1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

পিতা-মাতাকে ভরণপোষণ না দিলে জেল-জরিমানা

বাবা-মার ভরণপোষণে ব্যর্থতার জন্য সর্বোচ্চ ১ লাখ টাকা অর্থদণ্ড, আর তা দিতে ব্যর্থ হলে তিন মাস কারাভোগের বিধান রেখে জাতীয় সংসদে বিল পাস হয়েছে৷ ২০১১ সালে বিলটি উত্থাপন করেন জাতীয় পার্টির সাংসদ মো. মুজিবুল হক চুন্নু৷

Familie fährt Fahrrad familie; fahrrad; sport; fahrräder; aktiv; fahrradfahrern; radfahren; bewegung; fitness; kind; sohn; jung; frau; mann; vater; mama; papa; paar; mutter; klein; sonne; sonnig; sommer; wochenende; draußen; natur; spaß; leute; menschen; grün; landschaft; bäume; weg; drei

‘পিতা-মাতার ভরণপোষণ বিল-২০১৩' শিরোনামের বিলে বলা হয়েছে কোনো সন্তানের স্ত্রী, ছেলে-মেয়ে বা নিকট আত্মীয় এ দায়িত্ব পালনে বাধা দিলে তারাও একই অপরাধে অপরাধী হবেন এবং একই শাস্তি পাবেন৷

কোনো সন্তান তার বাবা বা মাকে তাদের ইচ্ছার বিরুদ্ধে বৃদ্ধ নিবাস কিংবা আলাদাভাবে বসবাসে বাধ্য করতে পারবে না৷ এছাড়া এই আইনে পিতার অবর্তমানে দাদা-দাদী এবং মাতার অবর্তমানে নানা-নানিরও ভরণপোষণ নিশ্চিত করার বাধ্যবাধকতার কথাও বলা হয়েছে৷

এই আইনের অধীনে কোনো সন্তানের বিরুদ্ধে অভিযোগ উত্থাপন করতে পারবে শুধু বাবা-মা৷ অভিযোগকারী বাবা বা মাকে শুনানির সুযোগ না দিয়ে কোনো আদালত অভিযুক্ত ব্যক্তিকে জামিন দিতে পারবে না৷

তবে আইনে আপস-নিষ্পত্তির বিধানও যুক্ত রয়েছে৷

নতুন এই আইনকে স্বাগত জানিয়ে সামহয়্যার ইন ব্লগে এম ই জাভেদ লিখেছেন, ‘‘...কিন্তু বর্তমানে ধর্মীয় অনুশাসন আর সামাজিক ও পারিবারিক মূল্যবোধ অনেকের কাছে ঠুনকো হয়ে দাঁড়িয়েছে বিধায় কুলাঙ্গার সন্তানদের জন্য সতর্ক বার্তা হিসেবে এ আইন রাখতে পারবে যুগান্তকারী ভূমিকা৷'' অবশ্য কয়জন বাবা-মা চাইবেন সন্তানের বিরুদ্ধে আইনের আশ্রয় নিতে সেটাও এক বিরাট প্রশ্ন বলে মন্তব্য তাঁর৷

এরপর জাভেদ সবাইকে মনে করিয়ে দিয়েছেন যে, একদিন সবাইকে বৃদ্ধ হতে হবে৷ সুতরাং, ‘‘নিজের বাবা-মা'কে অবহেলা করা হলে আপনার নিজের ক্ষেত্রেও যে ভবিষ্যতে এমন পরিস্থিতি তৈরি হবেনা এর কোনো গ্যারান্টি আছে কি? আপনার সন্তান কিন্তু আপনাকে দেখেই শিখছে৷ অতএব একবার শুধু চোখ বন্ধ করে পিতামাতার স্থলে নিজেকে কল্পনা করুন, তাহলে আর এ আইন প্রয়োগের প্রয়োজনীয়তা দেখা দেবেনা কখনো৷

একই ব্লগে আফজাল বাঙ্গাল এটাকে ‘ঐতিহাসিক আইন' বলে আখ্যায়িত করেছেন৷ তবে তাঁরও প্রশ্ন, ‘‘সন্তান যদি সত্যিকার অর্থে সুসন্তান না হয় তবে কোনো আইন দিয়ে কি কিছু করা সম্ভব?'' তিনি মনে করেন, পিতা-মাতা না খেয়ে দুঃখ কষ্টে দিন কাটালেও কোনো পিতা মাতা চাইবেন না তাঁর সন্তানের বিরুদ্ধে আদালতে যেতে৷

রাকীব হাসান এর মতে, এটা একটা ‘দারুণ' বিল৷ কিন্তু এ সম্পর্কে ব্যাপক গণসচেতনতা গড়ে তোলা দরকার বলে তিনি মনে করেন৷

সংকলন: জাহিদুল হক

সম্পাদনা: সঞ্জীব বর্মন

নির্বাচিত প্রতিবেদন