1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

নিপা ভাইরাসের ব্যাপারে সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি

নিপা ভাইরাসের ব্যাপারে সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি করেছে বাংলাদেশের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়৷ স্বাস্থ্যমন্ত্রী ডা. আ ফ ম রহুল হক ডয়চে ভেলেকে জানিয়েছেন, আক্রান্ত এলাকা লালমনিরহাটসহ অন্যান্য এলাকায় এই সতর্কবার্তা পাঠান হয়েছে৷

default

বাদুড় থেকে দূরে থাকার পরামর্শ

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বাদুড় ও শুকরের সংস্পর্শ থেকে দূরে থাকতে হবে৷ রোগীকে চিকিৎসা করাতে হবে আলাদা জায়গায় রেখে৷

স্বাস্থ্যমন্ত্রী রহুল হক জানান, লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা ছাড়া দেশের আর কোথাও এখনো নিপা ভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া যায়নি৷ এই ভাইরাস যাতে ছড়িয়ে পড়তে না পারে সেজন্য সারা দেশের সিভিল সার্জন অফিসকে সতর্ক করে দেয়া হয়েছে৷

রোগতত্ত্ব এবং গবেষণা ইনষ্টিটিউটের প্রধান অধ্যাপক ডা. মাহমুদুর রহমান জানিয়েছেন, প্রধানত বাদুড় ছাড়াও শুকর থেকে এই ভাইরাস ছড়ায়৷ তিনি বাদুড়ের খাওয়া খাবার, ফল ও এই সময় শীতকালে খেজুরের রস না খাওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন৷ আর বাদুড়ের আবাসস্থলও এড়িয়ে চলতে বলেছেন৷

তিনি বলেছেন, প্রচন্ড জ্বর, মাথাব্যথা ও খিঁচুনি নিপা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার লক্ষণ৷ এই সব লক্ষণ দেখা দিলে রোগীকে দ্রুত ডাক্তারের কাছে নিতে হবে এবং আলাদা রেখে সাবধানতার সঙ্গে চিকিৎসা করতে হবে৷ শুশ্রূষাকারী ছাড়া আর কেউ যেন রোগীর সংস্পর্শে না যায়৷

নিপা ভাইরাসকে ডেডলি ভাইরাস বলা হলেও রোগতত্ত্ব এবং গবেষণা ইনষ্টিটিউটের ঊর্ধ্বতন বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ডা. এম মোশতাক হোসেন আতঙ্কিত না হওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন৷ তিনি বলেছেন, সতর্কতাই এই ভাইরাস খেকে বাঁচার প্রধান উপায়৷

প্রতিবেদন: হারুন উর রশীদ স্বপন, ঢাকা

সম্পাদনা: আব্দুল্লাহ আল-ফারূক