1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

ফেসবুক বিরোধীদের জন্য আসছে ‘ডায়াসপোরা’

কেউ কেউ বলছেন এটি ফেসবুকের বিকল্প, কারো কারো কথায় ফেসবুক বিরোধী নেটওয়ার্ক হবে এটি৷ আবার কারো মত, এই নেটওয়ার্ক হবে অনেক বেশি নিরাপদ, যেখানে ব্যবহারকারীর স্বাধীনতা থাকবে পুরোপুরি৷ মোটের ওপর এটি আবার ওপেন সোর্স৷

default

ডায়াসপোরা তথ্য সুরক্ষায় পূর্ণাঙ্গ স্বাধীনতা দেবে

বলছি ‘ডায়াসপোরা'-র কথা৷ যারা একটি নির্দিষ্ট কাঠামোর বাইরে চলে যান, তাদেরকে বলা হয় ডায়াসপোরা৷ এই চলে যাওয়া স্বেচ্ছায়ও হতে পারে, আবার হতে পারে জোর করে৷ সম্ভবত এজন্যই ডায়াসপোরাকে বলা হচ্ছে ফেসবুক বিরোধী৷ কেননা, ফেসবুক থেকে যারা বেরুতে চান, তাদের দিকেই আপাতত নজর ডায়াসপোরা-র৷ তাই নামটা যথার্থই৷

আগামী ১৫ সেপ্টেম্বর নাগাদ চালু হবে ডায়াসপোরা৷ জানিয়েছে এই সামাজিক নেটওয়ার্কিং সাইটের উদ্যোক্তারা৷ মাত্র চারজন মার্কিন তরুণ বর্তমানে কাজ করছে এই নেটওয়ার্কের পেছনে৷ তাদের মধ্যে তিনজন কম্পিউটার বিজ্ঞানী আর একজন গণিতজ্ঞ৷ পুরো নেটওয়ার্কটাই হবে ওপেন সোর্স মানে কোড থাকবে উম্মুক্ত৷ ফলে ভবিষ্যতে যেকেউ এর উন্নয়ন সাধনে কাজ করতে পারবে৷

আপাতত যে খবর তাতে, ডায়াসপোরা সাড়া কিন্তু পাচ্ছে বেশ৷ চার তরুণ শুরুতে মাত্র ১০,০০০ মার্কিন ডলারের তহবিল খুঁজেছিল এই প্রকল্পটি শেষ করতে৷ কিন্তু সাড়ে ৬ হাজার মানুষ ইন্টারনেটে তাদেরকে দিয়েছে ২,০০,৬৪২ মার্কিন ডলার৷ মজার বিষয় হচ্ছে, অর্থ সংস্থানকারীদের মধ্যে নাকি আছেন ফেসবুক সহ-প্রতিষ্ঠাতা মার্ক জুকারবের্গও!

ডায়াসপোরার অন্যতম উদ্যোক্তা ম্যাক্স সেল্সবের্গ এর মতে, নতুন এই সাইট ব্যবহারকারীরা তাদের শেয়ার করা তথ্যের ওপর পূর্ণাঙ্গ নিয়ন্ত্রণ রাখতে পারবেন৷ কোন তথ্যটি ব্যবহারকারীর সহকর্মীর কাছে যাবে, আর কোনটি যাবে তার ক্লাব সঙ্গীর কাছে তা সহজেই ঠিক করা সম্ভব হবে এই নেটওয়ার্কে৷ মোটের ওপর, ডায়াসপোরার ব্যবহার পদ্ধতিও ফেসবুকের মত জটিল হবে না জানাচ্ছেন এর উদ্যোক্তারা৷

অবশ্য বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ফেসবুকের মতো বিশাল সামাজিক নেটওয়ার্ককে এত সহজে কাবু করা সম্ভব হবে না৷ কেননা, ফেসবুকের ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৫০ কোটির ওপরে, তাছাড়া বর্তমানে এটির বিক্রয়মূল্য ৩৩ বিলিয়ন মার্কিন ডলার৷

প্রতিবেদন: আরাফাতুল ইসলাম

সম্পাদনা: হোসাইন আব্দুল হাই

নির্বাচিত প্রতিবেদন

ইন্টারনেট লিংক