1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

ধরিত্রীতে জনসংখ্যার বিস্ফোরণ

বেড়ে যাচ্ছে পৃথিবীর জনসংখ্যা - এমনটাই জানালো জাতিসংঘের একটি প্রতিবেদন৷ এই ধরিত্রীতে মানুষের সংখ্যা এখন সাত'শ কোটিরও উপরে৷ সবুজ এই পৃথিবীতে প্রাণের উদ্ভব হয়েছিল অনেক অনেক আগে৷

default

পোপের ভাষণ শুনতে মানুষ ভীড় করতেই পারে তবে পৃথিবীর জনসংখ্যা কিন্তু সত্যিই বাড়ছে

সেই প্রাণ থেকে মানুষ কী করে এলো তা নিয়ে এখনো অনেক বিতর্ক থাকলেও একটি বিষয়ে এখনো কোন বিতর্ক নেই যে ক্রমেই বেড়ে যাচ্ছে এই পৃথিবীর জনসংখ্যা৷ জাতিসংঘ গত মঙ্গলবার এই বিষয়ে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে৷ আগে প্রকাশ করা প্রতিবেদনের সংশোধনী সংস্করণ এটি৷ তাতে বলা হলো, জনসংখ্যার বিস্ফোরণ হয়েছে পৃথিবীতে৷ ইতিমধ্যেই, অর্থাৎ গত বছরের অক্টোবরের ৩১ তারিখে বিশ্বের জনসংখ্যা সাত শত কোটি বা ৭ বিলিয়ন অতিক্রম করেছে৷ আর এই শতাব্দীর শেষ নাগাদ এই বিশ্বের লোকসংখ্যা ১ হাজার কোটি বা এরও বেশি হবে বলেই মনে করছে জাতিসংঘ৷

জাতিসংঘের ঐ রির্পোটে বলা হয়েছে, জনসংখ্যার নতুন এই হিসাব আগে যে কোন সময়ের হিসাবের চেয়ে বেশি৷ তারা বিভিন্ন দেশের মানুষের গড় আয়ু, জন্ম এবং গড় মৃত্যুর হিসাব নিরীক্ষা করেই এই তথ্য উপস্থাপন করেছেন৷ তবে তারা বলছেন, এই হিসাব অনেক বেড়ে যাবে যদি জন্মনিয়ন্ত্রণ কর্মসূচি সঠিকভাবে বাস্তবায়ন না হয়৷ তখন একই সময়ে বিশ্বের জনসংখ্যা গিয়ে দাঁড়াবে ১ হাজার ৬০০ কোটিতে৷

Petersberg

সবুজ এই পৃথিবীতে প্রাণের উদ্ভব হয়েছিল অনেক অনেক আগে

তবে এই রির্পোট কোন কোন দেশের জনসংখ্যা না বেড়ে কমে যাওয়ারই আশঙ্কা করছে৷ দেশগুলোর মধ্যে আছে চীন এবং রাশিয়ার মতো বড় দেশ৷ বলা হচ্ছে, বর্তমান গতি অব্যাহত থাকলে ২১০০ সাল নাগাদ চীনের জনসংখ্যা কমে দাঁড়াবে ১০০ কোটি৷ বর্তমানে এই দেশের জনসংখ্যা ১৩৪ কোটি৷ রাশিয়ার বর্তমান জনসংখ্যা কমবে ১৪ কোটি ৩০ লাখ থেকে ১১ কোটি ১০ লাখ৷

ঐ রির্পোটের কথা উল্লেখ করে জাতিসংঘের জনসংখ্যা তহবিলের প্রধান বাবাটুন্ডে অসোটুমেহিন বলেছেন, বিশ্বের ২১৫ কোটি নারী এখনো জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ এবং সঠিক স্বাস্থ্য সেবার বাইরে৷ তাদের জন্য সেই সুযোগ সৃষ্টি করতে হবে৷

প্রতিবেদন: সাগর সরওয়ার

সম্পাদনা: আব্দুল্লাহ আল-ফারূক