1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

ভ্যান গঘের ছবি চুরি: দোষী ‘ওরা এগারো জন’

চলতি বছরের একুশ অগাস্টের সুন্দর রোদ ঝলমলে দিন৷ মিসরের রাজধানী কায়রোতে নীল নদের তীরবর্তী মাহমুদ খলিল জাদুঘর৷ অন্যদিনগুলোর মতো অনেকেই এসেছেন এখানে৷ উদ্দেশ্য, বিশ্বখ্যাত চিত্রশিল্পী ভ্যান গঘের আঁকা কয়েকটি মূল ছবি দেখা৷

default

চলতি বছরের একুশ অগাস্টের সুন্দর রোদ ঝলমলে দিন৷ মিসরের রাজধানী কায়রোতে নীল নদের তীরবর্তী মাহমুদ খলিল জাদুঘর৷ অন্যদিনগুলোর মতো অনেকেই এসেছেন এখানে৷ উদ্দেশ্য, বিশ্বখ্যাত চিত্রশিল্পী ভ্যান গঘের আঁকা কয়েকটি মূল ছবি দেখা৷

কিন্তু ফ্রেমে বাঁধানো দুটি ছবির দিকে তাকিয়ে তারা দেখতে পেলেন, সেখানে ভিনসেন্ট ভ্যান গঘের আঁকা ছবি নেই! ছবি চোর খুবই সন্তোর্পনে কেটে তুলে নিয়েছেন ছবিগুলো৷ এর একটি ছবির নাম ‘পপি ফ্লাওয়ার্স' আর অপরটি ‘ভেস অ্যান্ড ফ্লাওয়ার্স'৷ অদ্বিতীয় এই চিত্রকর্ম৷ মোটামুটি বাজার মূল্য অন্তত ৫ কোটি ডলার৷ এই চিত্রকর্ম দুটির মধ্যে একটি আগে দুইবার চুরি হয়েছিল৷ সর্বশেষ ‘ভেস অ্যান্ড ফ্লাওয়ার্স' ১৯৭৮ সালে চুরি হবার দুই বছর পর উদ্ধার করা হয়েছিল কুয়েত থেকে৷

এবারের চুরির পর হয় তদন্ত৷ চলে বিচার৷ বিচারে কর্তব্য পালনে ব্যর্থ হওয়ায় এই চুরির দায় বর্তেছে খোদ সরকারের সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের ১১ কর্মকর্তা- কর্মচারীর উপর৷ মিশরের আদালত এমনি এক রায় দিয়েছেন৷ দোষী বলে রায় দেয়া ব্যক্তিদের মধ্যে আছেন সে দেশেরই সংস্কৃতি উপমন্ত্রী মোহসেন সালেন৷ ১১ জনের প্রত্যেককে ৩ বছরের কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে৷ তবে সবাই জামিনে মুক্ত, আপিল করার সুবিধার্থে৷

তদন্তে দেখা গেছে, চুরির সময় ৪৩টি নিরাপত্তা ক্যামেরার মধ্যে চালু ছিল মাত্র সাতটি৷ ছিল না পর্যাপ্ত নিরাপত্তা কর্মী৷ তবে শুনানিকালে কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, বাজেটে বরাদ্দ নেই, তাই নিরাপত্তায় ঘাটতি৷

খোয়া যাওয়া চিত্রকর্মগুলো ১৮৮৭ সালে আঁকা বলে মনে করা হয়৷ এর তিন বছর পরই মারা যান বিখ্যাত পটুয়া ভ্যান গঘ৷ খোয়া যাওয়া এই ছবি দুটির হদিশ দিতে পারলে অর্থ পুরস্কারের ঘোষণা দিয়েছে সে দেশের সরকার৷

প্রতিবেদন: সাগর সরওয়ার

সম্পাদনা: আরাফাতুল ইসলাম