1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

বেত্রাঘাতের শাস্তি থেকে নিষ্কৃতি পেলেন এক মালয়েশিয়ান নারী

মালয়েশিয়ায় সুলতান বেত্রাঘাতের শাস্তি থেকে নিষ্কৃতি দিলেন এক নারীকে৷ বিয়ার পানের কারণে মুসলিম এই নারীকে বেত্রাঘাত করার নির্দেশ দিয়েছিল শরিয়া আদালত৷

default

মালয়েশিয়ার দুই নারী

দুইবছর আগে ৩৩ বছর বয়সি কারতিকা সারি দেবী বিয়ার পানের কারণে এই শাস্তি পান৷ তাঁকে ৫,০০০ রিঙ্গিট বা ১,৩৫১ ডলার জরিমানা করে শরিয়া আদালত৷ এবং ছয়বার বেত্রাঘাত শাস্তি হিসেবে নির্ধারণ করে৷

দেশটির ধর্মীয় কর্তৃপক্ষ একাধিকবার এই বেত্রাঘাতের শাস্তি স্থগিত রাখেন৷ আর এর পর দেবীর মামলাটি পাহাং অঞ্চলের সুলতানের কাছে উপস্থাপিত হয়৷ কারণ ইসলামি পরিষদের প্রধান হিসেবে তিনিই একমাত্র আদালত নির্দেশিত এই শাস্তি মকুব করতে পারেন৷

কারতিকা সারি দেবীর বাবা জানান, সুলতান তাঁর মেয়ের বেত্রাঘাতের শাস্তি মকুব করে দিয়েছেন৷ তবে এই শর্তে যে তাঁকে সমাজ কল্যাণমূলক কাজ করতে হবে৷ ২৬ মার্চের তারিখ দেয়া এক চিঠি পান দেবী

স্টেট ইসলামি এবং মালয় সংস্কৃতি পরিষদের কাছ থেকে৷ ঐ চিঠিতে বলা হয়, সুলতান তাঁকে বেত্রাঘাতের শাস্তি থেকে অব্যাহতি দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন৷

দেবীর বাবা স্টার পত্রিকাকে জানান, সুলতান দেবীকে তিন সপ্তাহ সমাজে কল্যাণমূলক কাজে অংশ গ্রহণ করার নির্দেশ দিয়েছেন৷

দুই বছর আগে শরিয়া আদালত বিয়ার পানের জন্য দেবীকে যে শাস্তির নির্দেশ দেয় তার বিরুদ্ধে নারী অধিকার সংগঠনগুলো প্রতিবাদ জানায়৷ তারা বলে, এই রায়ের মধ্য দিয়ে দেবীর মানবাধিকার ক্ষুন্ন করা হয়েছে৷

চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে বিবাহ বর্হিভূত সম্পর্কের কারণে মালয়েশিয়ার তিন নারীকে বেত্রাঘাতের নির্দেশ দেয় আদালত৷ আর এই ধরণের শাস্তির বিধানে ক্ষোভ প্রকাশ করে নারী অধিকার সংগঠনগুলো৷

এই ধরণের শাস্তির বিধান থেকে এই মর্মে গভীর উদ্বেগ দেখা দেয় যে রক্ষণশীল এবং কট্টর ইসলামপন্থিরা দেশের বিচার বিভাগের ওপর ক্রমশই প্রভাব অর্জন করছে৷

প্রতিবেদক : আসফারা হক

সম্পাদনা : আব্দুল্লাহ আল-ফারূক

সংশ্লিষ্ট বিষয়