1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

তিন কন্যার বিয়ে দিলেন হাসিনা

পুরানো ঢাকার নিমতলীর অগ্নিকান্ডে স্বজন হারানো তিন মেয়ের বিয়ে দিয়ে এক অসাধারণ মানবিক দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা৷ যেন আগুনে পুড়ে যাওয়া মায়ের কোল নতুন করে ফিরে পেয়েছে এই তিন দুঃখী মেয়ে৷

default

পুরানো ঢাকার ভয়াবহ আগুন শুধু শতাধিক মানুষের জীবনই কেড়ে নেয়নি, তিন তরুণীর স্বপ্ন সাধও কেড়ে নিয়েছিল৷ দুই বোন রত্না-রুমা আর আসমার বিয়ের প্রাথমিক আনুষ্ঠানিকতা ছিল সেদিন৷ আগুনে তারা শুধু স্বজনই হারায়নি, হারিয়েছিল বিয়ের আশা৷ কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্যোগে কান্নার মধ্যেও বেজেছে সানাইয়ের সুর৷ আগুন থামাতে পারেনি তাদের জীবন৷ মুছে দিতে পারনি জীবনের রং, উৎসবের আয়োজন৷

বুধকার রাতে গণভবনে প্রধানমন্ত্রী ‘মা' হিসেবে এই তিন কন্যাকে সম্প্রদান করলেন তাদের স্বামীদের কাছে৷ আলোর ছটা আর বর্নিল আয়োজনে বিয়ের আসরে গণভবন সরগরম ছিল মধ্যরাত পর্যন্ত৷ তারপর বুকে টেনে নিয়ে চোখের জলে প্রধানমন্ত্রী শ্বশুরবাড়ির পথে যাত্রা করিয়ে দেন তাঁর তিন কন্যাকে৷ তিন কন্যা বললেন, ‘আমরা সব কিছু হারিয়েও ফিরে পেয়েছি আরেক মাকে'৷ তাদের তিন স্বামী বললেন, ‘যা স্বপ্নেও ভাবিনি তাই বাস্তব হয়ছে'৷

আগুন লাগার ১৫ মিনিট আগে রাত পৌনে ৯টায় এই তিন কন্যা সাজতে পার্লারে যাওয়ায় প্রাণে বেঁচে যান৷আর এই ঘটনা প্রধানন্ত্রীর নজরে এলে তিনি সর্বান্তকরণে তাদের বিয়ের উদ্যাগ নেন৷ গণভবনে এই প্রথমবারের মত কোন বিয়ের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সমাজের বিভিন্ন শ্রেনীর ছয়শো'র মত অতিথি৷

বর-কনেদের উপহার সামগ্রী এবং ঘর সাজানোর সবকিছুই দেওয়া হয়েছে৷ প্রত্যেককে আট ভরি করে সোনার গহনাও দেওয়া হয়েছে উপহার হিসেবে৷ সবচেয়ে বড় কথা স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাদের মাথার উপর ছায়া হয়ে থাকছেন সবসময়৷

প্রতিবেদন : হারুন উর রশীদ স্বপন, ঢাকা

সম্পাদনা : সুপ্রিয় বন্দ্যোপাধ্যায়

সংশ্লিষ্ট বিষয়