1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

পুঁজিবাজার পতনের দায় এসইসি-র!

শেয়ারবাজারের পতন এবং তার কারণ, শেখ হাসিনার বিরোধীদের প্রতি আহ্বান আর দ্রব্যমূল্য নিয়ে বাণিজ্যমন্ত্রীর মন্তব্য৷ সংবাদের প্রধান শিরোনাম আজ এসবই৷

ঢাকা, বাংলাদেশ, শেয়ার বাজার, পতন, শেখ হাসিনা, বাণিজ্যমন্ত্রী, দৈনিক, সংবাদপত্র, মতামত, বিশ্লেষণ

পুঁজিবাজারের পতনের জন্য দায়ী নিয়ন্ত্রক সংস্থা

শেয়ারবাজারের রেকর্ড পতন এবং সে কারণে শেয়ারবাজার বন্ধ হওয়ার খবরটি মঙ্গলবার জায়গা করে নিয়েছে সবকটি দৈনিকের প্রথম পৃষ্ঠায়৷ বিডিনিউজ টোয়েন্টি ফোর ডট কম এ বিষয়ে একটি মতামত বিশ্লেষণ করেছে কয়েকজন বিশেষজ্ঞের সঙ্গে কথা বলে৷ তাঁরা বলছেন, পুঁজিবাজারের পতনের জন্য এর নিয়ন্ত্রক সংস্থা সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন বা এসইসি ও প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীরাই দায়ী৷ সোমবার অর্থনৈতিক প্রতিবেদক ফোরাম আয়োজিত এক সেমিনারে বলা হয়, এসইসি তার কিছু সিদ্ধান্ত পাল্টেছে এবং পুঁজিবাজার রক্ষায় তাদের ভূমিকা পালনে ব্যর্থ হয়েছে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীরা৷ মার্চেন্ট ব্যাংক, ব্রোকারেজ হাউজ, সম্পদ ব্যবস্থাপনা প্রতিষ্ঠান এবং মিউচুয়াল ফান্ড পরিচালনাকারী ইত্যাদি প্রতিষ্ঠানকে প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারী বলা হয়৷ তত্ত্বাবধায়ক সরকারের প্রাক্তন উপদেষ্টা মির্জা আজিজুল ইসলাম বলেন, ‘বাজার যখন পড়তে শুরু করে তখন সিদ্ধান্ত বদলায় এসইসি৷ এতে বিনিয়োগকারীরা মনে করেন এসইসি সূচক ওঠানোর চেষ্টা করছে৷ ফলে নৈতিক দিক দিয়ে ঝামেলায় পড়েন তারা৷'
দায়িত্বশীল বিরোধীর ভূমিকা পালন করতে আহ্বান হাসিনার

মিথ্যাচার বন্ধ করে দায়িত্বশীল বিরোধী দলের ভূমিকা পালন করার জন্য বিএনপির প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা৷ প্রায় সবকটি সংবাদপত্র এবং সংবাদমাধ্যমেই প্রধানমন্ত্রীর এই মন্তব্য প্রকাশিত হয়েছে আজ৷ বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষ্যে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আয়োজিত আলোচনাসভায় প্রধানমন্ত্রী এই আহ্বান জানান৷ দৈনিক ইত্তেফাকের বক্তব্য, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ধোঁকাবাজির রাজনীতি পরিহার করে দায়িত্বশীল বিরোধী দলের ভূমিকা পালনের জন্য বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন৷ তিনি আরো বলেছেন, অযথা জাতিকে বিভ্রান্ত করবেন না৷ পদে পদে সরকারের কাজকর্মে বাধা দেবেন না৷ সরকারের ভুল-ত্রুটি থাকলে সেগুলো ধরিয়ে দিন৷ আমরা শুধরে নেওয়ার চেষ্টা করবো৷

জিনিসপত্রের দাম মানুষের ক্রয়ক্ষমতার মধ্যেই আছে: বাণিজ্যমন্ত্রী
মানুষের ক্রয় ক্ষমতা বাড়লেই জিনিসপত্রের দাম বাড়ে বলে মন্তব্য করে বাণিজ্যমন্ত্রী অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট কর্নেল ফারুক খান বলেছেন, বাংলাদেশে এখনো অনেক মানুষ দারিদ্র্য সীমার নিচে বসবাস করছে৷ তাদের দিকে দৃষ্টি দেওয়া সরকারের দায়িত্ব৷ আর সে দায়িত্ব সরকার ভালোভাবেই পালন করছে৷
সোমবার এক সাংবাদিক সম্মেলনে বাণিজ্যমন্ত্রী এছাড়াও বলেন, জাতির উদ্দেশে দেওয়া ভাষণে দ্রব্যমূল্য নিয়ে বিরোধীদলীয় নেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার বক্তব্য ছিল অস্পষ্ট এবং রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত৷
বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, দ্রব্যমূল্যের ঊর্দ্ধগতি নিয়ে কেবল সাধারণ মানুষ নয়, সরকারও উদ্বিগ্ন৷ তবে অন্যান্য দেশের তুলনায় বাংলাদেশে দ্রব্যমূল্য এখনো স্থিতিশীল ও সাধারণ মানুষের ক্রয় ক্ষমতার মধ্যেই রয়েছে৷

সংকলন: সুপ্রিয় বন্দ্যোপাধ্যায়

সম্পাদনা: রিয়াজুল ইসলাম

সংশ্লিষ্ট বিষয়