1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

নিহত পোলিশ রাষ্ট্রপতির শেষকৃত্য চলছে

পোল্যান্ডের জনগণ রবিবার অশ্রুসিক্ত নয়নে বিদায় জানাচ্ছে তাঁদের প্রিয় নেতা লেখ কাচিন্সকিকে৷

default

সেন্ট মেরি গির্জায় প্রার্থনাসভা চলছে

ক্রাকাউ শহরের সেন্ট মেরি গির্জায় নিহত রাষ্ট্রপতি ও তাঁর স্ত্রীর স্মরণে ধর্মীয় প্রার্থনা অনুষ্ঠিত হচ্ছে৷ সেখানে উপস্থিত আছেন হাজার হাজার শোকার্ত মানুষ৷ এরপর মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে ভাভেল প্রাসাদে, যেখানে শুয়ে আছেন পোল্যান্ডের রাজা ও জাতীয় বীররা৷ পাথরের তৈরি কফিনে করে তাঁদের পাশেই শুইয়ে দেয়া হবে কাচিন্সকি ও তাঁর স্ত্রী মারিয়াকে৷

তবে ভাভেল প্রাসাদে জনসাধারণকে যেতে দেয়া হবেনা৷ শুধু কাচিন্সকির পরিবারের সদস্য, বন্ধুবান্ধব ও বিদেশী নেতারা সেখানে যেতে পারবেন৷ তবে বাইরে বিশাল একটি স্ক্রীন বসানো হয়েছে, যেখানে সাধারণ জনগণ পুরো অনুষ্ঠানটি দেখতে পারবে৷

এর আগে একটি সামরিক বিমানে করে তাঁদের মরদেহ ওয়ারশ থেকে নিয়ে যাওয়া হয় ক্রাকাউতে৷ বিমানবন্দর থেকে কাচিন্সকির মরদেহ যখন গির্জায় নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল তখন রাস্তার পাশে থাকা সাধারণ জনগণের কেউ ফুল ছিটিয়ে, কেউবা লাল-সাদা পোলিশ পতাকা উড়িয়ে শেষ শ্রদ্ধা জানান

Polen Trauerfeier Medwedew

কাচিন্সকির প্রতি রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি মেদভেদেভের শ্রদ্ধা নিবেদন

কাচিন্সকির প্রতি৷ এই জনগণের মধ্যে ছিলেন জাসলো শহরের মেয়র৷ তিনি বললেন, ‘‘এটা খুবই অন্যরকম একটা মুহূর্ত৷''

এদিকে বিশ্বের অনেক নেতাই উপস্থিত হতে পারেননি শেষকৃত্য অনুষ্ঠানে৷ কারণ আইসল্যান্ডের আগ্নেয়গিরি থেকে উত্পন্ন হওয়া ছাইমেঘ৷ এর ফলে গত চারদিন থেকে ইউরোপে বিমান চলাচল বন্ধ রয়েছে৷ তাই মার্কিন রাষ্ট্রপতি বারাক ওবামা, ব্রিটেনের প্রিন্স চার্লস, জার্মান চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল, ফ্রান্সের রাষ্ট্রপতি নিকোলা সারকোজি, দক্ষিণ কোরিয়ার প্রধানমন্ত্রী চুং উন-চানকে শেষ মুহূর্তে তাঁদের পরিকল্পনা বাতিল করতে হয়েছে৷

জার্মান চ্যান্সেলর ম্যার্কেল পোলিশ পররাষ্ট্র মন্ত্রী রাডোস্লাভ সিকোরোস্কি-কে ফোন করে শেষকৃত্যে থাকতে না পারার জন্য দু:খ প্রকাশ করেছেন৷ সিকোরোস্কি ম্যার্কলকে বলেছেন যে, তাঁরা এর কারণ বুঝতে পারছেন৷

তবে এই ছাইমেঘকে উপেক্ষা করে বিমানে করেই শেষকৃত্যে উপস্থিত হয়েছেন রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দিমিত্রি মেদভেদেভ৷ উল্লেখ্য, এই রাশিয়াতেই একটি বিমান দুর্ঘটনায় কাচিন্সকি সহ ৯৬ জন নিহত হয়েছিলেন৷ এছাড়া পোল্যান্ডের পার্শ্ববর্তী কয়েকটি দেশের রাষ্ট্রপ্রধানরা রেল বা গাড়িতে করে অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়েছেন৷

প্রতিবেদন : জাহিদুল হক

সম্পাদনা : রিয়াজুল ইসলাম

সংশ্লিষ্ট বিষয়