1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

জার্মানি ইউরোপ

বাংলাদেশিদের গুলির ঘটনায় গ্রিক মালিকের রেহাই

গ্রিসের একটি স্ট্রবেরি বাগানে কর্মরত বাংলাদেশের অভিবাসী শ্রমিকদের উপর গুলি চালানোর অভিযোগে দুই ব্যক্তিকে শাস্তি দিয়েছে দেশটির আদালত৷ তবে যে খামারে শ্রমিকরা কাজ করছিল সেটির মালিক এবং শ্রমিকদের প্রধান রেহাই পেয়েছেন৷

গত বছরের এপ্রিলের ঘটনা৷ প্রায় ছয় মাস বেতন না পাওয়ায় প্রতিবাদ করেছিলেন বাংলাদেশি শ্রমিকরা৷ কিন্তু ন্যায্য দাবি পূরণের বদলে মালিক পক্ষের লোকেরা গুলি চালান শ্রমিকদের উপর৷ এতে আহত হন ২৮ বাংলাদেশি অভিবাসী শ্রমিক৷ গ্রিসের রাজধানী এথেন্স থেকে ২৫০ কিলোমিটার দূরে ম্যানোলাডায় এই ঘটনা ঘটে৷ বিষয়টি সেসময় ইউরোপে আলোড়ন সৃষ্টি করেছিল৷

আদালতের দেয়া রায়ে অভিযুক্ত এক ব্যক্তিকে ১৪ বছর সাত মাস কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে৷ অপর ব্যক্তির শাস্তি আট বছর সাত মাস৷ গুলি চালানো এবং আগ্নেয়াস্ত্র অবৈধ ব্যবহারের জন্য এই শাস্তি দেয়া হয়েছে তাদের৷ তবে অভিযুক্ত দুই ব্যক্তি এই মুহূর্তে মুক্ত রয়েছেন এবং তাদের আপিলের সুযোগ রয়েছে৷

আলোচিত ফার্মটির মালিক এবং শ্রমিকদের প্রধানের কোনো অপরাধ অবশ্য খুঁজে পায়নি আদালত৷ তাই তাদের বিরুদ্ধে কোনো শাস্তিও ঘোষণা করা হয়নি৷ তবে গ্রিসের অনেকেই মালিককে রেহাই দিয়ে আদালতের রায় মানতে পারছেন না৷ গুলিতে আহত শ্রমিকদের পক্ষের আইনজীবী ময়সিস ক্যারাবেইডিস এই বিষয়ে বলেন, ‘‘গ্রিক হিসেবে আমি লজ্জিত৷''

গ্রিসের রাজনীতিবিদের মধ্যে যাঁরা বিষয়টি জানেন, তাঁরাও রায়ের সমালোচনা করেছেন৷ এটি এক ক্ষতিকারক উদাহরণ সৃষ্টি করেছে বলে মনে করেন তাঁরা৷ সেদেশের প্রধান বিরোধী দল সিরিজা পার্টির সংসদ সদস্য ভাসিলিকি কাটরিভানাও এই বিষয়ে লন্ডনের গার্ডিয়ান পত্রিকাকে বলেন, ‘‘এটা (রায়) যে বার্তা বহন করছে তাহচ্ছে, বিদেশি শ্রমিকরা ফলের বাগানে কুকুরের মতো মরতে পারে৷''

উল্লেখ্য, গ্রিসে অবস্থানরত বিদেশি শ্রমিকদের মধ্যে অনেক বাংলাদেশি রয়েছেন৷ এদের একটি বড় অংশ দেশটিতে অবৈধভাবে কাজ করছেন৷

এআই / জেডএইচ (ডিপিএ)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়