1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

নাচের মধ্যে দিয়ে ওজন কমানো

মোটা মানুষরা হালকা পাতলা হওয়ার জন্য কত কিছুই না করে থাকে৷ ফিটনেস স্টুডিওতে যাওয়া, ডায়েট, সকাল-বিকাল হাঁটা বা দৌঁড়নো৷ আর এবার ব্রিটেনে মোটা মানুষরা হালকা হওয়ার চেষ্টা করছে ‘সাম্বা’ নাচের মাধ্যমে৷ সেটা কী সম্ভব?

default

ফাইল ছবি

ব্রিটেনে মোটা-সোটা মানুষের সংখ্যা কিন্তু ইউরোপের অন্যান্য দেশের তুলনায় অনেক বেশি৷ বলা হচ্ছে ১৫ বছর বয়স থেকেই ধীরে ধীরে মোটা হওয়া শুরু করে টিন-এজাররা৷ এর মূল কারণ হল তেলে ভাজা খাবার, খেলাধুলায় অনাগ্রহ এবং বাড়িতে শুধু শুয়ে-বসে সময় কাটানো৷ এ সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে সরকার হাতে নিয়েছে নাচের একটি প্রকল্প৷ জানানো হয়েছে – বেশি করে নাচতে হবে৷ এ কারণেই গত কয়েক সপ্তাহ লন্ডনের পার্ক, থিয়েটার এমনকি টেম্স নদির তীরেও দেখা গেছে লোকজন দল বেধে নেচে বেড়াচ্ছে৷ এসব অনুষ্ঠানের নাম দেওয়া হয়েছে ‘বিগ ড্যান্স'৷

রাস্তায় সবাই নাচছে অনেকেরই স্টেপিং বা নাচের তাল মিলছে না, কিন্তু তাতে কিছু এসে যায় না৷ বিগ ড্যান্সে অংশগ্রহণ করাটাই আসল কথা৷ টেম্স নদীর পাড়েও একটি দল সমানে নাচছে৷ কোরিওগ্রাফার থামছে না৷ তিনি থামবেন আরো দু'ঘন্টা পর ট্রাফেলগার স্কয়ারে৷

আগ্রহী কারা ?

যারা কোন ধরণের ব্যায়াম বা খেলাধুলা করতে চায় না, তাদের জন্য এই নাচের আয়োজন করা হয়েছে৷ গোটা ব্রিটেনে প্রায় দেড় কোটি মানুষ কোন ধরণের খেলাধুলা বা শারীরিক কসরত একেবারেই করতে চায় না৷ দক্ষিণ লন্ডনের জ্যাকি জানালেন, ‘‘ নাচের মধ্যে দিয়ে অনেক ধরণের আনন্দ পাওয়া যায়৷ কিন্তু প্রাপ্তবয়স্করা নাচতে চায় না৷ নাচের জায়গাও সেরকম নেই৷ সেজন্যই আমি মনে করি, এটা দারুণ একটি পদ্ধতি৷ এর মধ্যে খুব সাধারণ মানুষকেও নাচতে উৎসাহিত করা যাবে৷ তাঁরা হয়তো নাচের স্কুলেও যেতে আগ্রহী হবেন৷ এমনকি তখন সরকার হয়তো নাচের স্কুলের ভর্তির ফি কমানোর জন্য ভর্তুকি দিতেও রাজি হবে৷ কে জানে ! এ বিশ্বে সবই সম্ভব!''

নাচ যদি সত্যিকার অর্থেই জনগণের খেলাধুলার বিষয় হয়, তাহলে অতিরিক্ত ওজোন নিয়ে যাদের সমস্যা তারা ওজোন কমাতে পারবেন৷ এই আশা করছেন ব্রিটেনের রাজনীতিকরা৷ বিগ ড্যান্সের জ্যাকলিন রোজ জানালেন, ‘‘আমাদের লক্ষ্য হল প্রায় বার লক্ষ লন্ডনবাসীকে এই বিগ ড্যান্সে আগ্রহী করে তোলা৷ এবং ২০১২ সালের মধ্যে এই সংখ্যাকে ৩০ লক্ষে নিয়ে যাওয়া৷ হ্যাঁ, সেটাই আমাদের মূল লক্ষ্য৷ আমরা সবাইকে যা বলতে চাচ্ছি তা হল, ‘সোফা ছেড়ে উঠে আসো, নড়া-চড়া শুরু করো'৷ এটাই আমাদের প্রজেক্ট !''

বিগ ড্যান্স আসলেই বিগ !

অনেকেই যোগ দিচ্ছেন নাচে৷ নিজের ভেতর অলসতাকে দূরে সরিয়ে রেখে অনেকেই উঠে আসছেন৷ অনেকের কাছে আবার দেখাটাই বেশি আনন্দের৷ সরকার চাচ্ছে প্রতিটি মানুষই কমবেশি ব্যায়াম করুক৷ অলসতা দূরে সরে যাক৷ তা কী আসলে কাজ করছে ? অনেকেই জানালেন তাদের মত - বলল,‘‘আমার মনে হয় এটা দারুণ একটি পরিকল্পনা৷ সত্যি দারুণ!''

আরেক জনকে প্রশ্ন করা হয়েছিল নাচের মত অন্য কিছু কী কখনো এত আকর্ষণীয় মনে হয় ? এ ধরণের নাচে আপনি কী আগ্রহী ? তিনি বললেন, ‘‘ হতে পারে আমি একদিন নাচবো কিন্তু এ ধরণের আবহাওয়ায় নয়৷ ''

সবসময় ইতিবাচক চিন্তা ভাবনা করতে হবে৷ জানান কোরিওগ্রাফার লুকা সিলভেসট্রিনি৷ এভাবেই অলস ব্রিটদের সচল করা যেতে পারে৷ নাচ এখানে বেশ জনপ্রিয়৷ টেলিভিশনে যে কোন ধরণের নাচের শো একারণেই সুপারহিট ! লুকা সিলভেলট্রিনি জানান, ‘‘নাচের মধ্যে দিয়ে সৃজনশীল হওয়া যায়৷ এটা পরফরমেন্সের বিষয়৷ নিজেকে নাচের মধ্যে দিয়ে প্রকাশ করা৷ নাচের মধ্যে দিয়ে ওজোন কমলো কী বাড়লো সেটা আসল কথা নয়৷ নাচ হচ্ছে নাচ৷''

কয়েকজন উচ্ছ্বাসের সঙ্গে জানালেন এই নাচের মাদকতা আসলে কত গভীরে পৌঁছেছে৷ একজনের ভাষায়,‘‘ নাচের মধ্যে দিয়ে যে কেউ ফিট থাকতে পারবে৷ সত্যেই এই নাচ সাহায্য করবে৷'' আরেকজন জানাল, ‘‘যে কেউই এই নাচ নাচতে পারবে৷ আপনাকে শুধু নির্দিষ্ট তাল আর স্টেপিংটা বেছে নিতে হবে৷ আপনি দ্রুত নাচতে চান নাকি ধীরে তাও আপনি ঠিক করে নিতে পারবেন৷''

প্রতিবেদন: মারিনা জোয়ারদার

সম্পাদনা: দেবারতি গুহ