1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

ভারতীয় ছবির পসরা নিয়ে মিউনিখ চলচ্চিত্র উৎসব

২৫শে জুন থেকে সাড়ম্বরে শুরু হয় ২৮তম আন্তর্জাতিক মিউনিখ চলচ্চিত্র উৎসব৷ ৩রা জুলাই উৎসবের শেষ দিন৷ এবার থিম দেশ ভারত৷ বিশ্বখ্যাত অন্যান্য চলচ্চিত্র উৎসবের তুলনায় খানিকটা ভিন্ন আমেজের উৎসব এটি৷

ravaan

ভারতীয় ছবি রাবণ

বার্লিনের পর মিউনিখের এই উৎসব জার্মানির দ্বিতীয় বৃহত্তম চলচ্চিত্র উৎসব৷ ১৯৮৩ সাল থেকে প্রতি বছরই অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে এই উৎসব৷ এবারের উৎসবে বিশ্বের ৪২টি দেশের দুশরও বেশি ছায়াছবি প্রদর্শিত হচ্ছে৷ বিশ্বকাপ ফুটবল খেলা চলা সত্ত্বেও হাজার হাজার দর্শককে টানতে পারছে এই উৎসব৷ স্পেনের একটি ছবি দিয়ে উদ্বোধন করা হয় উৎসবের৷ প্রতিবন্ধী এক তরুণের সঙ্গে তার সুন্দরী সহকর্মীর প্রেমের কাহিনি নিয়ে রচিত ছবিটি ইতোমধ্যে স্পেনের একটি গুরুত্বপূর্ণ চলচ্চিত্র পুরস্কারে ভূষিত হয়েছে৷

মিউনিখ চলচ্চিত্র উৎসবে এবারের থিম দেশ ভারত৷ ১২টি পূর্ণ দৈর্ঘ্যের ও ৫টি স্বল্প দৈর্ঘ্যের ছায়াছবি প্রদর্শিত হচ্ছে উৎসবে৷ তবে বলিউডের চিরাচরিত নাচ গানে ভরপুর ছবি নয়, ভিন্ন ধরনের ছায়াছবি আনা হয়েছে মিউনিখ উৎসবে৷ ভারত থেকে এসেছেন চলচ্চিত্র বিশেষজ্ঞ এস.ভি. রামান৷ ভারতীয় চলচ্চিত্রের ইতিহাস এবং আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে তার অবস্থান নিয়ে এক অনুষ্ঠানে আকর্ষণীয় বক্তব্য রাখেন তিনি৷ তুলে ধরেন ভারতীয় ছায়াছবির নানা দিক৷

Import Export

নামকরা পরিচালক উলরিখ জাইডেলের ছবি ইমপোর্ট এক্সপোর্ট

এবারও জার্মানির পরিচালক বিশেষ করে নতুন পরিচালকদের বেশ কিছু ছায়াছবি প্রদর্শিত হচ্ছে উৎসবে৷ জার্মানি ও ফ্রান্সের যৌথ প্রযোজনায় নির্মিত ছবি ‘কার্লোস' একটি বিশেষ আকর্ষণ ছিল উৎসবের৷ আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে সাড়া জাগানো শীর্ষ সন্ত্রাসী কার্লস-এর জীবন, তার উত্থান ও পতন নিয়ে এই ছবি৷ চলতি ঘটনার আলোকে নির্মিত ছবির ওপর জোর দেয়া হয়েছে এবার৷ রয়েছে রাজনৈতিক বিযয় নিয়ে নির্মিত এবং সংগীত ভিত্তিক ছায়াছবি৷

চলচ্চিত্র জগতে বিশেষ অবদান রাখার জন্য অস্ট্রিয়ার পরিচালক উলরিখ জাইডেল পাচ্ছেন বিশেষ সম্মাননা৷ জাইডেল নির্মিত সমগ্র ছায়াছবি প্রদর্শিত হবে মিউনিখ উৎসবে৷ সিনে মেরিট পুরস্কার পাচ্ছেন যৌথভাবে ডেনমার্কের অভিনেতা মাডস মিকেলসেন এবং ইরানি চিত্র পরিচালক আব্বাস কিয়ারোস্তামি৷ সেরা বিদেশি ছায়াছাবির জন্য রয়েছে ৫০ হাজার অর্থমূল্যের আরি-সাইস পুরস্কার৷ ২রা জুলাই প্রদান করা হবে পুরস্কারটি৷ মনোনীতদের তালিকায় রয়েছে কান চলচ্চিত্র উৎসবে গোল্ডেন পাম বিজয়ী থাইল্যান্ডের ছবি ‘আঙ্কেল বুমি'৷

প্রতিবেদন: রায়হানা বেগম

সম্পাদনা: আব্দুল্লাহ আল ফারূক