1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

নিরাপত্তা পরিষদে কাজ শুরু করলো জার্মানি

পঞ্চমবারের মত জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে বুধবার থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে কাজ শুরু করলো জার্মানি৷ যদিও বছরের প্রথম দিন থেকেই জার্মানি সহ পাঁচটি দেশ নিরাপত্তা পরিষদের নতুন অস্থায়ী সদস্য হয়েছে৷

default

সদস্যপদের জন্য ভোটাভুটির সময় জার্মান পররাষ্ট্রমন্ত্রী গিডো ভেস্টারভেলে

বাকি দেশগুলো হলো ভারত, দক্ষিণ আফ্রিকা, পর্তুগাল ও কলম্বিয়া৷ দুই বছরের জন্য নিরাপত্তা পরিষদের অস্থায়ী সদস্য নির্বাচিত হয়েছে এই পাঁচটি দেশ৷ আর ছয় বছর পর জার্মানি আবার সদস্য নির্বাচিত হলো৷

জার্মানির লক্ষ্য অবশ্য স্থায়ী সদস্যপদের দিকে, যেটা জাতিসংঘের জন্মলগ্ন থেকে পাঁচটি দেশের মধ্যে সীমাবদ্ধ রয়েছে৷ এগুলো হলো যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, রাশিয়া, চীন ও ফ্রান্স৷ চীনকে বাদ দিলে সবাই দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে জয়ী হওয়া রাষ্ট্র৷

জার্মানি স্থায়ী সদস্য হতে পারবে কী না সেটা ভবিষ্যতেই দেখা যাবে৷ অস্থায়ী সদস্য হিসেবে এই দুবছরে জার্মানির উদ্দেশ্য থাকবে সেই লক্ষ্যে এগিয়ে যাওয়া৷ তবে জার্মানির সঙ্গে অস্থায়ী সদস্য হিসেবে যোগ দেয়া ভারত ও দক্ষিণ আফ্রিকাও স্থায়ী পদ পেতে আগ্রহী৷

এদিকে, নিরাপত্তা পরিষদের অস্থায়ী সদস্য হয়ে কী অর্জন করতে হবে সে ব্যাপারে জার্মানির পরিষ্কার ধারণা রয়েছে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী গিডো ভেস্টারভেলে৷ তিনি বলেন, সদস্য হিসেবে জার্মানি বিশ্বস্ততা ও দায়িত্বশীলতার পরিচয় দেবে৷

ভেস্টারভেলে বলেন, এবছর আফগানিস্তানের নিরাপত্তার দায়িত্ব দেশটির প্রেসিডেন্ট হামিদ কারজাইয়ের হাতে তুলে দেয়ার প্রক্রিয়া শুরুর পরিকল্পনা রয়েছে৷ যেটা এবছরের একটা গুরুত্বপূর্ণ বিষয়৷ এছাড়া বছর শেষে জার্মান সৈন্য সংখ্যা কমিয়ে আনারও পরিকল্পনা রয়েছে জার্মানির৷ কিন্তু এর আগে প্রয়োজন আফগানিস্তানে রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা ফিরিয়ে আনা৷ এজন্য নিরাপত্তা পরিষদকে যথেষ্ট কাজ করতে হবে৷ এবং জার্মানি এক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে বলে জানান জার্মান পররাষ্ট্রমন্ত্রী৷

প্রতিবেদন: জাহিদুল হক

সম্পাদনা: আব্দুল্লাহ আল-ফারূক