1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

অন্বেষণ

প্লাস্টিকের পাইপ গলিয়ে আসবাবপত্র

ফেলে দেওয়া বা অপ্রয়োজনীয় উপকরণ দিয়ে শিল্প সৃষ্টি বেশ বড় চ্যালেঞ্জ৷ এক ব্রিটিশ শিল্পী লাগামছাড়া কল্পনাশক্তি দিয়ে বস্তু গলিয়ে এমন অভিনব সৃষ্টি করে চলেছেন৷ সৃজনশীল সেই প্রক্রিয়া মাঝপথে ছেড়ে দিতেও তিনি প্রস্তুত৷

হার্ডওয়্যারের দোকান থেকে কেনা প্লাস্টিকের পাইপ এবং হেয়ার ড্রাইয়ার৷ লন্ডনের ডিজাইনার টম প্রাইস শুধু এই দু'টি জিনিসের সাহায্যে প্লাস্টিক গরম করে চেয়ার ডিজাইন করেন৷ প্রতিটি আসবাবই একটা এক্সপেরিমেন্ট৷ টম বলেন, ‘‘দৈনন্দিন জীবনে এ সব আমাদের ঘিরে রয়েছে, নানা কাজে সেগুলির ব্যবহার হয়৷ তাই আমরা সেগুলিকে তেমন পাত্তা দেই না৷ তার কিছু অংশ গলিয়ে মূল রূপ তুলে ধরলে অনেক অপরিচিত দিক চোখের সামনে এসে যায়৷ সেটা আমার জন্য সত্যি বিস্ময়কর৷''

যেমন পাইপ দিয়ে তৈরি হালকা চেয়ার৷ স্থাপত্যের মতো সেগুলি পারিপার্শ্বিকের উপর ছাপ রাখে৷ গলানো উপকরণ দিয়ে তৈরি এই সব আসবাবের দাম ১৫,০০০ ইউরো পর্যন্ত ছুঁতে পারে৷ টম প্রাইস নায়লনের দড়িও গলান৷ ব্রোঞ্জ অথবা ফয়েলও বাদ পড়ে না৷ টম বলেন, ‘‘একটি বস্তু তৈরি হলে আমার কাছে তা ‘ফুল স্টপ' হয়ে যায় না৷ অর্থাৎ কাজ মোটেই শেষ হয় না৷ কাজটাই প্রক্রিয়া৷ কাজ থেকে যা তৈরি হয়, সেটা পার্শ্ব প্রতিক্রিয়ার মতো, সেগুলি যেন ঠিকরে বেরিয়ে আসে৷ আবিষ্কারের এই আনন্দের মাত্রা আমি আরও বাড়িয়ে দিচ্ছি৷''

উপকরণের ক্ষেত্রে টম প্রাইস-এর বাছবিছার কম৷ নায়লনের দড়ি দিয়ে পেঁচানো বেলুন থেকে তিনি বাতাস বার করে নেন৷ তারপর তিনি গরম ধাতুর বাটির উপর সেই প্লাস্টিক গলিয়ে নেন৷ এভাবে আরামকেদারার আসনের ছাঁচ তৈরি হয়৷ দড়ির গিঁট কেমন হবে, তা নিয়ে তিনি মাথা ঘামান না৷ টম প্রাইস বলেন, ‘‘এমন কাকতালীয় অবস্থার প্রতি আমার আগ্রহের মূল কারণ হলো, আমি আসলে নির্দিষ্ট স্টাইল অথবা কাজের মধ্যে সচেতনভাবে কোনো বাঁধাধরা নান্দনিকতা থেকে পালাতে চেয়েছিলাম৷ বস্তুকে নিজের অবস্থায় ছেড়ে দিলে অনেক সিদ্ধান্ত আর নিতে হয় না, সিদ্ধান্ত নিতে আমার ভালো লাগে না৷''

টম প্রাইস লন্ডনে প্রথমে ভাস্কর্য, তারপর আসবাব ডিজাইন নিয়ে পড়াশোনা করেছেন৷ তাঁর তৈরি কেদারার মধ্যে তার প্রতিফলন দেখা যায়৷ এক একটি আসবাবপত্র একেবারে অনন্য৷ টম বলেন, ‘‘এই জিনিসটি তৈরি করতে অনেক সময় লেগেছিল৷ প্রায় ১০,০০০ কেবেল বাঁধা আছে৷ বল তৈরি করতে কয়েক সপ্তাহ সময় লেগেছে৷ প্রথমবার গলানোর কাজ খুব কঠিন ছিল৷ মনে হয়েছিল, সব ভুল হয়েছে, পণ্ডশ্রম হয়েছে৷ অন্য কোনো কাজের সময় এত ঝুঁকি নিতে হয়নি৷''

Price

টম প্রাইস-এর তৈরি একটি অভিনব আসবাব...

টম আপাতত বাতি নিয়ে মেতেছেন৷ একটি নন-স্টিকিং প্যানে মধ্যে তিনি প্লাস্টিক গলিয়েছেন৷ সেটি দেখতে তৈলাক্ত কাগজের মতো লাগছে৷ ফলে আলো কখনো জোরালো, কখনো বা টিমটিমে দেখতে লাগছে৷ তবে সব আইডিয়াই শেষ পর্যন্ত কার্যকর করেন না তিনি৷ টম বলেন, ‘‘কাজের মাঝখানে হাল ছেড়ে দেবার স্বাধীনতাও আমার ভালো লাগে৷ অনেক সময়ে আশা অনুযায়ী ইন্টারেস্টিং হয় না৷ তবে প্রকল্পের পেছনে কোনো কোম্পানি টাকা ঢাললে অবশ্য এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া অনেক কঠিন হয়৷''

টম প্রাইস শিল্প ও ডিজাইনের মাঝের ক্ষেত্রে বিচরণ করেন৷ প্লাস্টিকের পাইপ থেকে তিনি গাছও তৈরি করেছেন৷ সেই ইনস্টলেশনের নাম ‘চেরি গার্ডেন'৷ গলানো বস্তু দিয়ে তৈরি অভিনব সেই জগত৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন

ইন্টারনেট লিংক