1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

মাতৃদুগ্ধ পানে বিশ্ব রেকর্ডের প্রচেষ্টা

২৪শে অক্টোবর গোটা ফিলিপাইন্স জুড়ে লাখো মা তাঁদের সন্তানদের জনসমক্ষে বুকের দুধ পান করালেন৷ বিশ্বরেকর্ড এবং সেইসাথে সামাজিক প্রতিবন্ধকতাকে ভাঙতেই এই উদ্যোগ তাঁদের৷

ফিলিপাইন্সের বেশিরভাগ মানুষ বেশ রক্ষণশীল এবং ক্যাথলিক খ্রিষ্টান৷ এ দেশের সমাজে জনসমক্ষে বুকের দুধ খাওয়ানোকে খুব ভালোভাবে দেখা হয় না৷ তাই অ্যাডভোকেসি গ্রুপ ‘ব্রেস্ট ফিডিং ফিলিপিন্স' পুরো দেশে একযোগে সন্তানদের জনসমক্ষে বুকের দুধ খাওয়ানোর আয়োজন করেছে৷ ফিলিপাইন্সের এক হাজার শহরে এই আয়োজন করেছে উদ্যোক্তারা৷

গ্রুপের পরিচালক নোনা আনদায়া-ক্যাসটিলো বার্তা সংস্থা এএফপিকে জানিয়েছেন, যখন কোনো নারী চলচ্চিত্রে যৌন দৃশ্যে অভিনয় করেন বা জনসমক্ষে খোলামেলা পোশাক পড়েন, তখন জনগণ সেটাকে খারাপ মনে করে না৷ অথচ জনসমক্ষে কোনো মা যদি তাঁর সন্তানকে বুকের দুধ খাওয়ান, তাহলে সেটা ভালো চোখে দেখেন না তারা৷

তিনি এও জানান যে, তাদের গ্রুপের এক সদস্যকে বলা হয়েছিল তিনি যেন টয়লেটে গিয়ে তাঁর সন্তানকে দুধ খাওয়ান৷ এই ধরনের আচরণ বদলাতেই তাদের এই উদ্যোগ বলে জানান ক্যাসটিলো৷ ২০০৭ সালে এই গ্রুপটির আয়োজনে ১৫,২১৮ জন মা একসাথে তাঁদের সন্তানদের বুকের দুধ খাওয়ানোর বিশ্ব রেকর্ড গড়ে ‘গিনিস বুক অফ ওয়াল্ড রেকর্ডস'-এ নাম লিখিয়েছেন৷ জানা গেছে, এবারের আয়োজনে ২১ হাজার মা অংশ নিয়েছেন৷ তবে গিনিস কর্তৃপক্ষ তিন সপ্তাহ পরে তাদের রায় জানাবেন৷

২১ বছর বয়সি মা জিঙ্কি ভ্যালেন্সিয়া তাঁর এক মাস বয়সি ছেলেকে নিয়ে এসেছিলেন ম্যানিলার মারিকিনা শহরের আয়োজন স্থলে৷ তিনি জানান, প্রথমবার এত লোকের সামনে শিশুকে বুধের দুধ খাওয়াচ্ছেন, তাই কিছুটা লজ্জা লেগেছে বৈকি৷ কিন্তু পরবর্তীতে হয়ত আর লজ্জা লাগবে না৷ তবে তাঁর স্বামী জনসমক্ষে দুগ্ধপান করাতে দেবেন কিনা, এ বিষয়ে তাঁর সন্দেহ রয়েছে৷ আয়োজকরা আরো জানান, এ আয়োজনের আরো একটি লক্ষ্য হলো শিশুদের যাতে ইনফ্যান্ট ফর্মুলা, অর্থাৎ টিনের দুধ খাওয়ানো না হয়৷

১৯৮৬ সালে ফিলিপাইন্সে ‘মিল্ক কোড' নামে একটি আইন পাস হয়, যেখানে দুই বছরের কম বয়সি শিশুকে ইনফ্যান্ট ফর্মুলা খাওয়ানোর বিজ্ঞাপন নিষিদ্ধ করা হয়৷ এরপর ২০০৯ সালে আর একটি আইন পাস হয় দেশটিতে৷ যেটায় প্রাইভেট ও পাবলিক কোম্পানিগুলোতে কাজ করেন এমন মায়েরা যাতে সেসব জায়গায়, মানে তাঁদের কর্মক্ষেত্রে শিশুদের বুকের দুধ খাওয়াতে পারেন, সেই ব্যবস্থা রাখার নির্দেশ দেয়া হয়৷ তাই আয়োজকরা এই আইনের বাস্তবায়নের উপর জোর দিতে সবার প্রতি আহ্বান জানান৷

এপিবি/ডিজি (এএফপি, এপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন