচ্ছিলেন৷ এদিকে ন্যাশনাল সিকিউরিটি কাউন্সিলের মুখপাত্র কাইটলিন হেডেন জানিয়েছেন, ‘‘(ঘটনা) যদি সত্যি হয়, তাহলে আমরা এই নির্দোষ সাংবাদিকের এমন নৃশংস হত্যার ঘটনায় মর্মাহত৷ তাঁর পরিবার ও বন্ধুবান্ধবের প্রতি আমরা গভীর সহানুভূতি জানাচ্ছি৷''

জেডএইচ/ডিজি (এএফপি, রয়টার্স)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়