1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

বেনজির হত্যার জন্য দায়ী অপ্রতুল নিরাপত্তা ব্যবস্থা: জাতিসংঘ

পাঞ্জাবের কর্তৃপক্ষ এবং রাওয়ালপিন্ডির পুলিশ বেনজির ভুট্টোকে রক্ষা করার কর্তব্য পালনে ব্যর্থ হয়েছে৷ ১,৩৭১ জন কর্মকর্তার সমন্বয়ে বেনজিরের নিরাপত্তায় যে পুলিশ বাহিনী পাঠানোর পরিকল্পনা ছিল, শেষ পর্যন্ত তাও পাঠানো হয়নি৷

default

বেনজির ভুট্টো

যথেষ্ট নিরাপত্তার ব্যবস্থা থাকলে পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেনজির ভুট্টোর মৃত্যু এড়ানো যেতো ৷ সে কথাই বলা হয়েছে জাতিসংঘের তদন্ত প্রতিবেদনে৷ বৃহস্পতিবার প্রকাশিত ঐ প্রতিবেদনে বলা হয়, সাবেক প্রেসিডেন্ট পারভেজ মোশাররফের তত্ত্বাবধানে

কেন্দ্রীয় সরকার সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেনজিরের জন্যে যথেষ্ট নিরাপত্তার ব্যবস্থা করেনি৷ নিরাপত্তা ব্যবস্থা ছিল মারাত্মক রকমের অপ্রতুল৷

প্রতিবেদনটিতে আরও বলা হয়েছে, পাঞ্জাব প্রদেশের কর্তৃপক্ষ এবং রাওয়ালপিন্ডি জেলার পুলিশ বেনজির ভুট্টোকে রক্ষা করার কর্তব্য পালনে ব্যর্থ হয়েছে৷ এমন কি বেনজিরের নিরাপত্তায় পুলিশ বাহিনীর যে সংখ্যক সদস্য পাঠানোর পরিকল্পনা ছিল, শেষ পর্যন্ত সেই পুরো পুলিশ বাহিনীও পাঠানো হয়নি৷ প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, প্রথমত, নিরাপত্তা ব্যবস্থা অপ্রতুল ছিল, দ্বিতীয়ত, তদন্ত কাজেও গাফিলতি রয়েছে৷ যেমন, শুধু হামলা তদন্ত নয়, হামলার পরিকল্পনা এবং ঐ হামলায় কারা অর্থ যোগালো সেই বিষয়টিও যথাযথ ভাবে তদন্ত করা হয়নি৷

Pakistan Benazir Bhutto ermordet in Rawalpindi

বেনজিরের ওপর হামলার ঠিক আগে, রাওয়ালপিন্ডিতে জনতার উদ্দেশ্যে হাত নাড়ছেন তিনি

প্রতিবেদনে আরো বলা হয়, পাঞ্জাব বা রাওয়ালপিন্ডি যে জায়গার কথাই বলা হোক না কেন, তারা জানতো বেনজির ভুট্টোর জন্যে জরুরি নিরাপত্তা ঝুঁকি রয়েছে৷ তাঁর ওপর অন্য কোন ভাবে নতুন করে হামলা হতে পারে৷ আর সেই ধরনের হামলা প্রতিরোধ করার মত নিরাপত্তা ব্যবস্থা তারা নিতে পারতো৷

জাতিসংঘের তিন সদস্যের একটি তদন্ত প্যানেল শুক্রবার তাদের প্রতিবেদনে এই কথা জানিয়েছে৷ জাতিসংঘে নিযুক্ত চিলির রাষ্ট্রদূত হেরাল্ডো মুনোজের নেতৃত্বে এই স্বাধীন তদন্ত কমিটি বেনজির ভুট্টোর হত্যা ঘটনার তদন্ত করেছে৷ ২০০৭ সালের ২৭-শে ডিসেম্বর গুলি এবং বোমা হামলায় প্রাণ হারান ভুট্টো৷ ইসলামাবাদের কাছাকাছি রাওয়ালপিন্ডি শহরে নির্বাচনী সমাবেশে বক্তব্য রাখার পর, ভুট্টোর ওপর হামলা চালানো হয়৷ বেনজির ভুট্টোর স্বামী পাকিস্তানের বর্তমান প্রেসিডেন্ট আসিফ আলী জারদারির অনুরোধে জাতিসংঘ এই তদন্ত চালায়৷

জাতিসংঘ মহাসচিব বান কি মুনকে প্রতিবেদনটি হস্তান্তর করা হয়েছে৷ মহাসচিব বান, জাতিসংঘে নিযুক্ত পাকিস্তানের রাষ্ট্রদূত আব্দুল্লাহ হুসেইন হারুনকে প্রতিবেদনটির একটি কপি দিয়েছেন, যাতে তিনি ইসলামাবাদে তাঁর সরকারকে এটি পাঠাতে পারেন৷

প্রতিবেদক: ফাহমিদা সুলতানা

সম্পাদনা: রিয়াজুল ইসলাম

সংশ্লিষ্ট বিষয়