1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

পাকিস্তান

পাকিস্তানে আবার ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলা

কোয়েটার কাছে বালুচিস্তান পুলিশ কলেজে জঙ্গি হামলায় কমপক্ষে ৫৯ জন নিহত ও শতাধিক আহত হয়েছে৷ নিহতদের অধিকাংশই পুলিশ ক্যাডেট৷ হামলায় লশকর-ই-জংভি জড়িত বলে ধারণা করা হচ্ছে৷

বিস্ফোরক বেল্ট পরা বন্দুকধারীরা প্রথমে পুলিশ কলেজের ওয়াচ টাওয়ারের প্রহরীর দিকে গুলি চালায়৷ গুলিবিনিময়ে সেন্ট্রি নিহত হবার পর তারা অ্যাকাডেমি প্রাঙ্গণে প্রবেশ করে বলে বালুচিস্তানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সরফরাজ বুগতি সংবাদ মাধ্যমকে জানিয়েছেন৷

নিরাপত্তা বাহিনীর গুলিতে একজন আক্রমণকারী নিহত হয় এবং বাকি দু'জন তাদের শরীরে বাঁধা বোমার বিস্ফোরণ ঘটায় বলেও বুগতি জানান৷ পরে একজন ক্যাডেটও তিনজন কালাশনিকভ ধারী আততায়ীর কথা বলেন, যদিও কর্তৃপক্ষ ইতিপূর্বে চার থেকে ছ'জন আক্রমণকারীর কথা জানিয়েছিল৷ নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা আসার পরে ঘণ্টা তিনেকের মধ্যে আক্রমণের অন্ত ঘটে বলে জানিয়েছেন বালুচিস্তানে নিয়োজিত আধাসামরিক ফ্রন্টিয়ার কোরের প্রধান মেজর জেনারেল শের আফগান৷

মেজর জেনারেল শের আফগান আরো জানান, আততায়ীদের ‘ইন্টারসেপ্ট' করা মেসেজ থেকে জানা গেছে যে, তারা লশকর-ই-জংভি (এলইজে) জঙ্গি গোষ্ঠীর আল-আলিমি শাখার সদস্য৷ এলইজে জঙ্গি গোষ্ঠী পাকিস্তানি তালেবানের সঙ্গে যুক্ত৷ আততায়ীরা আফগানিস্তানে তাদের সহযোগীদের সঙ্গে যোগাযোগে ছিল বলে আফগান জানান৷ কোয়েটাকে বহুদিন ধরেই আফগান তালেবানের একটি ঘাঁটি বলে গণ্য করা হয়ে থাকে৷ আফগান তালেবানের নেতৃবর্গ নিয়মিতভাবে এখানে মিলিত হয়েছেন৷ অপরদিকে ইসলামিক স্টেটও কোয়েটার এ আক্রমণের দায় স্বীকার করেছে৷

সোমবারের আক্রমণের সময় পুলিশ অ্যাকাডেমিতে প্রায় ৭০০ ক্যাডেট ছিলেন৷ নিরাপত্তা বাহিনী পাল্টা অভিযান শুরু করার সময় এলাকাটা নিষ্প্রদীপ ছিল৷ নিরাপত্তা বাহিনী একটি কর্ডন সৃষ্টি করে, অ্যাম্বুলেন্সে করে আহতদের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া চলতে থাকে৷ মাথার উপর মিলিটারি হেলিকপ্টার চক্কর দিতে থাকে৷

অ্যাকাডেমির সামনে এখন কড়া নিরাপত্তা৷নিহত-আহতদের ক্রন্দনরত আত্মীয়স্বজনেরা অ্যাকাডেমিতে পৌঁছালে তাদের হাসপাতালে পাঠানো হচ্ছে৷ নিরাপত্তা বাহিনী তল্লাসি চালিয়ে যাচ্ছে৷ মিডিয়াকে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে না৷

এসি/এসিবি (এএফপি, রয়টার্স, এপি)

 

নির্বাচিত প্রতিবেদন