1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

পরমাণু দায়বদ্ধতা বিলের সংশোধনী রিপোর্ট পেশ সংসদে

ভারতের বিতর্কিত অসামরিক পরমাণু দায়বদ্ধতা বিলের বিভিন্ন ধারা সংশোধন করে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় কমিটি যে রিপোর্ট দিয়েছে, বুধবার তা সংসদের উভয় সভায় পেশ করা হয়৷

default

বাম দলগুলির শক্তি ও গুরুত্ব কমে যাওয়ায় তাদের আপত্তিতে কিছু এসে যাচ্ছে না

বিলের যেসব ধারা সম্পর্কে বিরোধীদের আপত্তি ছিল, বহুলাংশে তা দূর করা হয়েছে৷

সংসদীয় কমিটির রিপোর্টের ভিত্তিতে পরমাণু দায়বদ্ধতা বিল সংশোধিত আকারে সংসদে আনা হবে এই সপ্তাহে৷ আগেকার বিলের যেসব ধারা সম্পর্কে বিরোধী দলগুলির আপত্তি ছিল, সংশোধিত রিপোর্টে তার অনেকটা দূর হওয়ায় বিজেপি এতে ছাড়পত্র দিয়েছে৷ ফলে বিলটি সংসদে পাশ করানোর পথ সুগম হলো৷ বাম দলগুলির আপত্তি থাকলেও তাতে ইতরবিশেষ হবেনা৷ সংশোধনগুলি মোটামুটি এই রকম৷ প্রথমত, পরমাণু দুর্ঘটনার ক্ষতিপূরণের অর্থ ৫০০ কোটি টাকা থেকে বাড়িয়ে করা হয় ১৫০০ কোটি টাকা৷ দ্বিতীয়ত, আগে উল্লেখ ছিল, দায়বদ্ধতার প্রশ্ন উঠবে ইচ্ছাকৃত বা চরম গাফিলতির ক্ষেত্রে৷ নতুন বিলে দায়বদ্ধতার পরিধি বাড়িয়ে সাজসরঞ্জামের খারাপ গুণমান বা ত্রুটিকেও অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে৷ তৃতীয়ত, আগের বিলে পরমাণু দায়বদ্ধতা তহবিলের কোন সংস্থান ছিলনা, নতুন বিলে মার্কিন ধাঁচে এর সংস্থান রাখা হয়৷ চতুর্থত, পরমাণু দুর্ঘটনায় স্রেফ জানমালের ক্ষয়ক্ষতিকেই আগে ধরা হয়েছিল, এবার তার সঙ্গে যুক্ত হয়েছে পশুপ্রাণী, গাছপালা, ফসল ও উদ্ভিদ৷ পঞ্চমত, ক্ষতিপূরণের দাবি জানানোর সময়সীমা আগে ছিল ১০ বছর৷ সেটাকে বাড়িয়ে করা হয় ২০ বছর৷

সংশোধিত রিপোর্টে বিজেপি সায় দেয়ায় আরজেডি ও সমাজবাদি পার্টি খাপ্পা৷ আরজেডির লালু যাদবের অভিযোগ, গুজরাটে বিজেপি মুখ্যমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে সিবিআই মামলা থেকে রেহাই দেবার শর্তে বিজেপি এই রিপোর্ট অনুমোদন করেছে৷ কংগ্রেস নেতা রাজীব শুক্লার মন্তব্য, এসব বাজে কথা৷ দেশে বিদ্যুতের চাহিদা মেটাতে এই বিল পাশ করানো জরুরি৷ অন্যদিকে বিজেপির মুখপাত্র রবিশঙ্কর প্রসাদ সাংবাদিকদের বলেন,ভারত-মার্কিন অসামরিক পরমাণু চুক্তি সম্পর্কে দলের অবস্থান স্পষ্ট৷ দেশের স্বার্থ সুরক্ষিত রাখতে হবে৷ তাই প্রয়োজনীয় সংশোধনে সরকারকে বাধ্য করা হয়৷ সিপিআই-এম সাংসদ সীতারাম ইয়েচুরি মন্তব্য, নভেম্বরে ওবামা ভারতে এলে তাঁকে ভেট দিতেই তড়িঘড়ি বিল পাশ করাতে হবে সরকারকে৷ ক্ষতিপূরণের সীমা যাতে বেঁধে দেয়া না হয়, তার জন্য পরিবেশবাদি গ্রিনপিস সংগঠন বিরোধি দলগুলির প্রতি আহ্বান জানিয়েছে৷

প্রতিবেদন: অনিল চট্টোপাধ্যায়, নতুনদিল্লি
সম্পাদনা: সঞ্জীব বর্মন

সংশ্লিষ্ট বিষয়