1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

ব্রিটিশ সংসদ সদস্যের হত্যাকাণ্ডে গভীর শোকের ছায়া

রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত কোনো মানুষের হত্যাকাণ্ড সাম্প্রতিক কালে সম্ভবত দলমতনির্বিশেষে এত আবেগ সৃষ্টি করেনি, তরুণ ব্রিটিশ সংসদ সদস্য জো কক্স-এর মর্মান্তিক মৃত্যুর পর যেমনটা দেখা যাচ্ছে৷

বয়স মাত্র ৪১৷ দুই সন্তানের মা৷ লেবার দলের এমপি৷ সিরিয়ার শরণার্থীদের জন্য আন্তরিকভাবে অনেক কাজ করেছেন৷ আগামী সপ্তাহের গণভোটে ইউরোপীয় ইউনিয়নে ব্রিটেনের থাকার পক্ষে অক্লান্ত প্রচার অভিযান করে গেছেন৷ শুক্রবার নিজেরই সংসদীয় এলাকায় নৃশংসভাবে হত্যা করা হলো এই রাজনীতিককে৷ তাঁর এই অকালমৃত্যুতে দেশজুড়ে গভীর শোক নেমে এসেছে৷

৫২ বছর বয়স্ক আততায়ী টমাস মেয়ার হামলার সময় ‘ব্রিটেন ফ্রার্স্ট' বুলি আউড়েছিল বলে জানা গেছে৷ ফলে এই হত্যাকাণ্ডের পেছনে উগ্র জাতীয়তাবাদি ভাবাদর্শ কাজ করেছে বলে অনুমান করা হচ্ছে৷ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অন্যতম প্রধান নব্য নাৎসি সংগঠন ন্যাশানাল অ্যালায়েন্স-এর প্রতি তার সমর্থনের অনেক প্রমাণ পাওয়া গেছে৷

জো কক্স সম্প্রতি পুলিশের কাছে সন্দেহজনক বার্তার কথা জানিয়েছিলেন৷ তার ভিত্তিতে গত মার্চ মাসে একজনকে পুলিশ আটক করেছিল৷

স্ত্রীর মৃত্যুর পরেও তাঁর স্বামী এক হৃদয়বিদারক বিবৃতি প্রকাশ করেছেন৷ তিনি মনে করিয়ে দিয়েছেন, জো কক্স ঘৃণার রাজনীতিকে কীভাবে প্রত্যাখ্যান করেছেন৷ তাই ঘৃণার বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানোর আহ্বান জানিয়েছেন তিনি৷

আসন্ন ইইউ গণভোট নিয়ে প্রবল তর্ক-বিতর্কের মধ্যে সে দেশে বর্তমানে যে বিভাজন সৃষ্টি হয়েছে, তা ভুলে গিয়ে সাময়িক হলেও এক ঐক্যের আভাস পাওয়া যাচ্ছে৷

এই হত্যাকাণ্ডের পর গণভোটের প্রচার অভিযান স্থগিত রাখা হয়েছে৷ অনেকেই এই অভিযানকে ঘিরে তীব্র ভীতি, বিভাজন ও বিদ্বেষের পরিবেশের নিন্দা করে আসছিলেন৷ তাঁদের মতে, জো কক্স নিজেও এমনটা চাননি৷

তরুণ জনপ্রতিনিধি হিসেবে জো কক্স তরুণ প্রজন্মকেও উদ্বুদ্ধ করেছেন, এমন কিছু দৃষ্টান্তের কথা শোনা যাচ্ছে৷

এসবি/ডিজি (এএফপি, রয়টার্স)

নির্বাচিত প্রতিবেদন