1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

জার্মানি ইউরোপ

ধীরে হলেও ঘুরে দাঁড়াচ্ছে ইউরো এলাকা

চলতি বছরেই ইউরো এলাকা মন্দা কাটিয়ে আবার মাথা তুলে দাঁড়াবে – এমন পূর্বাভাষ দিয়েছেন ইউরোপীয় কেন্দ্রীয় ব্যাংকের প্রধান৷ তাই আগামী ইইউ সম্মেলনে বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নে অগ্রগতির আশা করা হচ্ছে৷

ইউরোপীয় কেন্দ্রীয় ব্যাংকের প্রধান মারিও দ্রাগি মন্তব্য করেছেন, ইউরো এলাকায় মন্দা কাটবে ঠিকই, তবে তার জন্য কিছুটা সময় লাগবে৷ চলতি বছরের শেষেই তার সুফল পাওয়া যাবে৷ এখনই বেশ কিছু ইতিবাচক লক্ষণ দেখা যাচ্ছে বলে দ্রাগি জানিয়েছেন৷ ইউরো এলাকায় স্থিতিশীলতার স্বার্থে ইসিবি কাজ করে যাবে, বলেন তিনি৷ মনে রাখতে হবে, এর আগেও বাজারকে শান্ত করতে দ্রাগির মন্তব্য সহায়ক হয়েছে৷

চলতি মাসের শেষে ইইউ শীর্ষ সম্মেলনের দিকেই আপাতত সবার নজর৷ গত কয়েক মাস ধরে ইউরো এলাকার ভবিষ্যৎ নিয়ে ফ্রান্স ও জার্মানির মধ্যে নানা মতপার্থক্যের কারণেও অনিশ্চয়তা দেখা দিয়েছিল৷ গত সপ্তাহে ম্যার্কেল ও ওলঁদ যৌথ উদ্যোগে অর্থনৈতিক নীতির রূপরেখা তৈরি করায় স্বস্তির নিঃশ্বাস পড়েছে৷ এর মধ্যে রয়েছে ইউরোগ্রুপের স্থায়ী সভাপতি নিয়োগ, ইউরো এলাকার শীর্ষ নেতাদের আরও ঘন ঘন বৈঠকের আয়োজন, সামাজিক ভাতা ও কর সংক্রান্ত নীতির ক্ষেত্রে আরও সমন্বয় ইত্যাদি৷

ব্যাংকিং ইউনিয়ন সৃষ্টির পথেও আরও একধাপ এগিয়ে যেতে চান দুই নেতা৷ ইউরোপীয় চুক্তির কোনো রদবদল ছাড়াই এ সব করা হবে৷ ফ্রান্সের দুর্বলতার কারণে জার্মানি এতই উদ্বিগ্ন যে, ম্যার্কেল বেশ কিছু ছাড় দিতে বাধ্য হয়েছেন বলে মনে করছেন অনেক পর্যবেক্ষক৷ এর বদলে ফ্রান্সকে ব্যাপক সংস্কার চালাতে হবে৷ আইএমএফ চলতি বছর জার্মানির প্রবৃদ্ধির পূর্বাভাষ কমিয়ে দেওয়ায় কিছুটা হতাশা দেখা যাচ্ছে৷ ইইউ সম্মেলনে এ সব বিষয় আলোচিত হবে বলে ধরে নেওয়া হচ্ছে৷

চলতি সপ্তাহে আন্তর্জাতিক দাতারা গ্রিসে গিয়ে সে দেশের অগ্রগতি খতিয়ে দেখবেন৷ তার উপর নির্ভর করবে আগামী কিস্তির বেলআউটের ভবিষ্যৎ৷ স্পেনের ব্যাংকিং ক্ষেত্রে সংস্কারের সুফল দেখা যাচ্ছে৷ জার্মানি স্পেনের ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পকে চাঙ্গা করতে বিশেষ ঋণের ঘোষণা করেছে৷ ইটালি ও পর্তুগালকেও এমন সহায়তা দিচ্ছে জার্মানি৷ এদিকে লাটভিয়া আগামী বছর ইউরো এলাকায় যোগ দিতে চলেছে৷ ফলে সদস্যসংখ্যা দাঁড়াবে ১৮৷

ইউরো এলাকায় উৎপাদনের সূচক বেড়ে যাওয়া সত্ত্বেও বাজার তেমন চাঙ্গা হতে পারে নি৷ গত ১৫ মাসে এটাই সবচেয়ে ভালো ফল৷ অ্যামেরিকার কেন্দ্রীয় ব্যাংক স্টিমুলাস কমাতে পারে, এই আশঙ্কাও কাজ করছে৷

এসবি/ডিজি (ডিপিএ, রয়টার্স, এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন