1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

বাংলাদেশি পর্বতারোহীর মৃত্যুতে গভীর শোক

পৃথিবীর সর্বোচ্চ চূড়া এভারেস্ট জয় করে নামার পথে মারা গেছেন বাংলাদেশি পর্বতারোহী মোহাম্মদ খালেদ হোসেন৷ তবে তিনি সজল খালেদ নামে বেশি পরিচিত৷ এভারেস্টের ৮৬০০ মিটার উচ্চতায় নিজের তাঁবুতে ‘অজানা কারণে’ মারা যান তিনি৷

সজল খালেদের মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে গোটা বাঙালি কমিউনিটিতে৷ ফেসবুকে এবং ব্লগে এই বিষয়ে মন্তব্য করেছেন অসংখ্য মানুষ৷ প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে ২০১০ সালে এভারেস্ট জয়ী মুসা ইব্রাহিম তাঁর ফেসবুক প্রোফাইলে লিখেছেন, ‘‘আমি মুসা ইব্রাহীম এই ঘটনায় তীব্র শোক প্রকাশ করছি৷ এই ঘটনা বাংলাদেশের অ্যাডভেঞ্চার অঙ্গনের জন্য প্রচণ্ড দুঃখজনক ঘটনা এবং অপূরণীয় ক্ষতি৷''

বিজ্ঞাপনী সংস্থা এশিয়াটেকের নির্বাহী পরিচালক ইরেশ যাকের লিখেছেন, ‘‘ইচ্ছা ছিল ও ফিরে এলে অনেক গল্প করবো এভারেস্ট নিয়ে৷ এই জীবনে সেই সুযোগ আর হবে না৷ অনেক ভালো থেকো বন্ধু৷ কোনো একদিন কোনো এক পাহাড়ের চূড়ায় দেখা হবে তোমার সাথে৷''

On the roof of the world in Tibet epa03018378 (01/25) Two people (bottom left) stand next to their tent as they camp at the base of the earth's highest peak, Mount Everest, in the Tibet Autonomous Region, the People's Republic of China, 13 October 2011. Tibet is a vast land of harsh, arid, brown plateaus and majestic mountain ranges. Living in the thin air of this high altitude desert are many nomads. Religion is an integral part of life for Tibetans, and most partake in religious pilgrimages of hundreds of kilometers to visit the region's monasteries and sacred sites. EPA/BARBARA WALTON PLEASE SEE ADVISORY (epa03018377) FOR FULL FEATURE TEXT +++(c) dpa - Bildfunk+++

এভারেস্টের ৮৬০০ মিটার উচ্চতায় নিজের তাঁবুতে ‘অজানা কারণে’ মারা যান সজল খালেদ (ফাইল ফটো)

পর্বতারোহী সজল খালেদ জার্মানির কোলনে উচ্চশিক্ষা গ্রহণ করেন৷ পর্বত জয় নিয়ে অদম্য আগ্রহ ছিল তাঁর৷ এর আগে আরো একবার এভারেস্ট জয়ের চেষ্টা করেছিলেন তিনি৷ সেবার ২৪ হাজার ফুট পর্যন্ত উঠে বৈরী আবহাওয়ার কারণে ফিরে আসেন খালেদ৷ এই পর্বতারোহীর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করে ব্লগার সুশান্ত দাসগুপ্ত লিখেছেন, ‘‘বাংলাদেশি এভারেস্ট হিরো হিসেবে শেষপর্যন্ত এই সজল খালেদই আমার হৃদয়ে স্থান করে নিল৷ আসলে মৃত্যুতেই গৌরব নিহিত৷''

কমিউনিটি বাংলা ব্লগ সামহয়্যার ইন ব্লগে ‘ভ্রমণ বাংলাদেশ'-এর পক্ষ থেকে লেখা হয়েছে, ‘‘আমরা অত্যন্ত দুঃখের সঙ্গে জানাচ্ছি যে, বাংলাদেশি পর্বতারোহী ও চলচিত্র নির্মাতা (কাজলের দিনরাত্রির) মোহাম্মদ খালেদ হোসেন সজল ( সজল খালেদ ) পৃথিবীর সর্বোচ্চ পর্বতশৃঙ্গ এভারেস্ট জয় করে নামার সময় মারা গেছেন৷''

উল্লেখ্য, ভূপৃষ্ঠ থেকে ৮,৬০০ মিটার উচ্চতায় যেখানে সজল খালেদ মারা গেছেন, সেটি এভারেস্টের ‘ডেথ জোন' হিসেবে পরিচিত৷ এই পর্বতারোহীর মৃত্যুর কারণ মঙ্গলবার অবধি সঠিকভাবে জানাতে পারেনি নেপালের পর্যটন মন্ত্রণালয়৷ বার্তাসংস্থা এএফপিকে সেখানকার এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ‘উচ্চতা মৃত্যুর কারণ হতে পারে'৷ একই দিনে দক্ষিণ কোরিয়ার পর্বতারোহী সুং হো-সিউও এভারেস্ট জয় করে নামার পথে মারা যান৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন