1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

প্রবাদপ্রতিম বাদক ও গায়ক ন্যাট কিং কোল

জ্যাজ সংগীত জগতের এক অনন্য ব্যক্তিত্ব পিয়ানো বাদক ও গায়ক ন্যাট কিং কোল৷ তাঁর প্রাণবন্ত, কাব্যিক আর কোমল সুরধ্বনি আজও মুগ্ধ করে জ্যাজ সংগীত জগতের শিল্পী ও সংগীতানুরাগিদের৷ ১৭ মার্চ এই সংগীত শিল্পীর ৯২ তম জন্মবার্ষিকী৷

default

ফাইল ফটো

ন্যাট কিং কোল এর অসাধারণ পিয়ানো পরিবেশনা এবং সেই সাথে তাঁর স্বতঃস্ফূর্ত, গভীর ও সুরেলা কণ্ঠস্বর মুগ্ধ করেছিল অসংখ্য জ্যাজ সংগীতানুরাগীদের এবং আজও জ্যাজ সংগীত জগতের এক প্রবাদ প্রতিম উজ্জ্বল তারকা তিনি৷

ন্যাট কিং কোল এর জন্ম ১৯১৯ সালে অ্যামেরিকার অ্যালাবামা রাজ্যের মন্টগোমারি শহরে৷ চার বছর বয়সে পিয়ানোয় তাঁর হাতেখড়ি৷ ১২ বছর বয়স থেকে সংগীতে তাঁর শিক্ষা শুরু৷ এই সময় জ্যাজ ও গসপেল সংগীতের পাশাপাশি ইউরোপীয় ধ্রুপদী সংগীতের প্রতিও অনুরাগ ছিল তাঁর৷ খুব অল্প বয়সেই পিয়ানো বাদক হিসাবে তাঁর নাম ছড়িয়ে পড়ে৷ ১৯৩৭ সালে তিনি চলে আসেন লস অ্যাঞ্জেলেসে৷ সেখানে ‘ন্যাট কিং কোল ট্রায়ো' সংগীত গোষ্ঠী নিয়ে সংগীত জগতে জ্যাজ-পিয়ানো বাদক হিসেবে শুরু হয় তাঁর সাফ্যলের অগ্রযাত্রা৷ ১৯৪৩ সালে প্রথম গায়ক হিসেবে তাঁর আত্মপ্রকাশ৷ ‘অল ফর ইউ' গানটি অ্যামেরিকার হিট গানের তালিকায় প্রথম দিকে স্থান পায়৷

ক্যপিটল রেকর্ড কোম্পানির সাথে চুক্তিবদ্ধ হোন তিনি৷ অসংখ্য রেকর্ড বেরোয় বাজারে৷ ১৯৪৮ সালে ‘নেচার বয়' গানটি তাঁকে এনে দেয় আন্তর্জাতিক খ্যাতি৷

সংগীতের পাশাপাশি রেডিও এবং টেলিভিশন শো ছাড়াও বহু ছায়াছবিতে অভিনয় করেছেন তিনি৷ বর্ণবাদের বিরুদ্ধে, শান্তি ও মানবাধিকারের সপক্ষে তিনি ছিলেন এক জোরালো কণ্ঠস্বর৷ ১৯৬৫ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারি ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে মাত্র ৪৫ বছর বয়সে মৃত্যু বরণ করেন প্রবাদপ্রতিম বাদক ও গায়ক ন্যাট কিং কোল৷

প্রতিবেদন: মারুফ আহমদ

সম্পাদনা: সঞ্জীব বর্মন