1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

খেলাধুলা

বায়ার্ন-রেয়াল মহারণের অপেক্ষা

দুটো বাধা পার হতে পারলেই প্রথম দল হিসাবে টানা দ্বিতীয়বারের মতো উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শিরোপা জয়ের গৌরব অর্জন করবে বায়ার্ন মিউনিখ৷ এ পথে প্রথম বাধা রেয়াল মাদ্রিদ, ন’বার এ শিরোপা জয়ের রেকর্ড যাদের ঝুলিতে৷

ফাইনালের আগে ফুটবলপ্রেমীরা এখন ইউরোপীয় ফুটবলের এই দুই মহারথীর মহারণের অপেক্ষায়৷ চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমিফাইনালে জার্মানির বায়ার্ন বনাম স্পেনের রেয়ালের প্রথম লড়াই বুধবার, সান্টিয়াগো বার্নাব্যু স্টেডিয়ামে৷ ফিরতি লেগে মিউনিখে দুই দলের দেখা হবে ৩০শে এপ্রিল৷

কোয়ার্টার-ফাইনালে দুই লেগ মিলিয়ে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে ৪-২ গোলে হারিয়েই সেমিতে এসেছে বায়ার্ন৷ কিন্তু তার আগে টানা কয়েক ম্যাচ দল জয় না পাওয়ায় কোচ পেপ গুয়ার্দিওলাকে কিছুটা দুশ্চিন্তাতেই পড়তে হয়েছিল৷

অবশ্য বুন্ডেসলিগায় সর্বশেষ ম্যাচে জয় পাওয়ায় রিয়াল দ্বৈরথের আগে অনেকটাই উজ্জীবিত বায়ার্ন সমর্থকরা৷ তবে গুয়ার্দিওলা নিজে রিয়ালকে সমীহ করেই কথা বলছেন৷

UEFA Champions League Real Madrid Borussia Dortmund

ক্রিস্টিয়ানো রোনাল্ডো

‘‘যে ইতিহাস রেয়াল মাদ্রিদ গড়েছে, সেজন্য যথেষ্ট সম্মান তাদের প্রাপ্য৷ কোচ যেই হোক, তারা সব সময়ই কঠিন দল৷ এর কারণ তাদের আছে চমৎকার সব খেলোয়াড়, বিপুল সংখ্যক সমর্থক আর ফুটবলের ঐতিহ্য৷

কিছু দিক দিয়ে রেয়ালকে এগিয়ে রাখলেও বার্নাব্যুতে লড়াই করার প্রতিশ্রুতিই দিয়েছেন গুয়ার্দিওলা৷

শেষ চারে আসার পথে কোয়ার্টার ফাইনালে দুই লেগে বোরুসিয়া ডর্টমুন্ডকে ৩-২ গোলে হারিয়েছে রেয়াল৷ ক্রিস্টিয়ানো রোনাল্ডোকে ছাড়া গত কয়েক সপ্তাহ ভালোভাবে পার করতে পারলেও বায়ার্নের বিপক্ষে সেমিফাইনালে ফিফার বর্ষসেরা এই স্ট্রাইকারকে মাঠে চান সমর্থকরা৷

Bundesliga FC Augsburg - FC Bayern München Pep Guardiola

পেপ গুয়ার্দিওলা

কোচ কার্লো আন্সেলত্তিও চান, হাঁটুর চোটে চার ম্যাচ মাঠের বাইরে থাকা রোনাল্ডো তাঁর চমক নিয়ে সেমিফাইনালে হাজির থাকুক৷

ফুটবলের ইউরোপীয় শ্রেষ্ঠত্বের আসরে রেয়াল আর বায়ার্ন এর আগে মুখোমুখি হয়েছে ২০ বার, যার মধ্যে পাঁচটি ছিল সেমি ফাইনাল ম্যাচ৷ এই পাঁচবারের লড়াইয়ে চারবারই জয় পেয়েছে বায়ার্ন মিউনিখ৷ চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমিফাইনালে বায়ার্নের বিপক্ষে রেয়াল শেষবার জয় পেয়েছিল ২০০০ সালে৷

আগামী ২৪শে মে পর্তুগালের লিসবনে ‘আলোর মাঠ' স্তাদিও দা লুশ-এ হবে প্রতিযোগিতার ফাইনাল৷

জেকে/ডিজি (রয়টার্স, এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন