1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

বদলাচ্ছে পরিবেশ, প্রাণ দিয়ে তার দাম মেটাচ্ছে প্রাণীকূল

একসময় পাখি আগে থেকেই অনেক খবর পৌঁছে দিত মানুষের কাছে৷ হারিয়ে যাচ্ছে সেই দিনগুলো, হারিয়ে যাচ্ছে সেই পাখিগুলো৷ তাপমাত্রা বাড়ার কারণে নিশ্চিহ্ন হয়ে যাচ্ছে প্রাণী –তা মানুষ বোঝার অনেক আগেই বুঝেছে প্রাণীকূল৷

default

তাপমাত্রা বাড়ার কারণে নিশ্চিহ্ন হয়ে যাচ্ছে প্রাণী

কেনিয়ার সাইমন ইয়কিম কিরু এখনো মনে করতে পারেন এই কিছুদিন আগেও ভোরে পাখির ডাকে তাঁর ঘুম ভাঙতো৷ ঘুম থেকে উঠলেই বিভিন্ন গাছে তিনি দেখতে পেতেন অসাধারণ সব পাখির নাচ আর উড়ে-বেড়ানো৷ তিনি বসবাস করতেন আবেরডেয়ার ন্যাশনাল পার্কের কাছে৷ পৃথিবীর প্রায় সব পাখিই এই পার্কে ভিড় করে৷ কারণ এখানে সবচেয়ে বেশি পাখি আসে, সঙ্গী-খুঁজতে৷ আর এসব পাখিরা বিভিন্ন সংকেত দিত৷ যদি ধনেশ পাখি দেখা যেত তাহলে কিরু বুঝে নিতেন ‘বৃষ্টি এগিয়ে আসছে', অর্থাৎ বীজ বোনার সময় এখন৷ যদি কোন বাজপাখি বুক ফুলিয়ে উড়ে বা বসে থাকে তার মানে, ‘অতিথি আসছে' আর যদি মাঝ রাতে পেঁচা ডাকে তার মানে,‘মৃত্যুর খবর শুনতে হবে'৷

৫৮ বছর বয়সী সাইমন কিরু জানান, পাখির এসব ডাক শুনে অনেক কিছু বোঝা যেত৷ এখন আর কোন সংকেত নেই, কারণ পাখিগুলোই যে নেই৷

গত দুই দশকে অনেক খোলা জায়গা ধ্বংস করা হয়েছে৷ তৈরি করা হয়েছে ঘর-বাড়ি আর কারখানা৷ যেখানে পাখি থাকতো সেখানে এখন মানুষ বসবাস করছে৷ গাছ কেটে ফেলা হচ্ছে৷ পাহাড় কেটে ফেলা হচ্ছে৷

Flash Galerie Tiere

হারিয়ে যাচ্ছে অনেক পাখি

বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, আগামী একশো বছরে পৃথিবীর বুক থেকে ২০ থেকে ৩০ শতাংশ প্রাণী পুরোপুরি বিলীন হয়ে যাবে৷ এর বেশির ভাগই নিঃশ্চিহ্ন হবে তাপমাত্রার কারণে৷ যদি তামপাত্রা ৩.৬ থেকে ৫.৪ ডিগ্রী ফারেনহাইট পর্যন্ত যায় তাহলেই হবে৷ কারণ বেশির ভাগ প্রাণীই ঠান্ডা নয় কিন্তু শীতল তাপমাত্রার সঙ্গে খাপ খাইয়ে চলতে পারে৷ উষ্ণতাও কোন সমস্যা নয় কিন্তু কোন অবস্থাতেই এই প্রাণীগুলো গরম সহ্য করতে সক্ষম হবে না৷ যদি তাপমাত্রা এর চেয়ে বেশি হয় তাহলে ৫০ শতাংশ প্রাণী হারিয়ে যাবে পৃথিবীর বুক থেকে৷ জাতিসংঘের পরিবেশ দপ্তর থেকেও কথাগুলো নিশ্চিত করা হয়৷

তবে সবচেয়ে বেশি মাথা ঘামানো হচ্ছে পোলার বেয়ার নিয়ে৷ অথচ বিজ্ঞানীরা বলছেন, আফ্রিকা থেকে শুরু করে, অ্যামেরিকা, দক্ষিণ অ্যামেরিকা সব জায়াগাতেই প্রাণীকূলের ওপর নেতিবাচক প্রভাব ফেলবে এই বিশ্বব্যাপী তাপমাত্রা বৃদ্ধি৷

তবে মানুষ এর যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করার আগে প্রাণীরাই সাবধান হয়ে গেছে৷ তারা নিজেরাই উঁচু জায়াগায় চলে যাচ্ছে৷ যে জায়গাগুলো তুলনামূলকভাবে শীতল সেখানেই আশ্রয় নিচ্ছে প্রাণীরা৷ এর জন্য প্রাণীদের পাড়ি দিতে হচ্ছে হাজার হাজার মাইল৷ এর মধ্যেই অসংখ্য প্রাণী আবার গিয়ে পড়ছে শিকারীদের হাতেও৷

ইয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ওয়াল্টার ইয়েট্স জানান, খুব স্বাভাবিকভাবেই বলা যায় আর যাই হোক প্রাণীগুলো উত্তর মেরু যাবে না৷ তার আগেই প্রাণীগুলো নিঃশ্চিহ্ন হয়ে যাবে৷

প্রতিবেদন: মারিনা জোয়ারদার

সম্পাদনা: সুপ্রিয় বন্দ্যোপাধ্যায়