1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

বাংলাদেশে আরো এক ‘ব্লগার' হত্যা

অভিজিৎ রায় হত্যার এক মাসের মাথায় ঢাকায় আরো একজন ‘ব্লগারকে' হত্যা করা হয়েছে৷ তাঁর নাম ওয়াশিকুর রহমান (২৭)৷ সোমবার সকালে তেজগাঁও এলাকা থেকে রক্তাক্ত অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করে পুলিশ৷ ওয়াশিকুরকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়৷

পুলিশ জানিয়েছে এই ঘটনায় দুই জনকে আটক করা হয়েছে৷ প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা ব্লগে লেখালেখির কারণে ওয়াশিকুরকে হত্যার কথা স্বীকার করেছে৷ ঘটনাস্থল থেকেই তাদের আটক করা হয়৷

তেজগাঁও এর বেগুনবাড়ির দীপিকার মোড় এলাকা থেকে সকাল ১০টার দিকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধারের পর ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে ওয়াশিকুর মারা যান বলে জানিয়েছে পুলিশ৷ তাঁর গলাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে ধারাল অস্ত্রের গভীর আঘাত রয়েছে৷

ওয়াশিকুরকে কুপিয়ে পালানোর সময় পথচারীদের সহায়তায় জিকরুল্লাহ ও আরিফুল ইসলাম নামে দুজনকে আটক করে পুলিশ৷ জিকরুল্লাহ চট্টগ্রামের হাটহাজারী মাদ্রাসার ছাত্র আর আরিফুল ইসলাম মিরপুর দারুস সালাম এলাকার দারুল উলুম মাদ্রাসার ছাত্র৷

হত্যাকাণ্ডের সময় তাদের সঙ্গে তাহের নামে আরেকজন ছিল৷ কিন্তু সে পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়৷ হত্যাকাণ্ডের এলাকা থেকে তিনটি চাপাতি উদ্ধার করা হয়েছে৷

Screenshot Facebook Blog Blogger somewhereinblog.net Dhaka Washiqur Rahman getötet

অভিজিৎ রায় হত্যার এক মাসের মাথায় ঢাকায় আরকজন ‘ব্লগারকে' হত্যা

তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) হুমায়ুন কবির জানান, ‘‘রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধারের সময় প্রথমে ওয়াশিকুরের পকেটে থাকা জাতীয় পরিচয়পত্র দেখে তাঁর ও তাঁর বাবার নাম জানা যায়৷''

ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ওয়াশিকুরের চাচাতো ভাই হেলাল সাংবাদিকদের জানান, ওয়াশিকুরের গ্রামের বাড়ি লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ উপজেলার হাজীপুর গ্রামে৷ তিনি দুবছর আগে তেজগাঁও কলেজ থেকে স্নাতক পাস করে মতিঝিলের ফারইস্ট এভিয়েশন নামের একটি প্রতিষ্ঠানে চাকরি নেন৷ নিহতের পিতার নাম টিপু সুলতান৷ ওয়াশিকুর তেজগাঁও বেগুনবাড়ি দিপীকার মোড় এলাকায় থাকতেন৷

ফারইস্ট এভিয়েশনের মালিক কুতুব উদ্দিন চৌধুরী জানান, ওয়াশিকুর তাদের প্রতিষ্ঠানে প্রশিক্ষক হিসেবে কর্মরত ছিলেন৷

ব্লগে লেখালেখি কারণ?

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) ডেপুটি কমিশনার কুমার সরকার ডয়চে ভেলেকে জানান, ‘‘আটক দুজন প্রাথমিকভাবে স্বীকার করেছে যে ব্লগে আপত্তিকর লেখালেখির কারণেই তারা ওয়াশিকুরকে হত্যা করেছে৷ চট্টগ্রামের হাটহাজারী এলাকায় বসেই তারা তাকে হত্যার পরিকল্পনা করে৷ সেই পরিকল্পনা অনুযায়ী তারা মোট তিনজন রবিবার ঢাকায় আসে৷'' আটকদের কাছ থেকে আরো বিস্তারিত তথ্য জানতে জিজ্ঞাসাবাদ চলছে বলে জানান কুমার সরকার৷

এদিকে, ওয়াশিকুরের চাচাত ভাই হেলাল বলেছেন, ‘‘ওয়াশিকুর ব্লগে লিখতেন কি না, এ ব্যাপারে আমি কিছু জানি না৷''

তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সালাউদ্দিন আহমেদ ডয়চে ভেলেকে জানান, ‘‘নিহত ওয়াশিকুর ব্লগার ছিলেন বলে তারা শুনেছেন৷ এব্যাপারে বিস্তারিত তথ্য সংগ্রহের চেষ্টা চলছে৷''

প্রসঙ্গত, গত ২৬শে ফেব্রুয়ারি বইমেলা থেকে বের হওয়ার পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি এলাকায় মুক্তমনা ব্লগের প্রতিষ্ঠাতা ও লেখক অভিজিৎ রায়কে কুপিয়ে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা৷

২০১৩ সালের ১৫ই ফেব্রুয়ারি বাসায় ফেরার পথে পল্লবীর কালশীর পলাশনগরে একইভাবে কুপিয়ে হত্যা করা হয় গণজাগরণ মঞ্চের অন্যতম সংগঠক ও ব্লগার আহমেদ রাজীব হায়দার শোভনকে৷

এর আগে ২০০৪ সালের ২৭শে ফেব্রুয়ারি বইমেলা থেকে বের হওয়ার সময় প্রথাবিরোধী লেখক হুমায়ুন আজাদকে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে দুর্বৃত্তরা৷ পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় জার্মানিতে তাঁর মৃত্যু হয়৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়