1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

খেলাধুলা

মাঠ থেকে গরম দূর করতে বদ্ধপরিকর কাতার

কাতারে অনুষ্ঠিতব্য বিশ্বকাপ ২০২২ আয়োজন গ্রীষ্মের বদলে শীতকালে সরিয়ে নেয়া উচিত কিনা, তা নিয়ে বিতর্ক অব্যাহত রয়েছে৷ তবে আয়োজক দেশ বিশেষ ব্যবস্থায় গ্রীষ্মেই বিশ্বকাপ আয়োজনের পক্ষে৷

default

‘‘বিশেষ ব্যবস্থায় খেলার মাঠ এবং গ্যালারির তাপমাত্রা ২৫ থেকে ২৬ ডিগ্রির মধ্যে রাখা সম্ভব’’

ফিফা প্রেসিডেন্ট সেপ ব্লাটার বিশ্বকাপ ২০২২ এর সময়সূচি নিয়ে আবারো পরামর্শ প্রক্রিয়া শুরু করেছেন৷ গ্রীষ্মে কাতারে তাপামাত্রা ৫০ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত উঠতে পারে৷ এই তাপমাত্রার মধ্যে ফুটবল খেলা খেলোয়াড়দের পক্ষে যেমন অসম্ভব, তেমনি ফুটবল ভক্তদের জন্য দেখাও কষ্টকর৷ তাই কাতারে গ্রীষ্মের বদলে শীতকালে বিশ্বকাপ আয়োজনের কথা ভাবা হচ্ছে৷

তবে আয়োজকদের মধ্যে যারা গ্রীষ্মকালে বিশ্বকাপ আয়োজনের পক্ষে, তাদেরও যুক্তি রয়েছে৷ বিশেষ ব্যবস্থায় খেলার মাঠ এবং গ্যালারির তাপমাত্রা ২৫ থেকে ২৬ ডিগ্রির মধ্যে রাখা সম্ভব বলে মনে করেন তাঁরা৷ দোহায় সম্প্রতি এক সম্মেলনে বিশ্বকাপ আয়োজক কমিটির মহাসচিব হোসেইন আল তাহাওয়াদি বলেন, ‘‘আমরা সবসময়ই বলেছি, গ্রীষ্মকালে বিশ্বকাপ আয়োজন সম্ভব৷''

বিশ্বকাপের জন্য কাতারের রাজধানী দোহা থেকে ২০ কিলোমিটার দূরে প্রস্তুত করা হচ্ছে আল ওয়াকরাহ স্টেডিয়াম৷ আগামী কয়েক সপ্তাহের মধ্যে এই স্টেডিয়ামের শীতাতপ নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা চূড়ান্ত করা হবে৷ বিশ্বকাপ আয়োজক কমিটির সঙ্গে সম্পৃক্ত একটি সূত্র বার্তা সংস্থা এএফপিকে জানায়, ‘‘খেলা এবং প্রশিক্ষণের মাঠ – দু জায়গাই শীতাতপ নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থার অন্তর্ভূক্ত থাকবে৷ আর এটা মোটেই অসম্ভব নয়৷ তবে চ্যালেঞ্জ হচ্ছে, কম বিদ্যুৎ খরচ করে এটা কিভাবে করা যায়৷''

এদিকে, বিশ্বকাপের সময় নিয়ে বিতর্ক চললেও কাতারে প্রস্তুতি থেমে নেই৷ শুধু অবকাঠামো নয়, দলের পেছনেও লাখ লাখ মার্কিন ডলার খরচ করছে সেদেশ৷ বিশ্বকাপের জন্য ফুটবলার তৈরিতে গড়ে তুলেছে একাডেমি৷

ইতোমধ্যে সেদেশের তরুণ দল সাফল্যও দেখাতে শুরু করেছে৷ সম্প্রতি কাতারের অনূর্ধ্ব-১৬ দল জার্মান ক্লাব বোরুসিয়া ম্যুনশেনগ্লাডবাখের তরুণ দলকে হারিয়েছে ৭-১ গোলে৷ আর অনূর্ধ্ব-১৯ দল হারিয়েছে ব্রাজিলের অনূর্ধ্ব-২০ দলকে৷ কার্যত বিশ্বকাপের জন্য সবদিক থেকে প্রস্তুতি নিচ্ছে কাতার৷

এআই / জেডএইচ (এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়