1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

তিউনিসিয়ায় আজ নতুন সরকার গঠিত হতে যাচ্ছে

তিউনিসিয়ায় আজ সোমবার নতুন সরকার গঠিত হতে যাচ্ছে৷ প্রধানমন্ত্রী মোহাম্মদ ঘানুচি এমনটাই বলছেন৷ এদিকে তিউনিসিয়ার মত বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ছে অন্যান্য আরব দেশে৷

default

প্রধানমন্ত্রী মোহাম্মদ ঘানুচি

সরকার গঠন

বিষয়টি নিয়ে গতকাল রবিবার বিরোধী দলগুলোর সঙ্গে বৈঠক করেছেন প্রধানমন্ত্রী ঘানুচি৷ এরপর টেলিভিশনে দেয়া এক ভাষণে তিনি আজ সোমবারের মধ্যে সরকার গঠনের ঘোষণা দেন৷ বৈঠকে পলাতক সাবেক প্রেসিডেন্ট বেন আলির সঙ্গে ঘনিষ্ঠ কোনো রাজনৈতিক দলকে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি৷ এছাড়া বেন আলি যে দুটো দলকে নিষিদ্ধ করেছিল তাদেরকেও আলোচনায় নেয়া হয়নি৷ এদিকে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিন্টন প্রধানমন্ত্রী ঘানুচির পদক্ষেপকে স্বাগত জানিয়েছেন৷ তিনি বলেন, এর ফলে দেশটিতে সত্যিকারের একটা প্রতিনিধিত্বমূলক সরকার গঠন সম্ভব হবে৷

তিউনিসের সর্বশেষ

রাজধানীর অবস্থার তেমন কোনো উন্নতি হয়নি৷ তবে কিছু কিছু দোকানপাট খুলেছে৷ কিন্তু সংখ্যায় সেটা অনেক কম৷ এখনো নিরাপত্তা রক্ষায় সেনা মোতায়েন রয়েছে৷ তারা লুটতরাজের ঘটনাগুলো সামাল দিচ্ছেন৷ এছাড়া রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তার জন্য হুমকিস্বরূপ, এই অভিযোগে বেন আলি'র নিরাপত্তায় নিয়োজিত বাহিনীর প্রধান আলি সেরিয়াতিকে গতকাল গ্রেপ্তার করেছে সেনাবাহিনী৷ এরপর প্রেসিডেন্ট প্রাসাদে থাকা সেরিয়াতির অন্যান্য সহকর্মীদের সঙ্গে সেনা সদস্যদের ব্যাপক গোলাগুলির খবর পাওয়া গেছে৷ এদিকে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ভবনে লুকিয়ে থাকা দুই বন্দুকধারীকে হত্যা করেছে সেনাবাহিনী৷ এছাড়া আরও কয়েক বন্দুকধারীর সঙ্গেও গুলি বিনিময় করেছেন সেনা সদস্যরা৷

আরব দেশে বিক্ষোভ

মিশর ও জর্ডানে আগেই শুরু হয়েছে বিক্ষোভ৷ আর গতকাল হলো ইয়েমেনে৷ রাজধানী সানা'য় শত শত লোক তিউনিসিয়ার গণবিক্ষোভের পক্ষে সমর্থন জানিয়েছে৷ একই সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে ক্ষমতায় থাকা অন্যান্য আরব নেতাদের পদত্যাগের দাবি জানান তারা৷ এদিকে আলজিরিয়ায় চারটি আত্মহত্যার ঘটনা ঠেকানো হয়েছে৷ তিউনিসিয়ার বিক্ষোভের শুরুটা হয়েছিল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সদ্য পাস করা এক তরুণের আত্মহত্যার ঘটনার মধ্য দিয়ে৷ অর্থাৎ আলজিরিয়াতেও একই ধরণের ঘটনা ঘটানোর চেষ্টা করা হচ্ছিল৷ আর সিরিয়া দ্রব্যমূল্য ঠিক রাখতে ভর্তুকি বাড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে৷ তিউনিসিয়ার ঘটনা থেকে শিক্ষা নিয়েই সিরিয়া এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে জানা গেছে৷ কারণ খাবারের মূল্যবদ্ধি, এটাও তিউনিসিয়ায় বিক্ষোভ ফুঁসে উঠার অন্যতম একটা কারণ৷

প্রতিবেদন: জাহিদুল হক

সম্পাদনা: রিয়াজুল ইসলাম

নির্বাচিত প্রতিবেদন