1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

পাকিস্তানকে নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের দুর্ভাবনা

পাঞ্জাবের গভর্নর সালমান তাসিরের হত্যাকাণ্ডের পর যুক্তরাষ্ট্র অতি প্রয়োজনীয় মিত্র পাকিস্তানকে নিয়ে আরো বেশী চিন্তিত৷

default

ডয়চে ভেলে’র একটি সাম্প্রতিক সাক্ষাৎকারে সালমান তাসির

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কাছে তাসির হত্যাকাণ্ডের গুরুত্ব স্পষ্টই বোঝা যায়৷ মঙ্গলবার পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিন্টন বলেন যে, দেশে সহিষ্ণুতা বৃদ্ধির জন্য তাসিরের কাজের তিনি সশ্রদ্ধ ভক্ত ছিলেন৷ বুধবার হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র রবার্ট গিবস'ও তাসিরের সেই সহিষ্ণুতা বৃদ্ধির প্রচেষ্টার কথাই বলেছেন৷ আসলে তাসিরকে পাকিস্তান পিপলস পার্টির মুখ্য মধ্যমপন্থী কণ্ঠগুলির মধ্যে গণ্য করা হতো৷ তিনি ছিলেন পাকিস্তানের উদারপন্থী এলিটের প্রতিভূ৷ তাঁকে জীবন দিতে হল তিনি শুধু পাকিস্তানের বিতর্কিত ঈশ্বরনিন্দা আইনের সমালোচক ছিলেন বলে৷ এবং তাঁর মৃত্যুর পর পাকিস্তানে ৫০০ মৌলবি তাসিরের হত্যাকাণ্ডে শোকপ্রকাশের উপর ফতোয়া জারি করেছেন৷ কাজেই ওয়াশিংটনের চিন্তার কারণ আছে বৈকি৷

স্পাই ভার্সেস স্পাই

US Geheimdienste CIA

সিআইএ’র মাথাব্যথা আইএসআই’কে নিয়ে

অবশ্য তার আগে থেকেই মার্কিন গুপ্তচর সংস্থা সিআইএ এবং পাকিস্তানের গুপ্তচর সংস্থা আইএসআই'এর মধ্যেও গোঁসা চলেছে৷ এবং সে গোঁসা অনেকদিনের৷ বিশেষ করে আইএসআই ভারত-বিরোধী জঙ্গি গোষ্ঠীগুলিকে সাহায্য করে থাকে বলে৷ ওদিকে এই গোষ্ঠীগুলির আল-কায়েদা এবং তালিবানের সঙ্গে যোগ আছে, বলে মার্কিন কর্মকর্তাদের ধারণা৷ অর্থাৎ তারা যুগপৎ মার্কিন বিরোধী৷ এছাড়া পাকিস্তান সরকার যে জঙ্গিদের বিরুদ্ধে চলতি সামরিক অভিযানকে দক্ষিণ ওয়াজিরিস্তান ছাড়িয়ে উত্তর ওয়াজিরিস্তান অবধি প্রসারিত করতে রাজি নন, সেটাও মার্কিনিদের গোঁসার একটা কারণ৷

হীলির অঙ্গুলিনির্দেশ

Pakistan Geheimdienst ISI

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইউসুফ রজা গিলানি কথা বলছেন আইএসআই প্রধান আহমেদ সুজা পাশা’র সঙ্গে (ফাইল ফটো)

যুক্তরাষ্ট্রে দণ্ডপ্রাপ্ত ডেভিড হীলি'রও এই বিরোধে একটা ভূমিকা আছে৷ হীলি অভিযোগ করেছে, ২০০৮ সালের মুম্বই সন্ত্রাসে আইএসআই'এর সংযোগ ছিল৷ এরপর যুক্তরাষ্ট্রে ভারতীয়দের তিনটি মামলা দায়ের করতে দেওয়ার পরে আইএসআই'এর তরফ থেকে নাকি পাকিস্তানে সর্বোচ্চ সিআইএ কর্মকর্তার নামটি ফাঁস করে দেওয়া হয়৷ সেটাই নাকি এই দুই গুপ্তচর সংস্থার ইতিহাসে সর্বনিম্ন পর্যায়৷

তবে চিন্তার কোনো কারণ নেই৷ আসল ব্যাপারটা এই: মার্কিনি এবং পাকিস্তানি গুপ্তচর বিভাগগুলি পরষ্পরের ওপর এ্যাতোটাই নির্ভর যে, কোনোপক্ষই বিবাদটাকে পুরোপুরি বিভেদ হয়ে উঠতে দেবে না৷

প্রতিবেদন: অরুণ শঙ্কর চৌধুরী

সম্পাদনা: ফাহমিদা সুলতানা

নির্বাচিত প্রতিবেদন