1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

বাংলাদেশে ব্লগার গ্রেপ্তারের ঘটনায় অ্যামনেস্টির উদ্বেগ

বাংলাদেশে চার ব্লগার গ্রেপ্তারের ঘটনায় আবারো উদ্বেগ প্রকাশ করেছে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল৷ মানবাধিকার সংগঠনটির জার্মান অংশের বাৎসরিক বৈঠকে এই উদ্বেগ প্রকাশ করা হয়৷ পাশাপাশি এই বিষয়ে জার্মান সরকারের সহায়তা চাওয়া হয়েছে৷

অ্যামনেস্টির জার্মান অংশের বাৎসরিক সম্মেলন শেষে মঙ্গলবার পাঠানো বিজ্ঞপ্তিতে লেখা হয়েছে, ‘‘এপ্রিলের শুরুতে চার ব্লগার রাসেল পারভেজ, সুব্রত অধিকারী শুভ, মশিউর রহমান বিপ্লব এবং আসিফ মহিউদ্দীনকে গ্রেপ্তার করা হয়, যারা ইন্টারনেটে ধর্ম বিষয়ক প্রশ্নে বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন বা বর্তমান যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনাল নিয়ে লিখেছেন৷ গ্রেপ্তারকৃত এই চার ব্লগারের মধ্য থেকে দু'জন কিছুদিন আগে জামিনে ছাড়া পেয়েছেন৷''

Blogger Asif Mohiuddin aus Bangladesch *** Blogger Asif Mohiuddin is under pressure from Government forces of Bangladesh, because of his writing on the reform of Education Sector. He is feeling in secured now. *** Zugeliefert durch Arafatul Islam am 4.10.2011. Copyright: Asif Mohiuddin

ব্লগার আসিফ মহিউদ্দীন গত জানুয়ারি মাসে হামলার শিকার হন

ব্লগারদের গ্রেপ্তারের কারণ তাদেরকে জানাতে এবং ন্যায়বিচারের স্বার্থে ব্লগারদেরকে আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ দিতে বৈঠক থেকে বাংলাদেশ সরকারের প্রতি দাবি তোলা হয়েছে৷ এই বৈঠক ধারণা করছে, গ্রেপ্তারকৃত ব্লগাররা নিজেদের মত প্রকাশের স্বাধীনতা চর্চা করেছেন৷ তাদের নির্যাতন করা থেকে বিরত থাকতে এবং প্রয়োজনে তাদের চিকিৎসা সেবা প্রদানেরও আহ্বান জানানো হয়েছে জার্মানিতে অ্যামনেস্টির বাৎসরিক বৈঠক থেকে৷

বিজ্ঞপ্তিতে আরো উল্লেখ করা হয়েছে, আলোচিত ব্লগাররা জেল থেকে ছাড়া পেলেও বাংলাদেশে নিরাপদ নন৷ বাংলাদেশে তাদের উপর হামলা হতে পারে এবং তাঁরা হত্যাকাণ্ডের শিকারও হতে পারেন৷ তাই বৈঠকের পক্ষ থেকে ব্লগারদের সহায়তায় – বিশেষ করে তাদের বিদেশে কোনো নিরাপদ স্থানে সরিয়ে নিতে – জার্মান সরকারকে এগিয়ে আসার আহ্বান জানানো হয়েছে৷

এদিকে, হেফাজতে ইসলামের দাবিকৃত ব্লাসফেমি আইন চালু না করায় বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল৷ এক্ষেত্রে সুশীল সমাজের উদ্যোগকেও সমর্থন জানানো হয়েছে৷

উল্লেখ, ব্লগার আসিফ মহিউদ্দীন গত জানুয়ারি মাসে হামলার শিকার হন৷ তাঁকে হত্যার উদ্দেশ্যে সেই হামলা চালানো হয়েছিল বলে নিশ্চিত করেছেন তাঁর চিকিৎসক৷ আসিফের উপর হামলার সঙ্গে উগ্রপন্থিদের সম্পর্ক খুঁজে পেয়েছে পুলিশ৷ সেই ঘটনার ঠিক ঠিক একমাস পর আরেক হামলায় নিহত হন ব্লগার আহমেদ রাজীব হায়দার৷ ঢাকায় নিজের বাড়ির সামনে তাঁকে জবাই করে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা৷ যুদ্ধাপরাধীদের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবিতে শাহবাগে গত ফেব্রুয়ারিতে গড়ে ওঠা আন্দোলনের একজন সক্রিয় কর্মী ছিলেন রাজীব৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন