1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

বসতি সম্প্রসারণের ইসরায়েলি ঘোষণায় বিশ্বজুড়ে নিন্দা

পূর্ব জেরুসালেমের অধিকৃত এলাকায় ১,৬০০ নতুন বাড়ি নির্মাণে ইসরায়েলের সিদ্ধান্তের নিন্দা জানিয়েছে পশ্চিমা বিশ্ব৷ এদিকে, মার্কিন উপ-রাষ্ট্রপ্রধানের ইসরায়েল সফরের সময় এমন ঘোষণার জন্য ক্ষমা চেয়েছে ইসরায়েল৷

default

জো বাইডেন এবং মাহমুদ আব্বাস

ইউরোপীয় ইউনিয়নের বৈদেশিক নীতি প্রধান ক্যাথরিন অ্যাশটন আরব অধ্যুষিত পূর্ব জেরুসালেমের অধিকৃত এলাকায় ১,৬০০ নতুন বাড়ি নির্মাণে ইসরায়েলের সিদ্ধান্তের নিন্দা জানিয়েছেন৷ তিনি ইসরায়েলকে এই সিদ্ধান্ত পরিবর্তন করার আহ্বান জানান৷ এ বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের উপ-রাষ্ট্রপ্রধান জো বাইডেনের সমালোচনার পরপরই অ্যাশটনের এ মন্তব্য পাওয়া গেল৷ বুধবার রামাল্লায় ফিলিস্তিনি রাষ্ট্রপ্রধান মাহমুদ আব্বাসের সাথে বৈঠকের পর যৌথ সংবাদ সম্মেলনে বাইডেন বলেন, ‘‘উভয় পক্ষেরই দায়িত্ব সংলাপের উপযোগী পরিবেশ সৃষ্টি করা, তা জটিল করে তোলা নয়৷ পূর্ব জেরুসালেমে বসতি সম্প্রসারণে ইসরায়েলি সরকারের নতুন সিদ্ধান্ত এই শান্তি উদ্যোগকে খাটো করে দেয়৷ অথচ এই মুহূর্তে সংলাপ শুরুর জন্য এবং তা ফলদায়ক করে তোলার জন্য আমাদের সবার মধ্যে আস্থা ও বিশ্বাস প্রয়োজন৷''

বাইডেন বলেন, ‘‘আরও নতুন বাড়ি নির্মাণের পরিকল্পনা নিয়ে এগুনোর যে সিদ্ধান্ত ইসরায়েল সরকার নিয়েছে আমি তার নিন্দা জানাই৷'' তিনি বলেন, ‘‘জেরুসালেম সংলগ্ন অধিকৃত পশ্চিম তীরের রামাত স্লোমো ইহুদি বসতিতে নতুন বাড়ি নির্মাণের পরিকল্পনায় আস্থা ক্ষুন্ন হচ্ছে, যা এই মুহূর্তে জরুরি৷ তাছাড়া এটি ইসরায়েলে আমার গঠনমূলক আলোচনারও পরিপন্থি৷'' এছাড়া স্বাধীন ফিলিস্তিনি রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার পক্ষে আমেরিকার সমর্থন অব্যাহত থাকবে বলেও আশ্বাস দেন বাইডেন৷

Israel Palästina Palästinenser Siedlung Siedlungsbau Jerusalem Ramat Sholmo Ostjerusalem Flash-Galerie

পূর্ব জেরুসালেমে রামাত শোলমোর পাশের এলাকা (ফাইল ছবি)

ইসরায়েলের ঐ সিদ্ধান্তের প্রতিক্রিয়ায় জাতিসংঘ মহাসচিব বান কি-মুন বলেন, ‘‘এটা সবদিক থেকেই আন্তর্জাতিক নীতিমালার পরিপন্থি৷'' ব্রিটিশ পররাষ্ট্র মন্ত্রী ডেভিড মিলিব্যান্ডের কণ্ঠেও ধ্বনিত হয়েছে নিন্দার সুর৷ মিলিব্যান্ড বলেন, ‘‘এটা ভুল সময়ে একটি খারাপ সিদ্ধান্ত৷ যারা বলে যে, শান্তির ব্যাপারে ইসরায়েল আগ্রহী নয়, তাদের মন্তব্যকে এটা আরো জোরালো করবে৷'' বসতি সম্প্রসারণের পরিকল্পনার নিন্দা জানিয়ে ফরাসি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বার্নার্ড ভ্যালেরো বলেন, ‘‘ইসরায়েলি এবং ফিলিস্তিনিদের মধ্যে যখন শান্তি আলোচনা পুনরায় শুরু হতে যাচ্ছে, এমন সময়ে এটি একটি সম্পূর্ণ ভুল সিদ্ধান্ত৷'' একইসাথে ইসরায়েলের নতুন পরিকল্পনার নিন্দা জানিয়েছেন নরওয়ের পররাষ্ট্র মন্ত্রী ইয়োনাজ গার স্টোয়েরে এবং ড্যানিশ পররাষ্ট্র মন্ত্রী লেনে এসপারসেন৷ বসতি সম্প্রসারণের নিন্দা জানিয়েছে জার্মানি, জর্ডান এবং আরব লিগ৷

ফিলিস্তিনি রাষ্ট্রপ্রধান মাহমুদ আব্বাসের মুখপাত্র এই পরিকল্পনাকে বিপদজ্জনক হিসেবে আখ্যায়িত করে বলেছেন, ‘‘মার্কিন প্রতিনিধি জর্জ মিচেলের মধ্যপ্রাচ্য সফর শুরুর পরের দিনই ইসরায়েল ঐ সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করেছে৷'' তিনি বলেছেন, ‘‘এর ফলে সংলাপ প্রক্রিয়া বিঘ্নিত হবে এবং মার্কিন পরিকল্পনার বাস্তবায়ন শুরুর আগেই তা ব্যর্থ হয়ে যাবে৷'' মাহমুদ আব্বাস এর আগে বন্ধ হয়ে যাওয়া শান্তি আলোচনা পুনরায় শুরুর জন্য বসতিস্থাপন সম্পূর্ণভাবে বন্ধের শর্ত দিয়েছিলেন৷

এদিকে, অধিকৃত এলাকায় নতুন ১৬শ' বাড়ি নির্মাণ পরিকল্পনা ঘোষণা করে সফররত মার্কিন উপ-রাষ্ট্রপ্রধান জো বাইডেনকে বিব্রত করার জন্য বুধবার তাঁর কাছে ক্ষমা চেয়েছেন ইসরায়েলের জনকল্যাণমন্ত্রী৷ আর্মি রেডিওকে জনকল্যাণ মন্ত্রী আইজ্যাক হারজগ বলেন, ‘‘মার্কিন উপ-রাষ্ট্রপ্রধানের সফরকালে এমনটি ঘটা উচিত ছিল না৷ এটি সত্যিই বিব্রতকর৷ বোকার মতো এরকম একটা মারাত্মক ভুল করার জন্য এখন আমাদের ক্ষমা চাইতেই হবে৷''

প্রতিবেদক : হোসাইন আব্দুল হাই

সম্পাদনা : জাহিদুল হক

সংশ্লিষ্ট বিষয়