1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

বিদ্রোহী সিরিসা সাংসদরা নতুন দল গড়তে চান

গ্রিক প্রধানমন্ত্রী আলেক্সিস সিপ্রাস বৃহস্পতিবার পদত্যাগ করার পর এবার তাঁর সিরিসা দলের প্রায় ২৫ জন সাংসদ একটি নতুন দল গড়তে চান৷ এই ‘গণ ঐক্য' দল সংসদের তৃতীয় বৃহত্তম গোষ্ঠী হবার ক্ষমতা রাখে৷

সাবেক জ্বালানি মন্ত্রী পানাগিওটিস লাফাজানিস হবেন নতুন ‘এলএই' দলের নেতা৷ গ্রিক সংসদের আসনসংখ্যা ৩০০৷ তার মধ্যে বামপন্থি সিরিসা দলের রয়েছে ১২৪টি আসন; রক্ষণশীল ‘নেয়া ডেমোক্রাটিয়া' বা নয়া গণতন্ত্র দলের ৭৬টি আসন; তার পরেই আসছে মধ্যমপন্থি ‘টো পোটামি' দল এবং চরম দক্ষিণপন্থি ‘গোল্ডেন ডন' বা ‘সোনার সকাল' দল – যাদের ১৭টি করে আসন৷ সেই হিসেবে ‘গণ ঐক্য' দল গঠিত হলে এবং তাদের অন্তত ২৫টি আসন থাকলে, তারা সংসদে তৃতীয় বৃহত্তম গোষ্ঠী হবে৷

বিষয়টি গুরুত্বপূর্ণ দুই কারণে৷ প্রথমত, বেইলআউট সংক্রান্ত ভোটে সিরিসা দলের যে পরিমাণ সদস্য বিপক্ষে ভোট দিয়েছেন, তা-তে সিপ্রাস সরকারের সংখ্যাগরিষ্ঠতাই বিপন্ন হতে চলেছিল৷ সেটা বুঝেই সিপ্রাস – প্রত্যাশা মতো – পদত্যাগ করে নতুন মধ্যকালীন নির্বাচনে ভাগ্য পরীক্ষা করার পথ বেছে নিলেন৷ মাত্র সাত মাস প্রধানমন্ত্রী ছিলেন সিপ্রাস – এবং পদত্যগের সিদ্ধান্ত ঘোষণা করার পরেও তাঁর জনপ্রিয়তা বিশেষ কমেনি; জনপ্রিয়তায় অন্য কোনো রাজনীতিকের তাঁর ধারে-কাছে আসার ক্ষমতা নেই৷ সেই হিসেবে ক্ষমতায় প্রত্যাবর্তনের ক্ষেত্রে সিপ্রাসের গুরুত্ব দেওয়ার মতো কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী নেই৷

Griechenland Panagiotis Lafazanis Abgeordneter

নতুন ‘গণ ঐক্য’ দলের নেতা হবেন সম্ভবত পানাগিওটিস লাফাজানিস

দ্বিতীয়ত, প্রেসিডেন্ট প্রোকোপিস পাভলোপুলস শুক্রবার সকালেই রক্ষণশীলদের নেতা ভ্যাঞ্জেলিস মাইমারাকিসকে ইমেল-এর মাধ্যমে সরকার গঠনের প্রচেষ্টা করার আহ্বান জানিয়েছেন – যদিও নেয়া ডেমোক্রাটিয়া দলের আসন মাত্র ৭৬টি এবং সহযোগী পাবার সম্ভাবনাও ক্ষীণ৷ মাইমারাকিস তিন দিন সময় পাবেন৷ তার পরে সরকারগঠনের সুযোগ যাবে পরবর্তী দলের কাছে৷ সেক্ষেত্রে ‘গণ ঐক্য' দল গঠিত হবার সঙ্গে সঙ্গে অন্তত খাতাকলমে সকারগঠনের আহ্বান পেতে পারে!

সব মিলিয়ে আলেক্সিস সিপ্রাস যে পথ ও পন্থা বেছে নিয়েছেন, তা স্বদেশে বা বিদেশে শুধু প্রত্যাশিতই নয়, দৃশ্যত বাঞ্ছিতও বটে৷ সিপ্রাস তাঁর পদত্যাগ সংক্রান্ত টেলিভিশন ভাষণে জাতিকে বলেছেন: ‘‘আমি যা কিছু করেছি, সব সাফল্য বা অসাফল্য, আপনাদের রায়ের কাছে পেশ করার একটা গভীর নৈতিক ও রাজনৈতিক দায়িত্ব বোধ করছি৷'' অপরদিকে গ্রিসের ইউরোপীয় পাওনাদাররা দৃশ্যত সিপ্রাসের পদক্ষেপে আদৌ বিস্মিত কিংবা বিড়ম্বিত নন – যদিও মুডি'জ ক্রেডিট রেটিং এজেন্সি মধ্যকালীন নির্বাচনের ফলে ভবিষ্যতে বেইলআউট-এর অর্থ হস্তান্তর করায় বিলম্ব ঘটার ঝুঁকি দেখছে৷

বিদায়ী সরকারের কর্মকর্তারা বলছেন যে, নির্বাচনের সম্ভাব্য তারিখ হলো ২০শে সেপ্টেম্বর৷

এসি/ডিজি (ডিপিএ, রয়টার্স, এপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন