1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

‘‘মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, ছাত্রলীগ নিয়ন্ত্রণ করুন’’

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্দোলনরত সাধারণ শিক্ষার্থীদের ওপর ছাত্রলীগের কর্মীদের হামলার ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন ব্লগার আর ফেসবুক ব্যবহারকারীরা৷ কেউ কেউ বিষয়টির প্রতি নজর দিতে প্রধানমন্ত্রীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন৷

সামহয়্যার ইন ব্লগে কয়েছ আহমদ বকুলের পোস্টের শিরোনাম, ‘‘মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, ছাত্রলীগ নিয়ন্ত্রণ করুন৷'' তিনি লিখেছেন, ‘‘...ছাত্রলীগ শব্দটার প্রতি অপরিসীম দুর্বলতা আছে, কিন্তু আজকের ছাত্রলীগ কি ছাত্রলীগ শব্দটার মাহাত্ম জানে? তারা কি ছাত্রলীগের অতীত ঐতিহ্যের সম্মান রক্ষা করতে পারছে? আদৌ কি আজকের ছাত্রলীগ বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ বা স্বাধীনতার পক্ষশক্তির কোনো কাজে আসছে? তাহলে কেন এই ছাত্রলীগ নামের কলঙ্ককে গায়ে জড়িয়ে সরকার নিজেকে বিপদগামী করছে?

‘‘যে-কোনো কারণে দুর্মুখেরাও শেখ হাসিনাকে একজন যোগ্য রাষ্ট্রনায়ক অভিধায় ভূষিত করছেন আজকাল৷ যে-কোনো প্রক্রিয়ায় ক্ষমতায় থেকে মানবতাবিরোধী অপরাধসহ রাষ্ট্রবিরোধী অবস্থান ও সকল কার্যক্রমের বিচার নিশ্চিত করতে তাঁর দৃঢ় মানসিকতা মানুষের মধ্যে ব্যাপক প্রশংসিত হচ্ছে৷ কিন্তু ছাত্রলীগ নামের উন্মত্ত উৎশৃঙ্খল ছেলেগুলোকে নিয়ন্ত্রণ না করতে পারলে তীরে এসে তরী ডুবে যাওয়ার সমূহ সম্ভাবনা থেকে যায়৷''

হামলার ঘটনায় সঙ্গে ছাত্রলীগ নয়, ছাত্রলীগে অনুপ্রবেশকারী কতিপয় দুষ্কৃতকারী জড়িত – ফেসবুকে অনেকের এমন মন্তব্যের জবাবে সামহয়্যার ইন ব্লগে রিপন ইমরান লিখেছেন, ‘‘এই গপ্প আর কয়দিন যে, ছাত্রলীগে অনুপ্রবেশকারী কতিপয় দুষ্কৃতকারী ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ করতেই এই কাণ্ড ঘটিয়েছে...৷ রাবির ঘটনায় অনেকেই দেখলাম ফেবুতে এই সুর তোলার একখান চেষ্টা চালাচ্ছেন....একই গপ্পো হজম করতে করতে বদহজম হচ্ছে জাতির....নতুন স্ক্রিপ্ট লেখেন, পুরনোতে আর কাজ হচ্ছে না....ছাত্রলীগে এত অনুপ্রবেশকারী প্রবেশ করে কেমনে? প্রবেশে কড়াকড়ি আরোপ করেন....প্রয়োজনে নতুন সদস্য নেয়া কিছুদিনের জন্য বন্ধ রাখেন....দলের দুষ্টু ক্ষতদের চিহ্নিত করে ঘাড় ধরে বের করে দেন...৷''

আমারব্লগে শাহানুর ইসলাম সৈকত আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে লিখেছেন, ‘‘ক্লাস-পরীক্ষার বর্ধিত ফিস প্রত্যাহার ও সান্ধ্যকালীন সকল কোর্স বন্ধ করার ঘোষণা যতক্ষণ না আসে ততক্ষণ পর্যন্ত রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের বর্তমান প্রশাসনের সাথে কোনো আপোশ নয়, নয় কোনো সমঝোতা বা অন্দোলন থেকে সরে আসা! শান্তিপূর্ণ আন্দোলনের মাধ্যমেই প্রশাসন তোমাদের যৌক্তিক দাবি মেনে নিতে বাধ্য হবে! তবে আন্দোলনের সময় অবশ্য খেয়াল রাখতে হবে যেন তোমাদের আন্দোলন থেকে জামাত-শিবিরের মতো কোনো স্বাধীনতা বিরোধী মৌলবাদী শক্তি দেশে কোনো প্রকার বিশৃঙ্খলা বা অরাজক পরিস্থিতির সৃষ্টি করতে না পারে!!''

ফেসবুকে সবাক পাখি (সুমন সওদাগর) লিখেছেন, ‘‘ছাত্রলীগতো না, শেখ হাসিনার প্রতিও শতভাগ বিশ্বাস নাই৷ আমি কোন দুঃখে ছাত্রলীগের অপকর্মের খবর শুনেই ডিফেন্ড করতে যাবো! বরং যাচাই করে অবস্থান নেবো, মন্তব্য করবো৷ এই ছোট্ট কাজটুকুন না করতে পারলে সারাজীবন তার ক্ষতিই করে যাবো, উপকার করতে পারবো না৷''

সংকলন: জাহিদুল হক

সম্পাদনা: দেবারতি গুহ

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়