1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

দ্রুত মুখ চেনার ক্ষমতা রাখে বিড়াল

অবাক হবেননা৷ বিড়াল কিন্তু সুপারকম্পিউটারের চেয়েও বেশি দ্রুত এবং আরও বেশি দক্ষতার সাথে মানুষের মুখ চিনতে পারে৷ একথাই বলছেন বিজ্ঞানীরা৷

default

বেশি দক্ষতার সাথে মানুষের মুখ চিনতে পারে এরা

আর মার্জারের এই গুণের কারণেই অ্যামেরিকার মিশিগান বিশ্ববিদ্যালয়ে এক কম্পিউটার নির্ভর গবেষণা প্রকল্পের জন্য বিড়ালের মস্তিষ্ককেই মডেল হিসেবে নেয়া হয়েছে৷ এই মস্তিষ্কের ক্ষমতার আদলেই নতুন এক যন্ত্র তৈরির ক্ষেত্রে এগিয়ে গেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের কম্পিউটার ইন্জিনিয়ার ওয়েই লু৷

Katze Katzensprung

বিড়ালের মস্তিষ্ককে মডেল হিসেবে গ্রহণ করার পরিকল্পনা বাস্তবসম্মত : ওয়েই লু

এমন এক যন্ত্র যা শিখতে এবং চিনে নিতে পারবে, গ্রহণ করতে পারবে জটিল সব সিদ্ধান্ত এবং প্রচলিত কম্পিউটারের চেয়েও অনেক বেশি কাজ করতে সক্ষম হবে একই সঙ্গে৷

ওয়েই লু বলেন, প্রকৃতি যেভাবে মস্তিষ্ক গড়ে তোলে, ঠিক সেভাবেই আমরা একটি কম্পিউটার তৈরি করছি৷ লু হলেন মিশিগান বিশ্ববিদ্যালয়ের ইলেকট্রিক্যাল ইন্জিনিয়ারিং ও কম্পিউটার সায়েন্স বিভাগের অ্যাসিসট্যান্ট প্রফেসর৷

BdT Hund und Katze spielen Klavier

বিড়াল কিন্তু সুপারকম্পিউটারের চেয়েও বেশি দ্রুত !

লু বলছেন, বিড়ালের মস্তিষ্ককে মডেল হিসেবে গ্রহণ করার পরিকল্পনা বাস্তবসম্মত কেননা তা মানুষের মস্তিষ্কের চেয়ে কম জটিল৷ তিনি মনে করেন, আজকের সূক্ষ্মতম সুপারকম্পিউটার বিড়ালের মস্তিষ্কের কাজের আদলে কিছু সুনির্দিষ্ট কাজ করতে সক্ষম৷ কিন্তু এ হল এমন এক বিশাল ক্ষমতার অধিকারী যন্ত্র যাতে রয়েছে ১৪০,০০০'এর বেশি কেন্দ্রীয় প্রসেসিং ইউনিট৷ কিন্তু তা সত্ত্বেও যন্ত্রটি একটি বিড়ালের মস্তিষ্কের চেয়ে ৮৩ গুন ধীরে কাজ করে, বলেছেন বিজ্ঞানী লু৷

প্রতিবেদন: আসফারা হক

সম্পাদনা: আব্দুল্লাহ আল-ফারূক

সংশ্লিষ্ট বিষয়