1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

ভারত

প্রবাসী ভারতীয়দের পাশে থাকার বার্তা মোদীর

ভারতের বেঙ্গালুরু শহরে তিন দিনের চতুর্দশ প্রবাসী ভারতীয় সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী মোদী বার্তা দিলেন পাসপোর্টের রং নয়, জন্মগত সম্পর্কের রংই গুরুত্বপূর্ণ ভারতের কাছে৷

প্রবাসী ভারতীয়দের প্রতি দায়বদ্ধতার অঙ্গীকার করে প্রধানমন্ত্রী মোদী তাঁর মূল ভাষণে বললেন, বিদেশে ভারতীয়দের সব সংকটে তাঁর সরকার সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেবে৷ অভিবাসী ভারতীয় শ্রমিক ও কর্মীদের স্বার্থ রক্ষায় অবৈধ রিক্রুটমেন্ট এজেন্টদের বিরুদ্ধে নেবে কড়া ব্যবস্থা৷ সংঘর্ষ বিধ্বস্ত দেশগুলিতে বিপদে পড়া যে কোনো ভারতীয়কে উদ্ধারে সরকার চেষ্টার ত্রুটি করেনি বা করবে না৷ তাঁদের নিরাপত্তা ও কল্যাণই সরকারের কাছে প্রধান কথা৷ শুধু তাই নয়, বিদেশের মাটিতে যে কোনো ভারতীয়ের সামাজিক, পারিবারিক বা ব্যক্তিগত সমস্যাতেও তাঁরা পাশে পেয়েছে বা পাবে সরকারকে৷ পাসপোর্টের রং নয়, জন্মগত শিকড়ের সম্পর্ক বিবেচ্য, বলেন প্রধানমন্ত্রী৷ এই প্রসঙ্গে পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজের প্রশংসা করে তিনি বলেন, মেইল বা টুইটারে যোগাযোগ করেও তাঁরা সর্বদাই ইতিবাচক সাড়া পেয়েছেন৷

ভারতীয়রা আজ গোটা বিশ্বে তাঁদের কাজের জন্য প্রশংসিত৷ যে দেশেই তাঁরা থাকুন না কেন, সেখানকার সমাজে তাঁদের অবদান অনস্বীকার্য৷ নিছক সংখ্যাগত দিক থেকে নয়, ভারতীয় মূল্যবোধের শ্রেষ্ঠ গুণগুলিকেও তাঁরা তুলে ধরতে পেরেছেন৷ সরকারের লক্ষ্য দেশের যেসব মেধা বিদেশে চলে যাচ্ছে, সেই ‘ব্রেন ড্রেন'-কে ‘ব্রেন গেইন'-এ রূপান্তরিত করা৷ প্রবাসী ভারতীয়দের কাছ থেকে প্রতি বছর ভারতে আসে গড়ে ৬৯ বিলিয়ন মার্কিন ডলার, যা ভারতীয় অর্থনীতিকে মজবুত করতে বিশেষ অবদান রেখেছে৷ মোদী সরকারের বিমুদ্রাকরণেও যোগদানকারী প্রবাসী ভারতীয়রা করতালি দিয়ে সমর্থন জানিয়েছেন, এমনটাই দাবি সরকারি মহলে৷ প্রবাসী ভারতীয়দের সংখ্যা হবে প্রায় তিন কোটির কাছাকাছি৷

এই প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী মোদী ঘোষণা করেন, বিদেশে ভারতীয় বংশোদ্ভূত ব্যক্তিরা (পিআইও) যাতে ওভারসিজ সিটিজেন অব ইন্ডিয়া (ওসিআই) কার্ড পেতে পারেন, তার জন্য যাবতীয় নথিপত্র ও আইনি প্রক্রিয়া অনতিবিলম্বে শুরু করা হচ্ছে৷

পিআইও কাদের বলা হবে? হাজার হাজার পিআইও বা ভারতীয় বংশোদ্ভূতদের পূর্বপুরুষরা বিভিন্ন দেশে বিশেষ করে সুরিনাম, রি-ইউনিয়ন দ্বীপপুঞ্জ, ফিজি, দক্ষিণ আফ্রিকা, গায়ানা, ত্রিনিদাদ, টোবাগো ও মরিশাসে গিয়েছিলেন আখ ক্ষেতে শ্রমিক হিসেবে বৈধ কাগজপত্র ছাড়াই৷ তাঁদের পরবর্তী প্রজন্মের সদস্যরা বৈধ পাশপোট পেতে সমস্যায় পড়েছেন৷ এই ঘোষণাকে মোদী সরকারের এক বড় পদক্ষেপ বলে স্বাগত জানিয়েছেন প্রবাসী ভারতীয় সম্মেলনে যোদানকারী রি-ইউনিয়ন দ্বীপপুঞ্জের প্রতিনিধিদলের নেতা রামস্বামী নাদারাসিন৷ রি-ইউনিয়ন দ্বীপপুঞ্জ ভারত মহাসাগরে মরিশাস থেকে ২০০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে৷

সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেন পর্তুগালের প্রধানমন্ত্রী আন্তোনিও কোস্তার৷ ভারতের সঙ্গে তাঁর মাটির সম্পর্কের উল্লেখ করে তিনি বলেন, পর্তুগাল ইওরোপের সঙ্গে যোগাযোগের স্নায়ুকেন্দ্র৷ তাঁর দেশ প্রত্যক্ষ বিদেশি বিনিয়োগের জন্য সর্বদাই  মুক্তহস্ত৷ ভারতকে তাঁর দেশে বিনিয়োগের বার্তা দিলেন তিনি৷ তারপরই তিনি জানান, তিনি ভারতের গোয়া-বংশোদ্ভুত৷ তাঁর ছোটবেলা কেটেছে গোয়াতে৷ এখনও তাঁর কিছু আত্মীয় পরিজন গোয়াতে আছেন৷ তাঁদের সঙ্গে দেখা করতে আগ্রহী৷ উল্লেখ্য, পর্তুগালের প্রধানমন্ত্রী আন্তোনিও কোস্তার হলেন ইউরোপীয় কোনো দেশের প্রথম ভারতীয় বংশোদ্ভূত রাষ্ট্রনেতা৷ অনুষ্ঠানে তিনি পর্তুগাল ফুটবল তারকা ক্রিস্টিয়ানো রোনাল্ডোর স্বাক্ষর করা জাতীয় ফুটবল দলের একটা জার্সি তুলে দেন মোদীর হাতে৷

সোমবার সমাপ্তি অধিবেশনে প্রবাসী ভারতীয় সম্মাননা তুলে দেন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়৷ প্রতি দু’বছর অন্তর এই কেন্দ্রীয় প্রবাসী ভারতীয় দিবস উদযাপিত হয়, বিদেশে বসবাসরত ভারতীয় সম্প্রদায়ের সঙ্গে যোগাযোগের এক গুরুত্বপূর্ণ মঞ্চ হিসেবে৷ তবে এবারের প্রবাসী ভারতীয় দিবস অনুষ্ঠান পরিচালনায় বা বক্তা হিসেবে সংঘ পরিবারের দাপট চোখে পড়েছে৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন