1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

পশ্চিমা রক সংগীতের উজ্জ্বল তারকা ফ্রেডি মার্কারি

সত্তর ও আশির দশকে ‘কুইন’ সংগীত গোষ্ঠীকে সঙ্গে নিয়ে সারা বিশ্বে ব্যাপক সাফল্য ও জনপ্রিয়তা পেয়েছিলেন ফ্রেডি মার্কারি৷ ২৪শে নভেম্বর পালিত হল বহুমুখী প্রতিভার অধিকারী এই রক তারকার ১৯তম মৃত্যু বার্ষিকী৷

default

ফ্রেডি মার্কারি

রক সংগীতের ইতিহাসে ফ্রেডি মার্কারি এক অসামান্য প্রতিভা৷ মাত্র পঁয়তাল্লিশ বছর বয়সে মৃত্যু বরণ করলেও রক সংগীত জগতে রেখে গেছেন সংগীত কর্মের এক বিরাট সম্ভার৷ মার্কারি ছিলেন একাধারে চিত্রশিল্পী, গীতিকার, সুরকার, বাদক ও গায়ক৷ নানা ধারার রক সংগীত, হেভি মেটাল, গসপেল, ডিস্কো এবং আরো বহু ধারায় সংগীত রচনা করেছেন তিনি৷

ফ্রেডি মার্কারির জন্ম ১৯৪৬ সালের পাঁচ সেপ্টেম্বর, পুর্ব আফ্রিকার জানজিবার দ্বীপে, ভারতের পার্সি পরিবারে৷ আসল নাম ফাররোখ বুলজারা৷ ৮ বছর বয়সে বাবার পেশার সুত্রে আসেন ভারতে, বোম্বের কিছু দুরে পাঁচগানি শহরে৷ ইংরেজি বোর্ডিং স্কুলে লেখাপড়া শুরু করেন৷ তারপর পিয়নোতে তালিম নেন এবং স্কুলের বৃন্দসংগীত দলে যোগ দেন৷এ সময় তাঁর সহপাঠীরা তাকে আদর করে ডাকতেন ফ্রেডি৷ ১৭ বছর বয়সে পরিবারের সাথে ফ্রেডি লন্ডনে পাড়ি জমান৷ এইলিং কলেজ অফ আর্টসএ চিত্রাঙ্কন ও গ্রাফিক্সস এর পাঠ নেয়ার সময় বেশ কিছু সংগীত শিল্পীর সাথে পরিচয় হয় তাঁর৷ পিয়ানোয় তাঁর দক্ষতা এবং অসাধারণ সুরেলা কন্ঠের জন্য খুব তাড়তাড়ি তাঁর নাম ছড়িয়ে পড়ে৷

বেশ কিছু ব্যান্ডের সাথে সংগীত পরিবেশনার পর ১৯৭০ সালে ফ্রেডি মার্কারি গঠন করেন চার সদস্যের সংগীত গোষ্ঠী ‘কুইন'৷ এ সময় তাঁর বুলজারা নামের পরিবর্তে মার্কারি নাম গ্রহণ করেন৷ একের পর এক সাফল্য আসে কুইন সংগীত গোষ্ঠীর৷ সত্তর ও আশির দশকে বিশ্ব সংগীতাঙ্গনে জনপ্রিয়তার শির্ষে ছিল কুইন৷এ সময় কুইন ছাড়াও একক সংগীত শিল্পী হিসেবে বহু খ্যতিমান সংগীত শিল্পীর সাথে কনসার্ট পরিবেশন করেন ফ্রেডি৷ যেমন স্পেইনের বিখ্যাত অপেরা সংগীত তারকা মোন্টসেরাত কাবাইইয়ের সঙ্গে৷

তাঁর সুরেলা ও চড়া স্বরের কন্ঠ মুগ্ধ করেছ সংগীতানুরাগীদের৷ আজো রক সংগীত জগতে ফ্রেডি মার্কারির তথা কুইন'এর গানের জনপ্রিয়তা অম্লান৷ ২৪ নভেম্বর ১৯৯১ সালে মাত্র পঁয়তাল্লিশ বছর বয়সে লন্ডনে এইডস রোগে আক্রান্ত এই অসাধারন রক সংগীত তারকা মৃত্যু বরণ করেন৷ মৃত্যুর আগের দিন পর্যন্ত গান গেয়েছেন ফ্রেডি মার্কারি ৷

প্রতিবেদন: মারুফ আহমদ

সম্পাদনা: আব্দুল্লাহ আল-ফারূক