1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

পাকিস্তানে বন্যার ক্ষয়ক্ষতি কাটাতে লাগবে ৩ বছর

পাকিস্তানে ভয়াবহ বন্যার ক্ষয়ক্ষতি কাটাতে অন্তত তিন বছর লাগবে৷ এ কথা বলেছেন সে দেশের প্রেসিডেন্ট আসিফ আলী খান জারদারি৷ দেশের দক্ষিণাঞ্চলে বন্যা পরিস্থিতি এখনো অবনতির দিকে৷

default

এদিকে বন্যাদুর্গতদের অবস্থা নিজের চোখে দেখার জন্য পাকিস্তান যাচ্ছেন ইরানের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আহমাদিনেজাদ৷

এবারের মতো বন্যা আগে কখনো দেখেনি পাকিস্তানবাসী৷ ৫০ লাখ মানুষ এখন ঘর হারিয়ে উদ্বাস্তু৷ ফসলের মাঠ এখন পানির নিচে৷ এবার অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ধরা হয়েছিল ৪ দশমিক ৮৷ তবে বন্যার পর এখন অর্থনীতিবিদরা বলছেন, এটা ৩-এর ওপর উঠবেই না৷ শূন্য হলেও অবাক হওয়ার কিছু নেই৷ আর প্রেসিডেন্ট আসিফ আলী জারদারি বললেন, বন্যা যে ক্ষতি করেছে, তা কাটানো তিন বছরের আগে সম্ভবপর হবে না৷ উগ্রপন্থীরা বানভাসি মানুষের অসহায়ত্বের সুযোগ নিতে পারে, সে আশঙ্কাও করছেন জারদারি৷ এই জন্য প্রশাসনকে হুঁশিয়ার থাকতে বলেছেন তিনি৷

বন্যার্তরা একদিকে যেমন ক্ষুধার সঙ্গে যুদ্ধ করছে, অন্যদিকে লড়াই চলছে রোগ-ব্যাধির সঙ্গেও৷ আর বন্যা পরবর্তী মহামারি রোধে আজই জরুরি বৈঠক করলেন প্রধানমন্ত্রী ইউসুফ রাজা গিলানি৷ স্থানীয় স্বাস্থ্য প্রশাসনের কর্মকর্তাদের সঙ্গে ওই বৈঠকে ছিলেন আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলোর কর্মকর্তারাও৷

প্রশাসনের হিসাব অনুযায়ী, বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত কোটি মানুষের মধ্যে ৩৫ লাখই শিশু৷ আর সন্তানসম্ভবা নারী আছেন লাখ খানেক৷ আশ্রয় শিবিরগুলোতে ইতিমধ্যে জন্ম নিয়েছে অনেক শিশু৷ তাদের সুরক্ষা নিশ্চিত করতে চাইছে সরকার৷

Flash-Galerie Pakistan Überschwemmung

বন্যার্ত এলাকায় এক থালা খাবারের আশায় এক শিশু

ডায়রিয়া ও চর্মরোগের প্রকোপ দেখা দিয়েছে এরই মধ্যে৷ কর্মকর্তারা বলছেন, মহামারি ঠেকাতে যেন সমন্বিতভাবে কাজ করা যায়, সে জন্যই প্রধানমন্ত্রীর এই বৈঠক৷ গিলানি আশা করছেন, শিগগিরই পরিস্থিতির উন্নতি হবে৷ তিনি সাংবাদিকদের বলেন, ‘‘আবহাওয়া এখন ভালো৷ তবে দুর্গত এলাকায় ত্রাণ পাঠানোর সমস্যা এখনো কাটেনি৷ অনেক স্থানে হেলিকপ্টার ছাড়া ত্রাণ পাঠানো যাচ্ছেই না৷''

পাকিস্তানে বন্যার্তদের জন্য আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় সাহায্য পাঠাচ্ছে৷ একইসঙ্গে আরো অর্থের জন্য আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিল অর্থাৎ আইএমএফের সঙ্গে দেন দরবার চালাচ্ছেন অর্থমন্ত্রী আব্দুল হাফিজ শেখ৷ ওয়াশিংটনে সোমবার একদফা আইএমএফ কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলেছেন তিনি৷ ২০০৮ সালে যে ১১শ কোটি ডলার ঋণ আইএমএফ মঞ্জুর করেছিল, তার শর্ত শিথিল করে দ্রুত ছাড়ের আহ্বান জানিয়েছেন তিনি৷ বন্যা যে পাকিস্তানের অর্থনীতিতে বড় ধরনের প্রভাব ফেলবে, তা স্বীকার করেছে আইএমএফ৷ তবে এখনো কোনো সিদ্ধান্ত হয়নি৷ বুধবার আবার আলোচনা হবে৷

এদিকে উত্তর ভাসিয়ে পানি এখন দক্ষিণ দিয়ে নামছে ভারত মহাসাগরে৷ আর তার আগে ভাসিয়ে দিচ্ছে সিন্ধু প্রদেশ৷ প্রাদেশিক মন্ত্রী শফিউল্লাহ দারেজো বললেন, ‘‘আগামী দুই-তিন দিন পরিস্থিতি আরো অবনতির দিকে যেতে পারে৷ আমরা তীক্ষ্ণ নজর রাখছি৷'' বিভিন্ন স্থানে যে বাঁধগুলো হুমকির মধ্যে আছে, তা ঠিক রাখতে দিনরাত কাজ চলছে৷

বন্যার মধ্যেই পাকিস্তান সফরের ঘোষণা দিয়েছেন ইরানি প্রেসিডেন্ট আহমাদিনেজাদ৷ ইরানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মুস্তফা মোহাম্মদ নাজির আজ জানিয়েছেন, পাকিস্তানের বন্যা পরিস্থিতি দেখতে আহমাদিনেজাদ ইসলামাবাদ সফরের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন৷ তবে কবে সেই সফর হবে, তা জানাননি তিনি৷ আহমাদিনেজাদই প্রথম কোনো রাষ্ট্রীয় নেতা, যিনি বন্যা কবলিত পাকিস্তান যাচ্ছেন৷

প্রতিবেদন: মনিরুল ইসলাম

সম্পাদনা: সঞ্জীব বর্মন