প্রবালের রঞ্জক বদলে দেবে ক্যান্সার গবেষণাকে | বিজ্ঞান পরিবেশ | DW | 15.08.2010
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

প্রবালের রঞ্জক বদলে দেবে ক্যান্সার গবেষণাকে

ক্যান্সারের বিরুদ্ধে মানুষ লড়ে চলেছে বহুদিন ধরে৷ এই ক্যান্সারকে পুরোপুরি জয় করতে কতই না চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন বিজ্ঞানীরা৷ তবুও কি জয় এসেছে? সম্প্রতি এক আবিষ্কার বিজ্ঞানীদের আবারও নতুন করে আশার আলো দেখিয়েছে৷

A coral reef

অস্ট্রেলিয়ায় সমুদ্রের নীচে প্রবাল

আবিষ্কারটি হয়েছে সমুদ্রে পানির নীচে৷ মানব বসতি থেকে অনেক দূরে, যেখানে শুধুই প্রকৃতির রাজত্ব৷ অস্ট্রেলিয়ার পূর্ব উপকূল থেকে ৬০০ কিলোমিটার দূরে লর্ড হাউয়ে দ্বীপের সমুদ্রের পানির নীচে এক প্রকার প্রবালের সন্ধান পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা৷ এই প্রবালের মাধ্যমে ক্যান্সারের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে আরও এগিয়ে যাওয়ার আশা করছেন তাঁরা৷ নতুন আবিষ্কৃত এই প্রবালগুচ্ছ নিজে থেকেই জ্বলছে, অর্থাৎ আলো ছড়াচ্ছে৷ খুব গভীরে নয়, অল্প পানির মধ্যেই এই প্রবালের বসবাস৷ বিজ্ঞানী আন্যা সালিহ এই ব্যাপারে জানালেন, হাজার হাজার প্রবাল খুব ঘন হয়ে পানির নীচে অবস্থান করছে৷ এসব প্রবালের মধ্যে এক ধরণের রঞ্জক পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা যেগুলো লাল, নীল ও সবুজ আলো ছড়াচ্ছে৷ উল্লেখ্য, বিজ্ঞানী আন্যা সালিহ ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়ার বিজ্ঞানীদের সঙ্গে কাজ করছেন এবং সাধারণ কোষ থেকে ক্যান্সার আক্রান্ত কোষের পার্থক্য বের করার চেষ্টা করছেন৷

এই নতুন গবেষণা ও আবিষ্কারের ফলাফল সম্পর্কে সালিহ বললেন, ‘আমরা প্রবাল থেকে পাওয়া এসব রঞ্জকগুলো ব্যবহার করছি জীবন্ত কোষগুলোকে আরও উজ্জ্বল করে তুলতে৷ এবং দেখার চেষ্টা করছি কোষে কোন্ ধরণের সমস্যা রয়েছে৷' এক্ষেত্রে লাল রঞ্জকগুলো বিজ্ঞানীদের বেশি সাহায্য করছে, কারণ এগুলো বেশি উজ্জ্বল এবং তার ফলে এগুলোর সাহায্যে কোষের অনেক গভীরে দেখা যায়৷ এই উজ্জ্বল অনুগুলো কোষ বিজ্ঞান এবং বায়েমেডিকেল গবেষণাকে বদলে দিচ্ছে বলে জানিয়েছেন বিজ্ঞানী আন্যা সালিহ৷

প্রতিবেদন: রিয়াজুল ইসলাম

সম্পাদনা: সুপ্রিয় বন্দ্যোপাধ্যায়