1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

মহাজোট থেকে বেরিয়ে যাচ্ছে জাতীয় পার্টি!

ক্ষমতাসীন মহাজোট থেকে বেরিয়ে যাওয়ার ইঙ্গিত দিয়েছে জাতীয় পার্টি৷ এ নিয়ে দলের মধ্যে মতবিরোধ থাকলেও বেরিয়ে যাওয়ার পাল্লাই ভারি৷ দলের চেয়ারম্যান হুসেইন মোহাম্মদ এরশাদ নিজেই বলেছেন, মহাজোটের সঙ্গে আর থাকতে চান না তিনি৷

default

ফাইল ফটো

গাজিপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে জাতীয় পার্টির প্রার্থী বসে গেলেও তিনি আওয়ামী লীগ প্রার্থীর সমর্থনে কাজ করছেন না৷ কাজ করছেন বিরোধী দল বিএনপি'র প্রার্থী এম এ মান্নানের সমর্থনে৷ জাতীয় পাটির প্রার্থী কাজি মাহমুদ হাসান শুক্রবার জেলা জাতীয় পার্টির নেতা কর্মীদের সঙ্গে বৈঠক করে এ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে জানা গেছে৷

এই নির্বাচন হবে ৬ই জুলাই৷ নির্বাচনে জাতীয় পার্টির সমর্থন পেতে বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সভানেত্রী শেখ হাসিনা সংসদে এরশাদের সঙ্গে বৈঠকও করেন৷ এরশাদ সেই বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীকে আশ্বাস দিলেও বাস্তবে তা হয়নি৷ জানা গেছে, মাহমুদ হাসান গাজিপুরে বিএনপি'র প্রার্থীর পক্ষে কাজ করছেন কেন্দ্রের নির্দেশেই৷ তবে মাহমুদ হাসান ডয়চে ভেলেকে বলেন, তারা দলীয়ভাবে কোনো প্রার্থীর পক্ষে কাজ করার সিদ্ধান্ত নেননি৷ অথচ গাজিপুর জাতীয় পার্টির অধিকাংশ নেতা-কর্মী বিএনপি'র প্রার্থীর পক্ষেও কাজ করছেন৷ মাহমুদ হাসান পালন করছেন গাজিপুর জেলা জাতীয় পার্টির সভাপতির দায়িত্বও৷

শনিবার বিকেলে এরশাদ তাঁর অবস্থান আরো পরিষ্কার করেন৷ তিনি বৃহত্তর ঢাকা জেলার তৃণমূল পর্যায়ের নেতা-কর্মীদের সঙ্গে বৈঠকে স্পষ্ট করেই বলেন যে, তিনি আর মহাজোটে থাকতে চান না৷

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মোহাম্মদ এরশাদ নিজেই বলেছেন, মহাজোটের সঙ্গে আর থাকতে চান না তিনি (ফাইল ফটো)

এদিকে, শনিবার বিকেলে এরশাদ তাঁর অবস্থান আরো পরিষ্কার করেন৷ তিনি বৃহত্তর ঢাকা জেলার তৃণমূল পর্যায়ের নেতা-কর্মীদের সঙ্গে বৈঠকে স্পষ্ট করেই বলেন যে, তিনি আর মহাজোটে থাকতে চান না৷ কর্মীরাও মহাজোট ত্যাগের পক্ষে৷ তিনি জাতীয় পার্টি থেকে এককভাবে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রার্থী দেয়ার কথা জানান৷ সেই সভায় এরশাদ মহাজোটে থেকে বঞ্চিত এবং অবহেলিত হওয়ার কথা বলেন৷ তিনি সরকারের সমালোচনাও করেন৷ বলেন, সরকারে অপশাসনের কারণে জনপ্রিয়তা তলানিতে গিয়ে ঠেকেছে৷ তিনি ড. মুহাম্মদ ইউনূসকে হেনস্তা করারও সমালোচনাও করেন৷ মহাজোট ছাড়া নিয়ে অবশ্য জাতীয় পার্টির কেন্দ্রীয় নেতারা এখনও কেউ মুখ খুলতে চাইছেন না৷

এ নিয়ে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম হানিফ ডয়চে ভেলেকে বলেন, জাতীয় পার্টি গাজিপুর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বিএনপিকে সমর্থন দিয়েছে – এমন কোনো খবর তাদের জানা নেই৷ আর স্থানীয় সরকার নির্বাচন দলীয়ভাবে হয় না৷ এখানে ব্যক্তিগত পছন্দের কারণেও কেউ কাউকে সমর্থন দেয়৷ তিনি দাবি করেন, গাজিপুরে বিএনপি'র অনেকেই আওয়ামী লীগের প্রার্থীর পক্ষে কাজ করছেন৷ এটা অনেকে তাঁদের ব্যক্তিগত অবস্থান থেকে করেন৷

এরশাদ এবং তাঁর জাতীয় পার্টি আর মহাজোটে থাকতে চান না – এরশাদের এমন মন্তব্যকে হানিফ তেমন গুরুত্ব না দিয়ে বলেন, তিনি একটি দলের প্রধান৷ তাই দলের নেতা-কর্মীদের চাঙ্গা করতে হয়ত এ ধরনের কথা বলেছেন৷ জাতীয় পার্টির সঙ্গে মহাজোটের এমন কোনো টানাপোড়েন হয়নি যে জাতীয় পার্টি মহাজোট থেকে বের হয়ে যাবে৷ জাতীয় পার্টি মহাজোটেই আছে৷ মাহবুবুল আলম হানিফ বলেন, এরশাদ এর আগেও দল এবং দলের নেতা-কর্মীদের চাঙ্গা করতে নানা রকম কথা বলেছেন৷ মহাজোটের সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক ভালোই আছে৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন