1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

ফেসবুকের গোপন চ্যাট আর গোপন নেই

কি সর্বনাশা কথা বলুনতো! ফেসবুকে গোপনে যেসব চ্যাট করেছেন তা নাকি অন্যরা দেখার সুযোগ পেয়েছিল৷ এমনকি নিরাপত্তার নামে যেসব অপশন আপনার ফেসবুক একাউন্টে আছে তাও নাকি অনিচ্ছাতেই উম্মুক্ত করা সম্ভব৷

default

ফাইল ফটো

জ্বি, কথা সত্য৷ বিশ্বের সব বড় বড় সংবাদমাধ্যমই জানাচ্ছে, বিশেষ এক বাগ এর ‘কল্যানে' ফেসবুকের গোপন মানে একে অপরের মধ্যে করা চ্যাট দেখতে পারছিল তৃতীয় ব্যক্তি৷ শুধু তাই নয়, আপনাকে কে কে বন্ধু হবার অনুরোধ পাঠিয়েছে কিংবা আপনি কি কি তথ্য গোপন করে রেখেছেন তাও নাকি দেখতে পারছিল অন্যরা৷ আর এই অন্যরা হচ্ছে, আপনার বন্ধু তালিকায় থাকা ব্যক্তিরা৷ লন্ডনের ডেইলি মেল যাকে বলছে, বিশেষ বাগ ফেসবুক বন্ধুদের গোয়েন্দায় পরিণত করেছিল৷

বারবার ‘করেছিল' বা ‘পেয়েছিল' বলছি এই জন্য, যে ফেসবুক ইতিমধ্যেই এই সমস্যা সমাধান করেছে৷ অন্তত তাদের দাবি এরকমই৷ এই কাজ করতে গিয়ে কিছুক্ষনের জন্য তাদের লাইভ চ্যাট সেবা বন্ধ করতে হয়েছিল৷ কিন্তু তথ্য প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞরা অন্যের গোপন তথ্য দেখার এই সহজ উপায়ের কথা শুনে বেশ অবাক হয়েছেন৷ মাত্র কয়েকটি ক্লিকেই নাকি দেখা সম্ভব হচ্ছিল কে কার সঙ্গে গোপন চ্যাটে কি লিখছে? এমনকি খোদ ফেসবুকও জানিয়েছে, লাইভ চ্যাট এভাবে প্রকাশ্যে দেখা যাবে তা কল্পনাও করেনি সংস্থাটি৷

কি? এই প্রতিবেদন দেখে আপনারও বন্ধু নামের গোয়েন্দা হতে মন চাইছে নাতো? কি জানি, কৌতূহলী মনে আশা জাগতেই পারে৷ আর তাই, এই বাগের মাধ্যমে কিভাবে তথ্য চুরি করা যায়, তার সবিস্তার জানাচ্ছি না৷

কিন্তু ভাবছি অন্য কথা, ফেসবুকের গোপনীয়তা নিয়ে শুরু থেকেই নানা বিতর্ক রয়েছে৷ সেই গোপনীয়তার এই বেহাল দশা কি মানুষকে বিব্রত করছে না? অন্তত, এই ঘটনায় কতজনের যে আর্থিক ক্ষতি হল, কিংবা ঘর ভাঙ্গলো সেটার কি হিসাব থাকছে? মোটের উপর ‘গোপন' বলতেতো কতকিছুই বোঝায়, তাই না!

প্রতিবেদক: আরাফাতুল ইসলাম

সম্পাদনা: রিয়াজুল ইসলাম

সংশ্লিষ্ট বিষয়