1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

ভেনিস চলচ্চিত্র উৎসবে গোল্ডেন লায়ন হাতে জন উ

মিশন ইম্পসিবল ছবির কথা নিশ্চয়ই আপনাদের মনে আছে, কিংবা ফেস অফ৷ হলিউডের এই ধরণের অনেক দুর্দান্ত অ্যাকশন ছবির পেছনে যিনি অবদান রেখেছেন তিনি হলেন প্রখ্যাত পরিচালক ও প্রযোজক জন উ৷

default

চীনা বংশোদ্ভুত পরিচালক জন উ

কেবল হলিউড নয় হংকং এর অনেক অ্যাকশন ছবিও করেছেন চীনা বংশোদ্ভুত এই নামজাদা পরিচালক৷ তবে তাঁর ছবির বৈশিষ্ট হলো ভিন্নধর্মী শ্বাসরুদ্ধকর অ্যাকশন যা দর্শকদের আটকে রাখে সিনেমার পর্দায়৷ অ্যাকশন দৃশ্যে স্লোমোশন ব্যবহার করে তিনি একটি ভিন্ন মাত্রা যোগ করেছেন৷ মিশন ইম্পসিবল টু ও ফেস অফ ছাড়াও তাঁর করা উল্লেখযোগ্য হলিউড ছবি হলো হার্ড টার্গেট ও ব্রোকেন অ্যারো৷ এছাড়া হংকংয়ে করা তাঁর ছবি হলো দ্য কিলার, রেড ক্লিফ সহ আরও বেশ কিছু ছবি৷ প্রখ্যাত এই চলচ্চিত্র শিল্পীকে সম্প্রতি পুরস্কৃত করেছে ভেনিস চলচ্চিত্র উৎসব৷ ছবির জগতে অবদানের স্বীকৃতি স্বরুপ তাঁর হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে গোল্ডেন লায়ন৷ লাইফটাইম অ্যাচিভমেন্ট হিসেবেই তাঁকে এই সম্মান দিলো এবারের ভেনিস চলচ্চিত্র উৎসব৷

তবে এই পুরস্কার সত্ত্বেও চলচ্চিত্র জগতে নিজের অবদানকে খুব একটা বেশি বলে মনে করছেন না জন উ৷ পুরস্কার পাওয়ার পর এক প্রতিক্রিয়ায় ৬৪ বছর বয়স্ক এই পরিচালক জানান যে তাঁর ভবিষ্যত লক্ষ্য হলো ছবির জগতে পূর্ব ও পশ্চিমের মধ্যে একটি সেতুবন্ধন গড়ে তোলা৷ এবারের ভেনিস চলচ্চিত্র উৎসবে জন উ-র পরিচালিত রেইন অফ অ্যাসাসিন ছবিটি প্রদর্শিত হচ্ছে৷ বরাবরের মত এই ছবিতেও রয়েছে মার্শাল আর্টের দুর্দান্ত সব অ্যাকশন৷

প্রতিবেদন: রিয়াজুল ইসলাম

সম্পাদনা: জাহিদুল হক

সংশ্লিষ্ট বিষয়