1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বাংলাদেশ

ধর্ম অবমাননার অভিযোগে অপদস্থ শিক্ষক ঘুসের মামলায় কারাগারে

ধর্ম অবমাননার অভিযোগ তুলে কান ধরে উঠ-বস করানো নারায়ণগঞ্জের শিক্ষক শ্যামল কান্তিকে ঘুসের মামলায় কারাগারে পাঠিয়েছে আদালত৷ কারাদণ্ডপ্রাপ্ত শিক্ষকের দাবি, ‘প্রভাবশালী এক ব্যক্তির নির্দেশে ষড়যন্ত্রমূলকভাবে’ মামলাটি করা হয়েছে৷

ডয়চে ভেলের কন্টেন্ট পার্টনার বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম জানায়, পুলিশের দেওয়া অভিযোগপত্র আমলে নিয়ে নারায়ণগঞ্জের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট অশোক কুমার দত্ত বুধবার সকালে শ্যামল কান্তির বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেন৷ বিকালে আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন চাইলে বিচারক তা নাকচ করে শিক্ষককে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন৷

গত বছরের ১৪ মে ইসলাম ধর্ম অবমাননার গুজব ছড়িয়ে নারায়ণগঞ্জের পিয়ার সাত্তার লতিফ হাই স্কুলের প্রধান  শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তকে বিদ্যালয়ের ভেতরে আটক করে মারধর করা হয়৷ পরে স্থানীয় এমপি সেলিম ওসমানের উপস্থিতিতে তাঁকে কান ধরে উঠ-বস করানো হয়৷ পরে তাঁকে স্কুল থেকে বহিষ্কারও করা হয়৷ কিন্তু সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রতিবাদের ঝড় ওঠায় এক পর্যায়ে চাকরি ফিরে পান শ্যামল কান্তি ভক্ত৷ কিন্তু সংবাদ মাধ্যমের খবর অনুযায়ী, তারপর অপদস্থ শিক্ষকের বিরুদ্ধেই ঘুসের অভিযোগে মামলা দায়ের করা হলে গোপনে চার্জশিট দেয় পুলিশ৷

এসিবি/জেডএইচ

প্রিয় পাঠক, আপনি কিছু বলতে চাইলে লিখুন নীচে মন্তব্যের ঘরে...

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়