1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

এশিয়া

ধর্মীয় বিদ্বেষের জবাব দেবে ডিজিটাল মাদ্রাসা

ইন্দোনেশিয়ার ইসলামিক বোর্ডিং স্কুলগুলোর অ্যাসোসিয়েশন আইপিআই একটি ডিজিটাল মাদ্রাসা প্রোগ্রাম শুরু করছে৷ সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমসহ ইন্টারনেটভিত্তিক বিভিন্ন প্লাটফর্মে ধর্মীয় উগ্রবাদ ছড়ানোর বিরুদ্ধে জবাব দিতেই এই উদ্যোগ৷

পূর্ব জাভায় অ্যাসোসিয়েশন প্রধান যাইনি আখমাদ বলেছেন, এই ডিজিটাল প্রোগ্রাম পেসান্ত্রেনগুলোর (মাদ্রাসা) ছাত্রছাত্রীদের, যাদের ‘সান্ত্রি' বলে ডাকা হয়, প্রযুক্তি সম্পর্কে জ্ঞান দেবে৷ 

‘‘অ্যাসোসিয়েশনের পেসান্ত্রেনগুলোর সব সান্ত্রিদেরই প্রযুক্তি বিষয়ে শিক্ষা ও প্রশিক্ষণ দেয়া হবে৷'' বন্দর নগর সুরাবায়ার একটি গণমাধ্যমে দেয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন৷ তিনি আরো বলেন, ডিজিটাল এই প্রোগ্রাম ইন্টারনেটে সান্ত্রিদের মাঝে বিদ্বেষ ও উগ্রতা নিয়ে ঘাটাঘাটি করার প্রবণতা কমাবে৷

‘‘ইসলাম বিদ্বেষ নয়, শান্তির পানি ছড়াবে৷ ইসলামিক স্কুলগুলোরও দায়িত্ব হল, উগ্রবাদকে ঠেকাতে শান্তির বাণী ছড়ানো৷'' বলেন তিনি৷

ডিজিটাল প্রোগ্রামটির জন্য বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর আইটি বিশেষজ্ঞদের সহযোগিতা নেওয়ার জন্য মাদ্রাসাগুলোকে পরামর্শ দেন তিনি৷

তাঁর কথায়, ‘‘এই প্রোগ্রামটি বানাতে আইপিআই ব্যক্তিখাতের প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলোর সহযোগিতা নেবে৷ আমরা এরই মধ্যে সান্ত্রিদের জন্য ৫০ লাখ সিম বরাদ্দ করেছি৷''

‘পেসান্ত্রেন ডিজিটাল' নামে এরই মধ্যে বেশ কিছু কর্মসূচী পালন করা হয়েছে৷ www.pesantrendigital.org/ নামে একটি ওয়েবসাইটও পাওয়া গেছে৷ এছাড়া টুইটার ও ফেসবুকে গ্রুপ ও পেজ খোলা হয়েছে৷

এছাড়া এদের ইউটিউব চ্যানেলও রয়েছে, যেখানে ভিডিওগুলোতে ক্লাসরুমের কিছু ক্লিপ দেখা গেছে৷ 

এতদিন ইসলামিক বোর্ডিং স্কুল বা মাদ্রাসাগুলোতে এই প্রযুক্তি শিক্ষা দেয়ার কর্মসূচি চলছিল৷ এখন সেখানে যুক্ত হলো, এই প্রযুক্তি ব্যবহার করে ইসলামের শান্তির বাণী কিভাবে সবার কাছে পৌঁছানো যায় সেই প্রচেষ্টা৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন