1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

পোল্যান্ডে প্রেসিডেন্ট নির্বাচন হচ্ছে

পোল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ভোট গ্রহণ চলছে আজ৷ নির্বাচনে মোট ৩৮ মিলিয়ন ভোটার ভোট দিয়েছেন৷ পোল্যান্ডের সামগ্রিক রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে এবারের নির্বাচনের গুরুত্ব অন্যবারের চেয়ে অনেক বেশি৷

default

ভোট দিচ্ছেন একজন ভোটার

তার কারণ সাবেক প্রেসিডেন্ট লেখ কাচিন্সকির আকস্মিক মৃত্যু৷ গত ১০ এপ্রিল রাশিয়ায় যাওয়ার পথে এক বিমান দুর্ঘটনায় এই পোলিশ প্রেসিডেন্ট নিহত হন৷ তার সঙ্গে ছিল স্ত্রী মারিয়া সহ ৯৫ জন শীর্ষ রাজনীতিক ও সামরিক কর্মকর্তা৷ বিমান দুর্ঘটনায় তাদের সকলের মৃত্যু গোটা পোল্যান্ডে এনে দেয় গভীর শোকের আবহ৷ একই সঙ্গে রাজনীতি ও প্রশাসনিক ক্ষেত্রেও একটি শুন্যতা তৈরি হয়৷ রোববারের প্রেসিডেন্ট নির্বাচন সেই শুন্যতাকে অনেকটাই পুরণ করতে সহায়তা করবে বলে আশা করছেন দেশের নীতি নির্ধারকরা৷

Präsidentschaftswahl in Polen 2010 Jaroslaw Kaczynski

ভোট দিচ্ছেন ইয়ারোস্লাভ কাচিন্সকি

আরও একটি কারণে এবারের নির্বাচন দেশটির সার্বিক পরিস্থিতির জন্য গুরুত্বপূর্ণ৷ তা হল পোলিশ সংসদের সঙ্গে পোলিশ প্রেসিডেন্টের দুরত্ব৷ অর্থাৎ বর্তমান সংসদের সংখ্যাগরিষ্ঠ সদস্য উদারপন্থী দল সিভিক প্লাটফর্মের৷ কিন্তু সাবেক প্রেসিডেন্ট লেখ কাচিন্সকি ছিলেন রক্ষণশীল ল এন্ড জাস্টিস পার্টি থেকে নির্বাচিত৷ ২০০৫ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে তিনি বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ডোনাল্ড টুস্ককে পরাজিত করেন৷ ডোনাল্ড টুস্কের সিভিক প্ল্যাটফর্মের অনেক সংস্কারমূলক উদ্যোগে বাধা ছিল প্রেসিডেন্ট কাচিন্সকির ভেটো প্রদানের ক্ষমতা৷ এবারের নির্বাচনে তাদের নিজেদের দলের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হলে পোল্যান্ডের অনেক ক্ষেত্রেই সংস্কার আসতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে৷

প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রধান দুই প্রতিদ্বন্দ্বী হলেন সাবেক প্রেসিডেন্ট লেখ কাচিন্সকির জমজ ভাই ও ল এন্ড জাস্টিস পার্টির প্রার্থী ইয়ারোস্লাভ কাচিন্সকি এবং বর্তমান সংসদের স্পিকার ও সিভিক প্লাটফর্মের প্রার্থী ব্রনিস্লাভ কমোরোভস্কি৷ উল্লেখ্য, স্পিকার কমোরোভস্কি বর্তমানে অস্থায়ী প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন৷ তিনি অবশ্য অনেক আগে থেকেই পরবর্তী প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করার ঘোষণা দিয়েছিলেন৷ লেখ কাচিন্সকির মৃত্যু সেই নির্বাচনকে অনেক সামনে এনে দিয়েছে৷ এদিকে রোববার সকাল ছয়টা থেকে ভোট গ্রহণ শুরু হয়েছে, চলবে রাত আটটা পর্যন্ত৷ নির্বাচন পূর্ব জরিপে দেখা যাচ্ছে যে ইয়ারোস্লাভ কাচিন্সকির তুলনায় অনেকটাই এগিয়ে রয়েছেন ব্রনিস্লাভ কমোরোভস্কি৷ কমোরোভস্কি নির্বাচনে শতকরা ৪১ থেকে ৫১ ভাগ ভোট পেতে পারেন, অন্যদিকে কাচিন্সকি পেতে পারেন ২৯ থেকে ৩৫ শতাংশ ভোট৷ তাদের বাইরে আরও আটজন প্রার্থী থাকলেও তাদের অবস্থা তেমন সুবিধার নয়৷ উল্লেখ্য, পোল্যান্ডের নির্বাচনী আইন অনুযায়ী প্রথম দফায় কেউ শতকরা ৫০ ভাগ ভোট না পেলে প্রধান দুই প্রতিদ্বন্দ্বীর মধ্যে দ্বিতীয় দফা নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে৷ দ্বিতীয় দফার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ৪ জুলাই৷ তবে অনেকে মনে করছেন যে তার আগেই নির্বাচনী বৈতরণী পার হতে পারবেন কমোরোভস্কি৷

প্রতিবেদন: রিয়াজুল ইসলাম, সম্পাদনা: জাহিদুল হক

সংশ্লিষ্ট বিষয়