1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

পাসওয়ার্ড বদলান, ‘চুরি’ সামলান

জার্মান এক প্রোগ্রামারের ছোট্ট একটা ভুল৷ সেই ভুলের কারণে সারা বিশ্বের সাইবার দুনিয়ায় তোলপাড়৷ শত শত ব্যক্তির গুরুত্বপূর্ণ তথ্য চুরির খবর আসছে৷ এ অভিযোগে একজনকে গ্রেপ্তার করেছে ক্যানাডার পুলিশ৷

সম্প্রতি ইন্টারনেটে ব্যক্তিগত তথ্যের নিরাপত্তার কাজে ব্যবহৃত ‘এনক্রিপশন' পদ্ধতিতে বড় ধরনের ত্রুটি ধরা পড়ে৷ এই ত্রুটির ফলে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের পাসওয়ার্ড, ক্রেডিট কার্ড নম্বরসহ স্পর্শকাতর সব তথ্য পড়ে যায় ঝুঁকির মুখে৷ বিশেষজ্ঞরা জানান, ‘ডেটা স্ক্র্যম্বলিংয়'-এ ব্যবহৃত ওপেনএসএসএল এনক্রিপশনে প্রায় দু'বছর ধরে এই ত্রুটি রয়েছে৷ এর সুযোগ নিয়ে ওপেন এসএসএল-এর সহায়তায় চলে এমন ওয়েব সার্ভারগুলো থেকে হ্যাকাররা তথ্য চুরি করতে পারে বলেও আশঙ্কা প্রকাশ করেন তাঁরা৷

এরই মাঝে আসতে শুরু করেছে হ্যাকারদের অন্যের ‘অ্যাকাউন্ট' হ্যাক করে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য চুরিতে নেমে পড়ার খবর৷ এদিকে জার্মানির ‘ড্যায়ার শ্পিগেল' ম্যাগাজিনের অনলাইন সংস্করন জানিয়েছে, সাইবার জগতের প্রায় অর্ধেক ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের তথ্য নিরাপত্তা সংকটে পড়েছে এক জার্মান প্রোগ্রামারের অনিচ্ছাকৃত ভুলের কারণে৷ তাঁর এই ভুলজণিত সৃষ্টি, অর্থাৎ ইন্টারনেট নিরাপত্তার এই ত্রুটির নাম দেয়া হয়েছে ‘হার্টব্লিড বাগ'৷ ‘ডেয়ার স্পিগেল'-কে নাম প্রকাশ না করার শর্তে এক প্রোগ্রামার জানিয়েছেন, তিনি একসময় ওপেনএসএসএল-এ কাজ করতেন৷ গত সোমবার থেকে যে ‘হার্টব্লিড বাগ' নিয়ে তোলপাড় চলছে তার জন্ম তাঁর হাতেই হয়েছিল বলেও স্বীকার করেছেন তিনি৷ তবে জার্মান প্রোগ্রামার দাবি করেন, তাঁর এই ভুল ঊর্ধ্বতনদের নজর এড়িয়ে যায় এবং বিষয়টি যে এত বড় সমস্যার কারণ হতে পারে, তা বোঝেননি বলে তিনি নিজেও তখন আর এ নিয়ে কথা বলেননি৷

ভুলটি দু'বছর আগে হলেও ধরা পড়েছে মাত্র কয়েকদিন আগে৷ বার্তা সংস্থাগুলোর খবর অনুযায়ী, ইন্টারনেট ব্যাবহারকারীদের মনে আতঙ্ক ছড়ানো এ ভুল সবার আগে ‘গুগল সিকিউরিটিজ'-এর কর্মী নীল মেহতার নজরে আসে৷ তাঁর এই ‘আবিষ্কার' যেমন আতঙ্ক ছড়িয়েছে, তেমনি সাইবার দুনিয়ায় সবাইকে নিরাপদ রাখার সুযোগও করে দিয়েছে৷ আপাতত করণীয় একটাই – ঝটপট পাসওয়ার্ড বদলে ফেলা৷

যুক্তরাষ্ট্র, জার্মানিসহ বেশ কিছু দেশের অফিস-আদালতে পড়ে গেছে সতর্কবার্তা প্রচারের হিড়িক৷ পাসওয়ার্ড বদলে ফেলে ইন্টারনেটে গোপনীয় সব তথ্য গোপন রাখতে কে না চায়, বলুন! তাই বদলে যাচ্ছে লাখ লাখ ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর পাসওয়ার্ড৷

অবশ্য হ্যাকাররাও বসে নেই৷ গত দু'বছরে কত সহস্র ব্যক্তিগত তথ্য ফাঁস হয়েছে, বলা মুশকিল৷ তবে এখন হ্যাকারদের ওপরও রাখা হচ্ছে কড়া নজর৷ মঙ্গলবার স্টেফেন আর্থুরো সোলিস-রেয়েস নামের এক তরুণকে গ্রেপ্তার করেছে রয়্যাল ক্যানাডিয়ান মাউন্টেড পুলিশ (আরসিএমপি)৷

আরসিএমপি জানিয়েছে, গ্রেপ্তারকৃত ব্যাক্তি ইন্টারনেট থেকে অন্তত ৯০০ ক্যানাডিয়ান করদাতার তথ্য চুরি করেছেন৷

এসিবি/ডিজি (এএফপি, ডিপিএ, রয়টার্স)

নির্বাচিত প্রতিবেদন